বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > ‘‌রাজ্য নির্বাচন কমিশনের কোনও স্বাধীন সত্তা নেই’‌, বিস্ফোরক মন্তব্য দিলীপ ঘোষের
দিলীপ ঘোষ
দিলীপ ঘোষ

‘‌রাজ্য নির্বাচন কমিশনের কোনও স্বাধীন সত্তা নেই’‌, বিস্ফোরক মন্তব্য দিলীপ ঘোষের

  • রাজ্য বিজেপির নেতা এবং রাজ্যপালের বক্তব্য প্রায় কাছাকাছি বলে মনে করছেন অনেকে।

সামনেই পুরসভা নির্বাচন। তার প্রস্তুতি চলছে জোরকদমে। ইতিমধ্যেই রাজ্য নির্বাচন কমিশনকে চিঠি দিয়েছেন রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়। সেখানে রাজ্য সরকারের শাখা হিসাবে কাজ না করে নিরপেক্ষভাবে কাজ করার কথা উল্লেখ করেন তিনি। এই পরিস্থিতিতে বিজেপির সর্বভারতীয় সহ–সভাপতি বিস্ফোরক মন্তব্য করলেন। রাজ্য নির্বাচন কমিশনের কোনও স্বাধীন সত্তাই নেই বলে মন্তব্য করলেন দিলীপ ঘোষ। আর এখন তা নিয়ে জোর চর্চা শুরু হয়েছে।

রাজ্য বিজেপির নেতা এবং রাজ্যপালের বক্তব্য প্রায় কাছাকাছি বলে মনে করছেন অনেকে। ঠিক কী বলেছেন দিলীপ ঘোষ?‌ এই বিষয়ে তিনি আজ আসানসোলে বলেন, ‘‌রাজ্য নির্বাচন কমিশনের যদি স্বাধীন সত্তা থাকত, তাহলে তিন বছর ধরে পুরসভার নির্বাচন বাকি থাকত না। তাদের দায়িত্ব সময়ে নির্বাচন করা। তারা তা করেনি। অর্থাৎ এই সরকারের দ্বারা পরিচালিত। কী করে দুটো মাত্র পুরসভার নির্বাচন করাতে যাচ্ছে। আরগুলি কী হবে?’‌

পুরসভার নির্বাচন নিয়ে রাজ্যের সঙ্গে সংঘাতের পথে হেঁটেছে রাজভবন। রাজ্য নির্বাচন কমিশনকে কড়া বার্তা দিয়েছেন রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়। মঙ্গলবার বৈঠকও করেন। বুধবার চিঠি দেন। সূত্রের খবর, এই সাক্ষাৎ পর্বেই শুধু কলকাতা ও হাওড়া নয়, রাজ্যপাল অন্যান্য পুরসভাতেও একইসঙ্গে নির্বাচন চাইছেন। এবার রাজ্য সরকারের শাখা হিসাবে কাজ না করার কথা উল্লেখ করেছেন। আর দিলীপ ঘোষ রাজ্য নির্বাচন কমিশনের স্বাধীন সত্তা নেই বলে মন্তব্য করেছেন।

এদিকে ২৪৩–কে ধারায় নির্বাচন কমিশনের স্বতন্ত্র আইনে উল্লেখ আছে, ভোটার তালিকা তৈরি করা থেকে ভোট ঘোষণা, বিজ্ঞপ্তি, ভোটের প্রস্তুতির সব দায়িত্বই রাজ্য নির্বাচন কমিশন গ্রহণ করতে পারে। অন্যদিকে রাজ্যপাল চাইছেন, সব পুরসভার ভোট একসঙ্গে হবে। এই দড়ি টানাটানির মধ্যে কলকাতা হাইকোর্টে মামলা দায়ের করা হয়েছে। এখন দেখার জল কতদূর গড়ায়।

বন্ধ করুন