বাংলা নিউজ > ছবিঘর > 'ডিডিএলজে'-তে টম ক্রুজ, 'শিবায়'-তে নিকোল ছিলেন প্রথম পছন্দ! দেখে নিন সেই তালিকা

'ডিডিএলজে'-তে টম ক্রুজ, 'শিবায়'-তে নিকোল ছিলেন প্রথম পছন্দ! দেখে নিন সেই তালিকা

  • বলিউড থেকে হলিউডে গিয়ে সফল হয়েছেন এমন অভিনেতাদের সংখ্যাটা হাতে গোনা। তবে হলিউডের তারকাদের যে বেশ কিছু হিন্দি ছবির জন্য পছন্দ করা হয়েছিল সে খবর রাখেন কি?  আসুন, জানা যাক এমনই কিছু ছবির নাম।
সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে এতদিনে বলিউডে কাজ সেরে ফেলতেন টম ক্রুজ কিংবা অজয় দেবগনের বিপরীতে দর্শকরা দেখতে পেতেন নিকোল কিডম্যানকে। সম্প্রতি, এক প্রতিবেদনে উঠে এল এমনই চমকে ওঠার মতো খবর। জানা গেল, বেশ কিছু ছবির নাম যেখানে মুখ্যভূমিকায় অভিনয় করার কথা ছিল এক ঝাঁক প্রথম সারির হলি-তারকাদের।
1/6সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে এতদিনে বলিউডে কাজ সেরে ফেলতেন টম ক্রুজ কিংবা অজয় দেবগনের বিপরীতে দর্শকরা দেখতে পেতেন নিকোল কিডম্যানকে। সম্প্রতি, এক প্রতিবেদনে উঠে এল এমনই চমকে ওঠার মতো খবর। জানা গেল, বেশ কিছু ছবির নাম যেখানে মুখ্যভূমিকায় অভিনয় করার কথা ছিল এক ঝাঁক প্রথম সারির হলি-তারকাদের।
সব যদি নিয়মমাফিক এগোতে তাহলেহয়তো দর্শকের দল 'উড়তা পঞ্জাব' ছবিতে 'টমি সিং'-এর চরিত্রে শাহিদ কাপুরের বদলে দেখতে পেত অস্কার মনোনীত ছবি 'সাউন্ড অফ মেটাল'-এর অভিনেতা রিজ আহমেদ-কে। সূত্রের খবর, ''উড়তা পঞ্জাব'-এর নির্মাতারা 'টমি সিং'-এর চরিত্রের জন্য কোনও বলি-অভিনেতাকেই ভাবেননি। প্রথম থেকেই তাঁদের লক্ষ্য ছিল রিজ। কিন্তু শেষপর্যন্ত শাহিদের ভাগ্যেই শিকে ছিঁড়ে পড়েছিল।
2/6সব যদি নিয়মমাফিক এগোতে তাহলেহয়তো দর্শকের দল 'উড়তা পঞ্জাব' ছবিতে 'টমি সিং'-এর চরিত্রে শাহিদ কাপুরের বদলে দেখতে পেত অস্কার মনোনীত ছবি 'সাউন্ড অফ মেটাল'-এর অভিনেতা রিজ আহমেদ-কে। সূত্রের খবর, ''উড়তা পঞ্জাব'-এর নির্মাতারা 'টমি সিং'-এর চরিত্রের জন্য কোনও বলি-অভিনেতাকেই ভাবেননি। প্রথম থেকেই তাঁদের লক্ষ্য ছিল রিজ। কিন্তু শেষপর্যন্ত শাহিদের ভাগ্যেই শিকে ছিঁড়ে পড়েছিল।
উঁহু, শাহরুখ নয়। টম ক্রুজ ছিল 'ডিডিএলজে'ছবির জন্য পরিচালক আদিত্য চোপড়ার প্রথম পছন্দ। ছবিটিকে ইন্দো-আমেরিকান প্রজেক্ট হিসেবে বানানোর লক্ষ্য ছিল তাঁর। তবে আদিত্যর এই ইচ্ছেয় বাধ সাধেন বাবা যশ চোপড়া। তাঁর বোঝানোতেই এই ইচ্ছে ত্যাগ করেন আদিত্য। মঞ্চে প্রবেশ করেন শাহরুখ।
3/6উঁহু, শাহরুখ নয়। টম ক্রুজ ছিল 'ডিডিএলজে'ছবির জন্য পরিচালক আদিত্য চোপড়ার প্রথম পছন্দ। ছবিটিকে ইন্দো-আমেরিকান প্রজেক্ট হিসেবে বানানোর লক্ষ্য ছিল তাঁর। তবে আদিত্যর এই ইচ্ছেয় বাধ সাধেন বাবা যশ চোপড়া। তাঁর বোঝানোতেই এই ইচ্ছে ত্যাগ করেন আদিত্য। মঞ্চে প্রবেশ করেন শাহরুখ।
