দোলে নিজের লোকসভা কেন্দ্রে জনসংযোগ দিলীপ ঘোষের

  • করোনাভাইরাস থেকে সতর্কতায় এবার বিজেপি নেতারা দোলে অংশগ্রহণ না করলেও ব্যতিক্রম দিলীপবাবু।
করোনাভাইরাস সংক্রমণের কথা মাথায় রেখে এবার রং না খেলার পরামর্শ দিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। সেই মতো এবার এবার হোলি উৎসব থেকে নিজেদের দূরে রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন তাবড় বিজেপি নেতা। ব্যতিক্রম শুধু বঙ্গ বিজেপি। তিনি দোল খেলার জন্য বিশেষ অনুমতি নিয়েছেন বলে আগেই জানিয়েছিলেন রাজ্য বিজেপি সভাপতি দিলীপ ঘোষ।
1/4করোনাভাইরাস সংক্রমণের কথা মাথায় রেখে এবার রং না খেলার পরামর্শ দিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। সেই মতো এবার এবার হোলি উৎসব থেকে নিজেদের দূরে রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন তাবড় বিজেপি নেতা। ব্যতিক্রম শুধু বঙ্গ বিজেপি। তিনি দোল খেলার জন্য বিশেষ অনুমতি নিয়েছেন বলে আগেই জানিয়েছিলেন রাজ্য বিজেপি সভাপতি দিলীপ ঘোষ।
সেই মতো সোমবার দোলে মাতলেন তিনি। নিজের লোকসভা কেন্দ্র মেদিনীপুরে বিভিন্ন জায়গায় রং আর আবিরে শুভেচ্ছা বিনিময় করেন মেদিনীপুরের সাংসদ।
2/4সেই মতো সোমবার দোলে মাতলেন তিনি। নিজের লোকসভা কেন্দ্র মেদিনীপুরে বিভিন্ন জায়গায় রং আর আবিরে শুভেচ্ছা বিনিময় করেন মেদিনীপুরের সাংসদ।
রং খেললেও এদিন বড় জমায়েত করেননি দিলীপবাবু। বলেন, ‘দোল তো বছরে একবারই আসে। আর এতে সবার সঙ্গে মিশে জনসংযোগের বিশেষ সুযোগ থাকে। সেই সুযোগ হাতছাড়া করা যায় না।’
3/4রং খেললেও এদিন বড় জমায়েত করেননি দিলীপবাবু। বলেন, ‘দোল তো বছরে একবারই আসে। আর এতে সবার সঙ্গে মিশে জনসংযোগের বিশেষ সুযোগ থাকে। সেই সুযোগ হাতছাড়া করা যায় না।’
এদিন সকালে প্রথমে হরি মন্দিরে যান দিলীপবাবু। সেখান থেকে শহরের বিভিন্ন জায়গায় গিয়ে স্থানীয়দের সঙ্গে ফাগের আনন্দে মাতেন তিনি। রং মাখের ছোটদের থেকে। গেরুয়া আবিরে দিলীপবাবুকে স্বাগত জানান স্থানীয়রা।
4/4এদিন সকালে প্রথমে হরি মন্দিরে যান দিলীপবাবু। সেখান থেকে শহরের বিভিন্ন জায়গায় গিয়ে স্থানীয়দের সঙ্গে ফাগের আনন্দে মাতেন তিনি। রং মাখের ছোটদের থেকে। গেরুয়া আবিরে দিলীপবাবুকে স্বাগত জানান স্থানীয়রা।
অন্য গ্যালারিগুলি