বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > শাদি কে সাইড এফেক্টস! নিখিল জৈনকে পুরোদস্তুর বাঙালি তৈরি করে ফেললেন নুসরত জাহান
নুসরত-নিখিল (ফাইল ছবি)
নুসরত-নিখিল (ফাইল ছবি)

শাদি কে সাইড এফেক্টস! নিখিল জৈনকে পুরোদস্তুর বাঙালি তৈরি করে ফেললেন নুসরত জাহান

  • অষ্টমীর দুপুরে বাঙালি ভুরিভোজ মাস্ট…. তাই স্বামীকে লুচি-আলুরদমই খাওয়ালেন নুসরত জাহান। 

টলিউডের অন্যতম চর্চিত জুটি নুসরত জাহান ও নিখিল জৈন। তাঁদের প্রেম কাহিনি সম্পর্কে শুরুর দিকে কাউকে টের পেতে দেননি নুসরত। তবে গত বছরের শুরু থেকেই কানাঘুসো শোনা যাচ্ছিল রঙ্গোলি ইন্ডিয়ার কর্ণধারের সঙ্গে নুসরতের প্রেম কাহিনির। বেশ সময় নষ্ট করেননি তাঁরা, গত বছরই তুরস্কের বোদরুমে রূপকথার বিয়ে সারেন এই জুটি। ধর্ম বা সংস্কৃতির ফারাক বাধা হয়ে দাঁড়ায়নি এই সম্পর্কে। কারণ দুজনের মধ্যে ভালোবাসার বন্ধন ছিল মজবুত। বিয়ের পর এটা নিখিল-নুসরত জুটির দ্বিতীয় দুর্গাপুজো- বাঙালির শ্রেষ্ঠ উত্সব।

গত বছর নিখিলকে হাতে ধরে দুর্গাপুজোর সমস্ত আচারের সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দিয়েছিলেন নুসরত। অষ্টমীর অঞ্জলি থেকে দশমীর সিঁদুর খেলা- সবতেই নুসরতের পাশে দেখা গিয়েছিল নিখিলকে। এবছরও তার অন্যথা হল না- বরং এইবার বাঙালি সংস্কৃতি সম্পর্কে আরও বেশি করে অবগত হয়ে গিয়েছিলেন নিখিল। শুধু তাই নয়, বাঙালির ট্র্যাডিশন্যাল খাওয়া-দাওয়ার সঙ্গে পরিচিত নিখিল। অষ্টমীর দুপুরে তাই তো প্রথমা মেনে লুচি-আলুরদম খেতে দেখা গেল নুসরত জাহানের মনের মানুষকে। রেঁস্তারোয় মন দিয়ে লুচি-আলুরদম খাওয়ার সময় স্বামীর হাসিমাখা মুখের ছবি খচাত করে মুঠোফোনে বন্দি করেন নুসরত। সেই ঝলক নিজের ইনস্টা স্টোরিতে তুলে ধরেছেন নুসরত। লেখেন- 'জৈন গোজ বং বিনজ'।

অষ্টমীর দুপুরে বাঙালি ভুরিভোজ
অষ্টমীর দুপুরে বাঙালি ভুরিভোজ

অষ্টমীর দিন একদম বাঙালি সাজে পাওয়া গেল এই জুটিকে। লাল পাড় সাদা শাড়িতে সেজেছিলেন নুসরত। খোলা চুল, হাতে শোভা পাচ্ছে শাঁখা-পলা, মাথায় সিঁদুরে অপরূপা নুসরত। অন্যদিকে দুধে আলতা রঙা পাঞ্জাবীতে দারুণ মানিয়েছিল নিখিলকে। সকালে সুরুচিতে অষ্টমীর অঞ্জলি নিয়ে দক্ষিণ কলকাতার এক নামী ক্যাফেতে পুজো স্পেশ্যাল বাঙালি খাওয়া-দাওয়ায় ডুব দিলেন নিখিল জৈন ও নুসরত জাহান।

বন্ধ করুন