বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > বন্ধ শ্যুটিং! আর কতদিন বাংলা সিরিয়ালের নতুন এপিসোড দেখতে পাবেন দর্শকরা?
ফের রিপিট টেলিকাস্টের পথে হাঁটবে চ্যানেল কর্তৃপক্ষ! 
ফের রিপিট টেলিকাস্টের পথে হাঁটবে চ্যানেল কর্তৃপক্ষ! 

বন্ধ শ্যুটিং! আর কতদিন বাংলা সিরিয়ালের নতুন এপিসোড দেখতে পাবেন দর্শকরা?

  • ফুরিয়ে আসছে ব্যাঙ্কিংয়ের ভাঁড়ার। শীঘ্রই রিপিট টেলিকাস্টের পথেই হাঁটতে বাধ্য হবে চ্যানেল কর্তৃপক্ষ। 

গত ছয় দিন ধরে তালাবন্ধ টলিগঞ্জের স্টুডিওপাড়া। করোনার জেরে রাজ্যজুড়ে কার্যত লকডাউন পরিস্থিতি, তাই শ্যুটিং বন্ধ রয়েছে। যদিও এখন পর্যন্ত শ্যুটিং বন্ধের এই আঁচ অনুভব করতে পারেননি দর্শকরা। কারণ সময়মতোই তাঁদের পছন্দের সিরিয়ালের নতুন এপিসোড টিভির পর্দায় দেখতে পাচ্ছেন তাঁরা। কিন্তু আগামী ৩০ শে মে পর্যন্ত পুরোপুরিভাবে শ্যুটিং বন্ধ থাকবে। এরপরেও পরিস্থিতি পালটাবে কিনা তা নিশ্চিত নয়। তাই কতদিন পর্যন্ত নতুন এপিসোড দেখতে পাওয়া যাবে? তা নিয়ে সন্দেহ রয়েছে অনেকের মনেই। 

করোনার বাড়বাড়ন্তর জেরে ফের লকডাউন হতে পারে এমন আশঙ্ক্ষা থেকেই সিরিয়ালের নির্মাতারা বেশ খানিকটা করে কাজ এগিয়ে রেখেছিলেন। চ্যানেলের নির্দেশে তাই বেশ কিছু ব্যাঙ্কিং এপিসোড শ্যুট করা ছিল। চ্যানেলের কথা মতো কেউ সাত দিন, কেউ দশ দিনের এপিসোড ব্যাঙ্কিং করে রেখেছেন। তাই আগামী আরও কয়েকটা দিন অর্থাত্ আগামী সপ্তাহের মাঝামাঝি সময় পর্যন্ত বেশ কিছু সিরিয়ালের তাজা এপিসোড দেখা যাবে। চলতি সপ্তাহে প্রত্যেক সিরিয়ালেরই নতুন এপিসোড দেখা যাচ্ছে। 

‘করুণাময়ী রানী রাসমণি’-র ‘রানিমা’ দিতিপ্রিয়া রায় করোনা আক্রান্ত হয়ে গৃহবন্দী ছিলেন। লকডাউনের তিন দিন আগে দিতিপ্রিয়া সুস্থ হয়ে কাজে ফিরেছেন। এর মধ্যেই তড়িঘড়ি শ্যুটিং সেরে গল্পের ট্রাক এগিয়ে নিয়ে গিয়েছেন তিনি। বাংলা টেলিভিশনের এক নম্বর শো-এর নায়িকা ‘মিঠাই’ সৌমিতৃষা কুণ্ডু চলতি সপ্তাহের শুরুতেই জানিয়েছেন, আগামী দিন সাত থেকে দিন দশেক মিঠাই-এর নতুন এপিসোড দেখা যাবে। ‘অপরাজিতা অপু’ ধারাবাহিকেরও এক সপ্তাহের মতো এপিসোড ব্যাঙ্কিং ছিল, তাই আরও দিন তিন-চারেক সেই সিরিয়ালেও তাজা এপিসোড দেখা যাবে। 

শ্যুটিং বন্ধ থাকায় সবচেয়ে মুশকিলে পড়েছেন, দিন মজুরির ভিত্তিতে কাজ করা টেকনিশিয়ান-জুনিয়ার আর্সিস্টরা। গত সপ্তাহে ফেডারেশনের তরফে স্বরূপ বিশ্বাস জানিয়েছিলেন, মুখ্যমন্ত্রীকে ই-মেল মারফত শর্তসাপেক্ষে শ্যুটিংয়ে অনুমতি দেওয়ার জন্য আর্জি জানানো হবে। যদিও সেই সিদ্ধান্ত আপতত স্থগিত রাখা হয়েছে। 

কেন? সে বিষয়ে সংবাদ মাধ্যমের তরফে প্রশ্ন করা হলে স্বরূপবাবু জানান, ‘শুধুমাত্র করোনা নয় ব্ল্যাক ফাঙ্গাস নামের রোগেও বেশ কাবু গোটা দেশ। তাই এখনই কোনও ইমেল পাঠানো হবে না৷’। যদিও অন্দরের খবর নারদকাণ্ড নিয়ে সিবিআইয়ের তৎপরতা নিয়ে নাস্তানাবুদ মুখ্যমন্ত্রী। এই মুহূর্তে শ্যুটিং শুরু করার আর্জি নিয়ে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে যোগাযোগ করতে রাজি নন কেউই। তারওপর ঘূর্ণিঝড় ইয়াসের কাঁটাও যোগ হয়েছে। তাই হয়তো এই সপ্তাহের শেষে বা আগামী সপ্তাহের শুরুতে মুখ্যমন্ত্রীর কাছে শ্যুটিং শুরুর আবেদন জানানো হবে ই-মেল মারফত।

বন্ধ করুন