বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > রাশিয়ার থেকে 'এস ৪০০ মিসাইল সিস্টেম' ক্রয় নিয়ে মার্কিনি রোষে ভারত? বড় 'কোপ'এর আশঙ্কা
এস-৪০০ মিসাইল সিস্টেম নিয়ে ক্ষোভ রয়েছে আমেরিকার। ছবি সৌজন্য- Archive (HT_PRINT)

রাশিয়ার থেকে 'এস ৪০০ মিসাইল সিস্টেম' ক্রয় নিয়ে মার্কিনি রোষে ভারত? বড় 'কোপ'এর আশঙ্কা

  • ভারতের একটা বড় সংখ্যক অস্ত্র কেনা হয়ে থাকে রাশিয়ার থেকে। এরপর রাশিয়ার থেকে এস ৪০০ মিসাইল ডিফেন্স সিস্টেম কিনছে ভারত। আর এই মিসাইল ক্রয়ের ঘটনাই কার্যত আমেরিকার রোষ নজরে এবেছে ভারতকে। এমন তথ্য উঠে এসেছে এক আমলা সূত্রে।

সপ্তাহ কেটে যেতে চলেছে, তবে ইউক্রেনের বুকে থামছে না রুশ হামলার রেশ। ক্রমেই পর পর ইউক্রেনীয় শহর দখল করে যাচ্ছে রাশিয়ার সেনা। এমন পরিস্থিতিতে আমেরিকা সহ পশ্চিমী বিশ্ব রাশিয়ার তুমুল বিরোধিতায় নেমেছে। এদিকে রাষ্ট্রসংঘের বুকে রাশিয়ার বিরুদ্ধের প্রস্তাবে ভোটাভুটির ক্ষেত্রে বিরত থেকেছে ভারত। যেখানে আমেরিকা সহ বহু দেশই রাশিয়ার বিপক্ষে সোচ্চার হয়েছিল। এরপরই ভারতের ওপর বড়সড় নিষেধাজ্ঞার খাঁড়া ঝোলাতে পারে আমেরিকা বলে খবর উঠে আসছে।

উল্লেখ্য, ভারতের একটা বড় সংখ্যক অস্ত্র কেনা হয়ে থাকে রাশিয়ার থেকে। এরপর রাশিয়ার থেকে এস ৪০০ মিসাইল ডিফেন্স সিস্টেম কিনছে ভারত। আর এই মিসাইল ক্রয়ের ঘটনাই কার্যত আমেরিকার রোষ নজরে এবেছে ভারতকে। এমন তথ্য উঠে এসেছে এক আমলা সূত্রে। এদিকে, রাষ্ট্রসংঘে রাশিয়ার বিপক্ষে আসা প্রস্তাবে ভারত ভোটাভুটি থেকে দূরে ছিল,সে ঘটনার পরই আমেরিকার এই নিষেধাজ্ঞা আরোপের সম্ভাবনার খবর উঠে আসতেই শুরু হয়েছে কূটনৈতিক স্ট্র্যাটেজি নিয়ে নানান জল্পনা। জানা যাচ্ছে, আমেরিকার CAATSA আইনের আওতায় মার্কিন প্রেসিডেন্ট খুব শিগগিরিই সিদ্ধান্ত নিতে চলেছেন ভারতের এস-৪০- মিসাইল কেনার ইস্যুতে। রাশিয়ার থেকে অই অস্ত্র কেনার হেতু , আমেরিকা ভারতের ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি করতেও পারে আবার নিষেধাজ্ঞার ক্ষেত্রটি মুকুব করে দেওয়ারও সম্ভাবনা রয়েছে। উল্লেখ্য, আমেরিকার CAATSA আইন প্রতিরক্ষার ক্ষেত্রে একটি গুরুত্বপূর্ণ দিক। এই আইনের আওতায় রাশিয়ার থেকে কোনও দেশ বড়সড় প্রতিরক্ষা হার্ডওয়্যার ক্রয় করলে, সেই দেশের ওপর নানান ধরনের নিষেধাজ্ঞা চাপাতে পারে আমেরিকা। উল্লেখ্য, শক্তিধর রাষ্ট্রের প্রশ্নে ঠাণ্ডা যুদ্ধের পর থেকেই রাশিয়া-আমেরিকার সম্পর্কে সেভাবে সখ্যতার পথ গড়ে উঠতে দেখা যায়নি। ফলে রাশিয়াকে কেন্দ্র করে আমেরিকার রোষ নজর বিভিন্ন কূটনৈতিক পন্থায় বারবার উঠে এসেছে।

উল্লেখ্য, আমেরিকার বাইডেন প্রশাসনের দক্ষিণ ও মধ্য এশিয়া বিষয়ক যুগ্ম সচিব ডোনাল্ড লু জানিয়েছেন, CAATSA আইনের আওতায় প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন কোন পদক্ষেপ নিতে পারেন, তা আগে থেকেই বোঝা যাচ্ছে না। তবে ইউক্রেনের ওপর রাশিয়ার হামলার প্রেক্ষিতে পরিস্থিতি কোনদিকে যেতে পারে তার ওপর সিদ্ধান্ত অনেকটাই নির্ভর করছে। ভারত সম্পর্কে মন্তব্য করতে গিয়ে ডোনাল্ড লিউ বলেন, 'ভারত এখন আমাদের একটি গুরুত্বপূর্ণ নিরাপত্তা বিষয়ক সঙ্গী। এই অংশিদারিকে সঙ্গে নিয়ে আমরা এগিয়ে যেতে চাই। ' তিনি আশা প্রকাশ করেছেন যে, যেভাবে বিশ্বের সমালোচনার মুখে পড়েছে রাশিয়া, তাতে রাশিয়ার সঙ্গে আগামীতে দূরত্ব বা়ড়াবে ভারত।

বন্ধ করুন