বাংলা নিউজ > ময়দান > ভুয়ো ভ্যাকসিনম্যান দেবাঞ্জন মাস্ক-স্যানিটাইজার দিয়েছিলেন CAB-তেও!
CAB-তে মাস্ক-স্যানিটাইজার তুলে দিচ্ছেন ভুয়ো ভ্যাকসিনম্যান দেবাঞ্জন দেব(ছবি: ফেসবুক)
CAB-তে মাস্ক-স্যানিটাইজার তুলে দিচ্ছেন ভুয়ো ভ্যাকসিনম্যান দেবাঞ্জন দেব(ছবি: ফেসবুক)

ভুয়ো ভ্যাকসিনম্যান দেবাঞ্জন মাস্ক-স্যানিটাইজার দিয়েছিলেন CAB-তেও!

  • ছবিতে দেখা যাচ্ছে সিএবি কর্তাদের হাতে মাস্ক, স্যানিটাইজার তুলে দিচ্ছে দেবাঞ্জন দেব।

বাংলা ক্রিকেটের সর্বোচ্চ নিয়ামক সংস্থা তথা সিএবির সমস্ত উচ্চপদস্থ কর্তাদের সঙ্গে ছবিতে রয়েছেন ভুয়ো ভ্যাকসিনম্যান দেবাঞ্জন দেব। অভিযুক্ত এই ব্যাক্তির সোশ্যাল মিডিয়ার অ্যাকাউন্ট থেকে বিভিন্ন ছবি ইতিমধ্যেই ভাইরাল হয়েছে। যে ছবিগুলোতে দেখা যাচ্ছে রাজ্যের বিভিন্ন নেতা মন্ত্রীদের সঙ্গে পাশে দাঁড়িয়ে রয়েছেন ভুয়ো ভ্যাকসিনম্যান দেবাঞ্জন দেব।

সিএবি কর্তাদের সঙ্গে একটি ছবিতে তাকে দেখতে পাওয়া যায়। যেই ছবিতে সিএবির প্রেসিডেন্ট অভিষেক ডালমিয়া, যুগ্ম সচিব দেবব্রত দাস, ভাইস প্রেসিডেন্ট নরেশ ওঝা সহ রাজ্যসভার সাংসদ শান্তনু সেনের সঙ্গে ছিলেন ভ্যাকসিন কাণ্ডের অভিযুক্ত দেবাঞ্জন দাস। ছবিতে দেখা যাচ্ছে সিএবি কর্তাদের হাতে মাস্ক, স্যানিটাইজার তুলে দিচ্ছে দেবাঞ্জন দেব।

এই ছবির পরই প্রশ্ন উঠছে তাহলে কি ক্রিকেট কর্তাদের সঙ্গে আগে থেকেই কোনরকম পরিচয় ছিল অভিযুক্তের। সিএবি সভাপতি অভিষেক ডালমিয়া জানিয়ে দেন, ‘ভ্যাকসিন কাণ্ডে অভিযুক্ত দেবাঞ্জনকে তারা চেনেন না। কোনদিনও পরিচয় হয়নি। করোনার প্রথম ঢেউয়ের সময় ক্রিকেট সংস্থার সঙ্গে যুক্ত মানুষদের পিপিই কিট, মাস্ক, স্যানিটাইজার প্রয়োজন ছিল। সেই সময় সিএবির পক্ষ থেকে ইন্ডিয়ান মেডিকেল অ্যাসোসিয়েশনের সঙ্গে যোগাযোগ করা হয়। তারা সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দেন। প্রয়োজনীয় সরঞ্জাম দিয়ে সাহায্য করে আইএমএ। ইন্ডিয়ান মেডিকেল অ্যাসোসিয়েশন রাজ্য সম্পাদক শান্তনু সেনের হাত থেকে আমরা সেই সামগ্রী গ্রহণ করি। সেই সময় যারা আইএমএর পক্ষ থেকে করোনা মোকাবিলার প্রয়োজনীয় সামগ্রী নিয়ে হাজির হয়েছিলেন তাদের মধ্যে এই দেবাঞ্জন ছিলেন। ৩-৪ জন লোক একসঙ্গে ছিল। সেই সময় একটি ছবিতে দেবাঞ্জন ঢুকে পড়েন। অভিযুক্তের সঙ্গে সিএবির কোন রকম সম্পর্ক বা যোগাযোগ নেই।’

বন্ধ করুন