বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > এমনিতেই পাবলিক হলিডে অনেক, এই ছুটি কারোর মৌলিক অধিকার নয় : হাইকোর্ট
পাবলিক হলিডে নিয়ে উল্লেখযোগ্য পর্যবেক্ষণ বোম্বে হাইকোর্টের। (HT File Photo/Bhushan Koyande) (HT_PRINT)
পাবলিক হলিডে নিয়ে উল্লেখযোগ্য পর্যবেক্ষণ বোম্বে হাইকোর্টের। (HT File Photo/Bhushan Koyande) (HT_PRINT)

এমনিতেই পাবলিক হলিডে অনেক, এই ছুটি কারোর মৌলিক অধিকার নয় : হাইকোর্ট

  • আবেদনকারী জানিয়েছিলেন, ২রা অগস্ট পর্তুগীজ শাসন থেকে মুক্ত হয়েছিল দাদরা ও নগর হাভেলি। সেকারণে এই দিনটিকে পাবলিক হলিডে হিসাবে গণ্য করা হোক।

২রা অগস্টকে পাবলিক হলিডে করার আবেদন জানিয়ে বোম্বে হাইকোর্টের দ্বারস্থ হয়েছিলেন দাদরা ও নগর হাভেলির এক বাসিন্দা কিষানভাই গুটিয়া। তবে এই আবেদন খারিজ করে দিল বোম্বে হাইকোর্ট। আদালতের পর্যবেক্ষণ, দেশে অনেক পাবলিক হলিডে রয়েছে। বর্তমানে সেই পাবলিক হলিডের সংখ্যা কমানো দরকার। এই সংখ্যা বৃদ্ধি করা কখনই যুক্তিযুক্ত নয়। এর সঙ্গেই আদালত জানিয়েছে, কোনটা পাবলিক হলিডে হবে সেটা নির্ভর করছে সরকারি পলিসির উপর। এনিয়ে আইনগত কোনও অধিকার নেই যার ভিত্তিতে বলা যেতে পারে এটি পাবলিক হলিডে হতে পারে। পাবলিক হলিডে পাওয়ার ক্ষেত্রে কারোর কোনও মৌলিক অধিকারও নেই। পরিষ্কার জানিয়ে দিয়েছে আদালত। 

এদিকে আবেদনকারী জানিয়েছিলেন, ২রা অগস্ট পর্তুগীজ শাসন থেকে মুক্ত হয়েছিল দাদরা ও নগর হাভেলি। সেকারণে এই দিনটিকে পাবলিক হলিডে হিসাবে গণ্য করা হোক। ২০১৯ সাল পর্যন্ত এটিকে মুক্তি দিবস হিসাবে পালন করা হত। এটিকে পাবলিক হলিডে হিসাবে ঘোষণা করার আবেদন পেশ করা হয়েছিল আদালতে।

এদিকে আইনজীবীদের একাংশে জানিয়েছেন, ১৫ই অগস্ট পাবলিক হলিডে হিসাবে গণ্য করা হয়। সেক্ষেত্রে ২রা অগস্টকে আলাদাভাবে দাদরা ও নগর হাভেলিতে পাবলিক হলিডে করার যৌক্তিকতা নেই। 

এদিকে জাস্টিস গৌতম প্যাটেল ও জাস্টিস মাধব জমাদারের ডিভিশন বেঞ্চ জানিয়েছে, আমাদের দেশে বহু পাবলিক হলিডে রয়েছে। তবে সময় এসেছে এই সংখ্যাকে কাটছাঁট করা। আর এই পাবলিক হলিডের সংখ্যা বৃদ্ধি করা ঠিক নয়। এই আবেদনের মধ্যে কোনও সারবত্তা নেই। সেকারণে এটি বাতিল করা হয়েছে। 

বন্ধ করুন