বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > রাস্তা না পুকুর? সাবান মেখে স্নান করে, ছিপ ফেলে অভিনব প্রতিবাদ যুবকের
ছবি : ইউটিউব (Youtube)
ছবি : ইউটিউব (Youtube)

রাস্তা না পুকুর? সাবান মেখে স্নান করে, ছিপ ফেলে অভিনব প্রতিবাদ যুবকের

নয়া পন্থা নিলেন এই যুবক। ঠিক করলেন, শান্তিপূর্ণভাবেই হবে প্রতিবাদ। যে করে হোক দৃষ্টি আকর্ষণ করতেই হবে। যেমন ভাবা তেমন কাজ।

ভোট যত এগিয়ে আসে, বাড়তে থাকে ঝুড়ি ঝুড়ি প্রতিশ্রুতি। কিন্তু অনেকক্ষেত্রেই ভোটের পরেও অবস্থা আগের মতোই থেকে যায়। তখন আর প্রতিবাদ করেও কোনও সুরাহা হয় না।

তবে প্রতিবাদের ভাষাটা যদি একটু বদলানো যায়? সেই চেষ্টাই করলেন ইন্দোনেশিয়ার এক যুবক। প্রায়া শহরের বাসিন্দা ওই যুবকের বাড়ির কাছেই ব্যস্ত রাস্তা। আর সেই রাস্তাই খানাখন্দে ভরা।

বড় বড় গর্তে সারাবছর জল জমে থাকে। এক নজর দেখলে যেন পুকুর মনে হয়। স্থানীয় প্রশাসনকে বারবার জানিয়েও কোনও লাভ নেই।

অগত্যা নয়া পন্থা নিলেন এই যুবক। ঠিক করলেন, শান্তিপূর্ণভাবেই হবে প্রতিবাদ। যে করে হোক দৃষ্টি আকর্ষণ করতেই হবে। যেমন ভাবা তেমন কাজ।

প্রথমে একদিন দুপুরে মগ, সাবান, গামছা নিয়ে রাস্তার একটি বড় জলভরা গর্তের সামনে হাজির হলেন। রীতিমতো সাবান মেখে স্নান করা শুরু করে দিলেন যুবক। তাঁর কীর্তি দেখে দাঁড়িয়ে পড়েন পথচলতি মানুষজন। ভিডিয়োও করতে শুরু করেন।

তবে এখানেই শেষ নয়। এর পর একদিন ছিপ, চেয়ার, ছাতা নিয়ে রাস্তায় হাজির হন যুবক। রাস্তার মাঝেই গর্তের ধারে বসে পড়েন চেয়ার পেতে। পাকা মেছুরের মতো ছিপ ফেলে বসে পড়েন। তাঁর কান্ড কারখানায় বেশ মজা পান স্থানীয়রা।

তাঁর এই কার্যকলাপ নিমেষে ভাইরাল হয়ে যায় সোশ্যাল মিডিয়ায়। অবশেষে লজ্জায় টনক নড়ে প্রশাসনের। তড়িঘড়ি শুরু হয়েছে রাস্তা সারানোর কাজ।

'শান্তিপূর্ণভাবে প্রশাসনের দৃষ্টি আকর্ষণ করতে পেরে আমি খুশি,' এটুকুই জানালেন ওই যুবক। সত্যি, প্রতিবাদের ভাষা যদি এমন হয়, তবে তো নজর কাড়তে বাধ্য।

বন্ধ করুন