বৃহস্পতিবার নয়াদিল্লিতে গ্রুপ অফ মিনিস্টার্স-এর সঙ্গে করোনা সংক্রমণ নিয়ে উচ্চ পর্যায়ের বৈঠকে কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী হর্ষ বর্ধন। ছবি: এএনআই।
বৃহস্পতিবার নয়াদিল্লিতে গ্রুপ অফ মিনিস্টার্স-এর সঙ্গে করোনা সংক্রমণ নিয়ে উচ্চ পর্যায়ের বৈঠকে কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী হর্ষ বর্ধন। ছবি: এএনআই।

করোনা নিয়ে স্বাস্থ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে বৈঠক হর্ষ বর্ধনের, এপ্রিলে বাতিল উৎসব

  • সব রাজ্যে ১০০% লকডাউন মানার উপরে জোর দিলেন কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী হর্ষ বর্ধন।

দেশজুড়ে করোনা সংক্রমণের হার দ্রুত বাড়ছে। এই পরিস্থিতিতে সব রাজ্যে ১০০% লকডাউন মানার উপরে জোর দিলেন কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী হর্ষ বর্ধন। শুক্রবার তিনি সব রাজ্যের স্বাস্থ্যমন্ত্রীদের নিয়ে ভিডিয়ো বৈঠকে বসতে চলেছেন।

সংক্রমণ মোকাবিলায় কেন্দ্রীয় সরকারের পাশে দাঁড়িয়ে লড়ছে রাজ্য প্রশাসন। সেই উদ্যোগ পর্যালোচনা করতে এ দিন রাজ্যে স্বাস্থ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে আলোচনায় বসতে চলেছেন হর্ষ বর্ধন। টুইটারে সে কথা তিনি জানিয়েছেন।

তিনি জানিয়েছেন, এ পর্যন্ত করোনা মোকাবিলায় রাজ্য কী কী পদক্ষেপ করেছে, তা খতিয়ে দেখা হবে বৈঠকে। সেই সঙ্গে সংক্রমণ রুখতে রাজ্যস্তরে পরীক্ষার সুবিধা, নমুনা সংগ্রহ পদ্ধতি, মেডিক্যাল সরঞ্জামের ব্যবস্থা ইত্যাদি বিষয় নিয়েও কথা হবে। করোনা রোধে কেন্দ্রীয় নির্দেশাবলী মেনে রাজ্যে কী স্বাস্থ্যনীতি অবলম্বন করা হচ্ছে, কথা হবে তাই নিয়েও।

গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে সাতশোরও বেশি করোনা আক্রান্তের খবর পাওয়া গিয়েছে। দেশে মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৬,৪১২। এর মধ্যে সক্রিয় সংক্রমণের ঘটনা ৫,৭০৯টি। এখনও পর্যন্ত ভারতে করোনা সংক্রমণের জেরে মারা গিয়েছেন ১৯৯ জন।

ইন্দোরে মারা গিয়েছেন করোনা চিকিৎসার সঙ্গে জড়িত এক ডাক্তার। কিছু দিন আগে তিনি সতীর্থ চিকিৎসকদের সঙ্গে একটি ভিডিয়ো বার্তায় জানিয়েছিলেন যে, তাঁরা কেউ সংক্রামিত হননি এবং পুরোপুরি সুস্থ রয়েছেন। গত ৯ এপ্রিল সকালে শত্রধন পঞ্জওয়ানি নামে ওই চিকিৎসক মারা যান।

করোনা সংক্রমণের জেরে চলতি এপ্রিল মাসে সমস্ত উৎসব ও পার্বন উদযাপনে নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক। এ দিন সে কথা জানিয়েছেন মন্ত্রকের যুগ্ম সচিব পুণ্য সলিল শ্রীবাস্তব।

বন্ধ করুন