বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > ভোটের মুখে দিলীপের সঙ্গে BSF-এর ডিজির সাক্ষাৎ ঘিরে বিতর্ক
দিলীপ ঘোষ (ফাইল ছবি, সৌজন্য এএনআই)
দিলীপ ঘোষ (ফাইল ছবি, সৌজন্য এএনআই)

ভোটের মুখে দিলীপের সঙ্গে BSF-এর ডিজির সাক্ষাৎ ঘিরে বিতর্ক

  • অভিযোগ অস্বীকার করে দিলীপবাবু বলেন, ‘আমি মেদিনীপুরে সাংসদ। স্বরাষ্ট্র বিষয়ক স্থায়ী কমিটির সদস্য। আমাদের মাঝেমাঝেই এরকম সাক্ষাৎ করতে হয়।

রাজ্যের চার কেন্দ্রে ভোটের মুখে বিএসএফের ডিআইজির সঙ্গে দিলীপ ঘোষের সাক্ষাৎ নিয়ে শুরু হল বিতর্ক। তৃণমূলের দাবি, রাজ্যে গোলমাল পাকাতে বিএসএফকে ব্যবহার করতে চায় বিজেপি। পালটা দিলীপবাবুর কটাক্ষ, ‘চোরের মনে তো ভয় থাকবেই।’

বুধবার উপ-নির্বাচনের প্রচারের শেষ দিনে কোচবিহারে বিএসএফের ডিজি শৈলেন্দ্রকুমার যাদবের সঙ্গে দেখা করেন দিলীপবাবু। তাঁর সঙ্গে ছিলেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি সুকান্ত মজুমদার ও কোচবিহার জেলা বিজেপি সভাপতি মালতি রাভা রায়।

এর পরই এই সাক্ষাৎ নিয়ে প্রশ্ন তোলে তৃণমূল। তাদের অভিযোগ, দিন কয়েক আগেই রাজ্যে বিএসএফের সক্রিতার এলাকা বাড়িয়েছে রাজ্য সরকার। সীমান্ত থেকে ৫০ কিলোমিটারের মধ্যে তাদের তৎপর থাকার অনুমতি দেওয়া হয়েছে। তার পর এই সাক্ষাতে স্পষ্ট, কেন্দ্রীয় বাহিনীকে ব্যবহার করে গোলমাল পাকাতে চায় বিজেপি।

অভিযোগ অস্বীকার করে দিলীপবাবু বলেন, ‘আমি মেদিনীপুরে সাংসদ। স্বরাষ্ট্র বিষয়ক স্থায়ী কমিটির সদস্য। আমাদের মাঝেমাঝেই এরকম সাক্ষাৎ করতে হয়। এর আগে বসিরহাটে, শিলিগুড়িতে, হিলিতেও সাক্ষাৎ হয়েছে। এদিন বিএসএফের ডিজির সঙ্গে পাচার বন্ধ নিয়ে আলোচনা হয়েছে’।

এর পরই তৃণমূলের উদ্দেশে কটাক্ষ ছুড়ে দিলীপবাবু বলেন, ‘চোরের মনে তো ভয় থাকবেই। যাদের দলে পাচারকারীরা রয়েছে তারা তো বিরোধিতা করবেই। প্রকৃত দেশপ্রেমিকের এতে ভয় পাওয়ার কিছু নেই।’

বন্ধ করুন