বাংলা নিউজ > ময়দান > US Open: ওপেন যুগে সবথেকে কম বয়সে ফ্লাশিং মিডোর কোয়ার্টার ফাইনালে অ্যালকারাজ
কোয়ার্টার ফাইনালে ওঠার পর কার্লোস অ্যালকারাজ। ছবি- টুইটার (@usopen)।
কোয়ার্টার ফাইনালে ওঠার পর কার্লোস অ্যালকারাজ। ছবি- টুইটার (@usopen)।

US Open: ওপেন যুগে সবথেকে কম বয়সে ফ্লাশিং মিডোর কোয়ার্টার ফাইনালে অ্যালকারাজ

  • যুক্তরাষ্ট্র ওপেনে ইতিহাস গড়লেন নাদালের দেশের টিনএজার।

ওপেন যুগে সবথেক কম বয়সে ফ্লাশিং মিডোয় কোয়ার্টার ফাইনালে উঠে নজির গড়লেন কার্লোস অ্যালকারাজ। প্রি-কোয়ার্টারে তিনি পাঁচ সেটের লড়াইয়ে পরাজিত করেন জার্মানির পিটার গজউজিককে।

যুক্তরাষ্ট্র ওপেনের তথ্য অনুযায়ী এতদিন সবথেকে কম বয়সে ফ্লাশিং মিডোর শেষ আটে জায়গা করে নেওয়ার রেকর্ড ছিল আন্দ্রে আগাসির। তিনি ১৯৮৮ সালের ইউএস ওপেনের সেমিফাইনালে ওঠার পথে এই রেকর্ড গড়েছিলেন। ১৮ বছর ৪ মাসের অ্যালকারাজ আগাসির থেকে ১০ দিন কম বয়সে সেই রেকর্ড নিজের নামে করেন।

১৯৬৩ সালে ব্রাজিলের থমাস কোচের পর থেকে এপর্যন্ত স্প্যানিশ টিন এজারই সবথেকে কমবয়সে যুক্তরাষ্ট্র ওপেনের শেষ আটে জায়গা করে নিলেন। সুতরাং, পেশাদার টেনিসের আবির্ভাবের ৫ বছর আগে থেকে এ পর্যন্ত অ্যালকারাজই সবথেকে কম বয়সে ইউএস ওপেনের কোয়ার্টারের টিকিট পকেটে পোরেন। উল্লেখ্য, সেই সময় যুক্তরাষ্ট্র ওপেন পরিচিত ছিল ইউএস চ্যাম্পিয়নশিপ নামে। ১৯৯০ সালে মাইকেল চ্যাংয়ের পর থেকে সবথেকে কম বয়সে কোনও মেজর টুর্নামেন্টের কোয়ার্টারে উঠলেন কার্লোস।

চতুর্থ রাউন্ডে অ্যালকারাজ প্রথম সেট হারেন ৫-৭ গেমে। দ্বিতীয় সেট ৬-১ গেমে জিতে ম্যাচে সমতা ফেরান তিনি। তৃতীয় সেটে পুনরায় ৫-৭ গেমে হেরে বসেন স্প্যানিশ টিনএজার। চতুর্থ ও পঞ্চম সেটে কার্লোস জয় তুলে নেন যথাক্রমে ৬-২, ৬-১ গেমে। সব মিলিয়ে ৩ ঘণ্টা ৩১ মিনিট লড়াই চলে ম্যাচে।

এর আগে পাঁচ সেটের নাটকীয় লড়াইয়ে বিশ্বের তিন নম্বর টেনিস তারকা স্টেফানোস সিসিপাসকে পরাজিত করে ইতিহাস গড়েন ১৮ বছর বয়সী উঠতি তারকা।

বন্ধ করুন