কথাবার্তা এগিয়েছিল অনেকটাই। কিন্তু চুক্তিপত্র নিয়ে কিছু সমস্যা হওয়াতে নাকি বেঁকে বসেছিলেন 'টার্মিনেটর'. তাই শেষপর্যন্ত বলিউডের ছবিতে তাঁর কাজ করা হয়ে উঠলো না। জানা গেছে, শঙ্করের '২.০' ছবির জন্য ভিলেনের চরিত্রে আর্নল্ড সোয়ার্জেনেগার-কে পছন্দ করেছিলেন শঙ্কর। তবে শেষপর্যন্ত আর্নল্ড রাজি না হওয়াতে সেই চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন অক্ষয়কুমার।
4/6কথাবার্তা এগিয়েছিল অনেকটাই। কিন্তু চুক্তিপত্র নিয়ে কিছু সমস্যা হওয়াতে নাকি বেঁকে বসেছিলেন 'টার্মিনেটর'. তাই শেষপর্যন্ত বলিউডের ছবিতে তাঁর কাজ করা হয়ে উঠলো না। জানা গেছে, শঙ্করের '২.০' ছবির জন্য ভিলেনের চরিত্রে আর্নল্ড সোয়ার্জেনেগার-কে পছন্দ করেছিলেন শঙ্কর। তবে শেষপর্যন্ত আর্নল্ড রাজি না হওয়াতে সেই চরিত্রে অভিনয় করেছিলেন অক্ষয়কুমার।
২০১৫ সালে সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত হওয়া এক প্রতিবেদনের খবর অনুসারে জানা গেছিল অজয় দেবগন পরিচালিত 'শিবায়' ছবিতে নাকি দেখা যেতে পারে অস্কার বিজয়ী অভিনেত্রী নিকোল কিডম্যানকে। সেই অনুযায়ী নাকি অজয়ের টিম কথাবার্তাও চালিয়েছিলেন নিকোলের সঙ্গে। তবে শেষপর্যন্ত পোলিশ অভিনেত্রী এরিকা কার অভিনয় করেছিলেন ছবিতে অজয়ের নায়িকার ভূমিকায়।
5/6২০১৫ সালে সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত হওয়া এক প্রতিবেদনের খবর অনুসারে জানা গেছিল অজয় দেবগন পরিচালিত 'শিবায়' ছবিতে নাকি দেখা যেতে পারে অস্কার বিজয়ী অভিনেত্রী নিকোল কিডম্যানকে। সেই অনুযায়ী নাকি অজয়ের টিম কথাবার্তাও চালিয়েছিলেন নিকোলের সঙ্গে। তবে শেষপর্যন্ত পোলিশ অভিনেত্রী এরিকা কার অভিনয় করেছিলেন ছবিতে অজয়ের নায়িকার ভূমিকায়।
জানেন কি শেখর কাপুরের 'নাইন ও ক্লক'ছবিতে অভিনয় করার কথা ছিল প্রয়াত হলি-তারকা হিথ লেজারের? আজ্ঞে হ্যাঁ, কথাবার্তাও এগিয়েছিল অনেকটাই।২০০২ সালে শেখরের পরিচালনায় 'দ্য ফোর ফেদার্স' ছবিতে কাজও করেছিলেন হিথ। যাই হোক, যেদিন নিউ ইয়র্কের হিথের বাড়িতে এই ছবি নিয়ে আলোচনায় বসার কথা ছিল তাঁদের, সেদিন সকালেই বাড়ি থেকে উদ্ধার করা হয়েছিল হিথের মৃতদেহ।
6/6জানেন কি শেখর কাপুরের 'নাইন ও ক্লক'ছবিতে অভিনয় করার কথা ছিল প্রয়াত হলি-তারকা হিথ লেজারের? আজ্ঞে হ্যাঁ, কথাবার্তাও এগিয়েছিল অনেকটাই।২০০২ সালে শেখরের পরিচালনায় 'দ্য ফোর ফেদার্স' ছবিতে কাজও করেছিলেন হিথ। যাই হোক, যেদিন নিউ ইয়র্কের হিথের বাড়িতে এই ছবি নিয়ে আলোচনায় বসার কথা ছিল তাঁদের, সেদিন সকালেই বাড়ি থেকে উদ্ধার করা হয়েছিল হিথের মৃতদেহ।
অন্য গ্যালারিগুলি