বাড়ি > ঘরে বাইরে > মণিপুরে উদ্ধার ৪০ বছর পরে বাড়ি ফেরা বৃদ্ধের দেহ, মামলায় অনীহা পরিবারের
সত্তরের দশকে নিখোঁজ হয়ে যাওয়া গম্ভীর সিং ২০১৮ সালে বাড়ি ফিরলে তাঁকে ঘিরে উচ্ছ্বাসের বন্যা বয়ে যায়।
সত্তরের দশকে নিখোঁজ হয়ে যাওয়া গম্ভীর সিং ২০১৮ সালে বাড়ি ফিরলে তাঁকে ঘিরে উচ্ছ্বাসের বন্যা বয়ে যায়।

মণিপুরে উদ্ধার ৪০ বছর পরে বাড়ি ফেরা বৃদ্ধের দেহ, মামলায় অনীহা পরিবারের

  • খুমবং মামাং লেইকাই অঞ্চলের বৃদ্ধের দেহ একটি সেতু থেকে ঝুলতে দেখা যায়। দেহটি নামায় পাতসই থানার পুলিশ।

দীর্ঘ চল্লিশ বছর নিরুদ্দেশ থাকার পরে ২০১৮ সালে পরিবারের সঙ্গে পুনর্মিলন হয়েছিল। সকালে জগিংয়ে বেরিয়ে তাঁরই ঝুলন্ত দেহ চোখে পড়ল স্থানীয়দের। 

বৃহস্পতিবার মণিপুরের পশ্চিম ইমফল জেলায় উদ্ধার হল খোমদ্রম গম্ভীর সিংয়ের (৭২) দেহ। খুমবং মামাং লেইকাই অঞ্চলের বৃদ্ধের দেহ একটি সেতু থেকে ঝুলতে দেখা যায়। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছে দেহটি নামায় পাতসই থানার পুলিশ। তদন্তে নামেন চলমান ফরেন্সিক দলের সদস্যরা।

পরে গম্ভীরের পরিবারের অনুরোধে এবং ঘোষণাপত্র জমা দেওয়ার সুবাদে ঘটনায় কোনও মামলা দায়ের করা হয়নি বলে জানিয়েছে পুলিশ।

আধাসামরিক মণিপুর রাইফেল্স বাহিনীর প্রাক্তন সদস্য গম্ভীর সিং সত্তরের দশকে তাঁর পাড়া থেকে নিখোঁজ হন। ২০১৮ সালের এপ্রিল মাসে মুম্বইয়ের রাস্তায় তাঁর সন্ধান পাওয়া যায় একটি ভিডিয়োর সূত্রে। সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করা ভিডিয়োতে তাঁকে বান্দ্রা এলাকায় রাস্তায় গান গাইতে দেখা যায়।

ওই বছরের ১৯ এপ্রিল মুম্বই পুলিশের সহায়তায় তাঁকে বাড়িতে ফিরিয়ে আনে মণিপুর পুলিশের দল। নিজের রাজ্যে ফিরলে বৃদ্ধকে ঘিরে স্থানীয়দের মধ্যে উচ্ছ্বাসের বন্যা বয়ে যায়। 

ফিরে এসে ছোটভাইয়ের পরিবারের সঙ্গে থাকতে শুরু করেন গম্ভীর সিং। পারিবারিক সূত্রে জানা গিয়েছে, কিছু দিন আগে তিনি রাজ্যের বাইরে যাওয়ার ইচ্ছা প্রকাশ করেছিলেন।

বন্ধ করুন