বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > KMC Elections 2021: 'ভোট দিতে বাধা?' যোগাযোগের জন্য হোর্ডিংয়ে থানার বড়বাবুর নম্বর তৃণমূল প্রার্থীর
এবারের পুরভোটকে কেন্দ্র করে দলের নেতা নেত্রীদের উদ্দেশে একাধিকবার কড়া বার্তা দিতে শোনা গিয়েছে তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় থেকে শুরু করে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়-সহ তৃণমূলের অন্যান্য নেতাকে। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই)

KMC Elections 2021: 'ভোট দিতে বাধা?' যোগাযোগের জন্য হোর্ডিংয়ে থানার বড়বাবুর নম্বর তৃণমূল প্রার্থীর

  • তাতে লেখা রয়েছে, 'কাউকে ভোটদানে বাধা দেওয়া হলে তিনি যেন সরাসরি আমার সঙ্গে যোগাযোগ করেন। প্রয়োজন হলে আমি নিজেই তাকে ভোটগ্রহণ কেন্দ্রের নিয়ে যাব।' 

এবারের পুরভোটকে কেন্দ্র করে দলের নেতা নেত্রীদের উদ্দেশে একাধিকবার কড়া বার্তা দিতে শোনা গিয়েছে তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় থেকে শুরু করে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়-সহ তৃণমূলের অন্যান্য নেতাকে। প্রার্থীদের নিজেদের কোমরের জোরেই ভোটে জিততে হবে বলে কড়া হুঁশিয়ারি দিয়েছেন মমতা। সেইসঙ্গে ভোটদানে ভোটারদের কোনওরকমভাবে বাধা দেওয়া যাবে না বলেও স্পষ্ট বার্তা দিয়েছেন। পুরভোটের প্রচারে তৃণমূল সুপ্রিমোর সেই নির্দেশ অক্ষরে অক্ষরে পালন করছেন পুরসভার বিদায়ী মেয়র পারিষদ তারক সিং।

বেহালার ১১৮ নম্বর ওয়ার্ডের তৃণমূল প্রার্থী তারক সিং। দু'বারের কাউন্সিলর তিনি। এবারও সেই পদ ধরে রাখতে মরিয়া তারক সিং। ওয়ার্ডে তাঁর হোডিং পোস্টার ভরে রয়েছে। সাধারণ মানুষের ভোটদানে যাতে কোনওরকমের অসুবিধা না হয় সেই কথা উল্লেখ করেছেন প্রচারের হোর্ডিংয়ে। তাতে লেখা রয়েছে, 'কাউকে ভোটদানে বাধা দেওয়া হলে তিনি যেন সরাসরি আমার সঙ্গে যোগাযোগ করেন। প্রয়োজন হলে আমি নিজেই তাকে ভোটগ্রহণ কেন্দ্রের নিয়ে যাব।'

প্রসঙ্গত, এবারের পুরভোটে প্রার্থী হয়েছেন তাঁর মেয়ে কৃষ্ণা সিং এবং ছেলে অমিত সিং। তাঁর মেয়ে কৃষ্ণা সিংহ ২০০০ সাল থেকে ১১৬ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর রয়েছেন। অন্যদিকে, ১১৭ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর তাঁর ছেলে। এবারও তাদের পুরভোটে প্রার্থী করা হয়েছে। এনিয়ে তাঁর বিরুদ্ধে পরিবারতন্ত্রের অভিযোগ উঠলেও তা অবশ্য মানতে নারাজ তারক সিং। তিনি মনে করেন , তাঁর ছেলে এবং মেয়ে নিজের যোগ্যতাতেই দলের অনুমতিতে প্রার্থী হয়েছেন।

অন্যদিকে, পুরভোটের প্রচারে বিভিন্ন জায়গায় টাঙানো হোর্ডিং, পোস্টারে নিজের ফোন নম্বর দেওয়ার পাশাপাশি বেহালা থানার বড়বাবু প্রসেনজিৎ পোদ্দার এবং নিউ আলিপুর থানার ওসি শৈবাল রায়েরও নম্বর দেওয়া রয়েছে। এ বিষয়ে তারক সিং বলেন, 'মানুষ যাতে নির্বিঘ্নে তাঁদের গণতান্ত্রিক অধিকার প্রয়োগ করতে পারেন তার জন্যই এই সমস্ত নম্বর দেওয়া রয়েছে।'

বন্ধ করুন