বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব বরদাস্ত নয়, এক মাস সময় দিচ্ছি, মিটিয়ে নিন, পঞ্চায়েত ভোটের আগে দলকে বার্তা মমতার
তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়
তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়

গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব বরদাস্ত নয়, এক মাস সময় দিচ্ছি, মিটিয়ে নিন, পঞ্চায়েত ভোটের আগে দলকে বার্তা মমতার

  • তৃণমূল নেত্রী সকল সাংসদ, বিধায়ককে জানিয়ে দেন, ‘‌আমি আমার নিজের গাড়িতে কোনও বাতি লাগাই না। কোনও সাংসদ, বিধায়ক তাঁদের গাড়িতে লালবাতি, নীলবাতি ব্যবহার করতে পারবেন না। কার কী লাগবে, সেটা পুলিশ দেখে নেবেন।’‌

‌দলের মধ্যে গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব কোনওভাবেই বরদাস্ত করা হবে না, এক মাস সময় দিচ্ছি। সব মিটিয়ে নিন। পঞ্চায়েত ভোটের আগে দলকে শৃঙ্খলাবদ্ধ রাখতে এই কড়া বার্তাই দিলেন তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। নির্বাচনকে সামনে রেখে আগামী ২০ মে-এর পর দলের সব কমিটি ও শাখা সংগঠনের জেলা নেতৃত্বের নাম নতুন করে ঘোষণা করা হবে।

দলের অস্থায়ী নতুন পার্টি অফিসে গত বৃহস্পতিবার সাংসদ, বিধায়কদের সঙ্গে বৈঠক করেন তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বৈঠকে তৃণমূল নেত্রী স্পষ্ট বার্তা দেন, ‘‌একা কেউ চলবেন না। সবাইকে নিয়ে চলুন। কোনও জেলায় কোনও গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব বরদাস্ত করা যাবে না। কোচবিহার থেকে কাকদ্বীপ, সব নেতৃবৃন্দকে এক হয়ে চলতে হবে। দল যা সিদ্ধান্ত নেবে, সেটাকে মেনে চলতে হবে।’‌ একইসঙ্গে তৃণমূল নেত্রী জানান, ‘‌যিনি মানুষের জন্য কাজ করবেন না, দল তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেবে। আমি মুখ্যমন্ত্রীত্ব চালাচ্ছি বলে ভাববেন না দলের ভিতরের খবর রাখি না। কোথায় কী হচ্ছে, সব খবর রাখি। অভিযোগ পেলে প্রথমে ৩–৪ বার ক্রস চেক করি। তারপর ব্যবস্থা নিই।’‌

একইসঙ্গে তৃণমূল নেত্রী সকল সাংসদ, বিধায়ককে জানিয়ে দেন, ‘‌আমি আমার নিজের গাড়িতে কোনও বাতি লাগাই না। কোনও সাংসদ, বিধায়ক তাঁদের গাড়িতে লালবাতি, নীলবাতি ব্যবহার করতে পারবেন না। কার কী লাগবে, সেটা পুলিশ দেখে নেবেন।’‌ সম্প্রতি দলের শৃঙ্খলারক্ষা কমিটির চেয়ারম্যানের পদে বদল আনা হয়েছে। ওই পদে পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের বদলে নতুন দায়িত্বে এসেছেন সুব্রত বক্সি।

বন্ধ করুন