বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > খোলা পিঠে ছবি পোস্ট মিশমির! ‘ক্লিপ খুলে দিলেই খোলা’, নোংরা ইঙ্গিত নেটপাড়ায়
মিশমি দাস। 
মিশমি দাস। 

খোলা পিঠে ছবি পোস্ট মিশমির! ‘ক্লিপ খুলে দিলেই খোলা’, নোংরা ইঙ্গিত নেটপাড়ায়

  • উন্মুক্ত পিঠে সাহসী ছবি পোস্ট করলেন মিশমি। কড়া সমালোচনায় সামিল নীতি পুলিশরা। 

সোশ্যাল মিডিয়ায় ফের খোলামেলা পোশাকে ‘সেক্সি’ অবতারে মিশমি। কিন্তু তা নিয়ে সমস্যার শেষ নেই কিছু মানুষের। পিঠ খোলা ড্রেসে ট্যাটু দেখিয়ে একটি ছবি অভিনেত্রী শেয়ার করেছিলেন নিজের সোশ্যাল মিডিয়ায়। আর তা নিয়ে বিশ্রি কটাক্ষ করলেন অনেকেই। এমনকী, প্রকাশ্যে কমেন্টে দেওয়া হল নোংরা ইঙ্গিতও। 

যদিও এটা প্রথমবার নয়। তাঁর ফেসবুক পেজের প্রোফাইল পিকচারেও রয়েছে পিঠখোলা ছবি। সেসময়তেও হয়েছিল সমালোচনা। তবে সেসবে পাত্তা দিতে একেবারেই রাজি নন। তাই তো, হটনেসে টেক্কা দিচ্ছেন ইন্ডাস্ট্রি নায়িকাদের। ২০১৪ সালে ‘রাজযোটক’ ধারাবাহিক দিয়ে অভিনয়ের শুরু ৷ এরপর ‘প্রেমের ফাঁদে’, ‘গাছকৌটো’, ‘ফাগুন বউ’, ‘এই পথ যদি না শেষ হয়’-সহ একাধিক ধারাবাহিকে ছোট-বড় ভূমিকায় অভিনয় করেছেন৷ পা রেখেছেন বলিউডেও।

মিশমি-র ছবিতে নেট-নাগরিকদের কটাক্ষ। 
মিশমি-র ছবিতে নেট-নাগরিকদের কটাক্ষ। 

মিশমির এই ছবিতে নানা ধরনের তির্যক কথা চোখে পড়েছে। কেউ বা তাঁর অন্তর্বাস নিয়ে কথা বলেছেন, তো কেউ তাঁর রুচি খারাপ বলেও মন্তব্য করেছেন। এমনকী, তাঁর পিঠে থাকা ট্যাটুকে এগডালিয়ার লাইটিংয়ের সঙ্গে তুলনা করা হয়েছে। তবে, এসব কথার কোনও জবাব দেওয়ার প্রয়োজন মনে করেননি। 

ক্রুশল আহুজার বিপরীতে হিন্দি ধারাবাহিক ‘রিস্তো কা মাঞ্ঝা’তে তিনি অভিনয় করছেন টিনার চরিত্রে। বাংলা ধারাবাহিক ‘দীপ জ্বেলে যাই’-এর হিন্দি সংস্করণ এটি। এর আগেও মুম্বইতে কিছু প্রোজেক্টে কাজ করেছিলেন। কিন্তু সেই সময় বাবার অসুস্থতার জন্য তাঁকে শহরে ফিরতে হয়।

বন্ধ করুন