বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > নতুন বছরে কলকাতাবাসীকে উপহার, আগামী ৩ মাসের মধ্যে খুলতে চলেছে টালা ব্রিজ
নতুন বছরে কলকাতাবাসীকে উপহার, আগামী ৩ মাসের মধ্যে খুলতে চলেছে টালা ব্রিজ। ফাইল ছবি, সৌজন্যে ফেসবুক।
নতুন বছরে কলকাতাবাসীকে উপহার, আগামী ৩ মাসের মধ্যে খুলতে চলেছে টালা ব্রিজ। ফাইল ছবি, সৌজন্যে ফেসবুক।

নতুন বছরে কলকাতাবাসীকে উপহার, আগামী ৩ মাসের মধ্যে খুলতে চলেছে টালা ব্রিজ

নতুন টালা ব্রিজ প্রায় ৮০০ মিটার লম্বা এবং এটি চওড়া ১৯ মিটার। এই সেতু খুবই আধুনিক প্রযুক্তিতে তৈরি করা হয়েছে।

উত্তর কলকাতার সঙ্গে মধ্যে এবং দক্ষিণ কলকাতার যোগাযোগের একটি গুরুত্বপূর্ণ সেতু হলো টালা ব্রিজ। স্বাস্থ্যের বেহাল অবস্থার জন্য ২০২০ সালের ১ ফেব্রুয়ারি থেকে টালা সেতুতে যান চলাচল সম্পূর্ণ ভাবে বন্ধ করে দেওয়া হয়। এরপরে ভাঙার কাজ শুরু হয় টালা ব্রিজ। এই সেতু দীর্ঘদিন বন্ধ থাকার ফলে স্বাভাবিকভাবেই মানুষের ব্যাপক সমস্যা হচ্ছিল। দ্রুতই সেই সমস্যার সমাধান হতে চলেছে। আগামী দু-তিন মাসের মধ্যেই এই ব্রিজ সর্বসাধারণের জন্য খুলে দেওয়া হবে। এমনটাই জানিয়েছেন পূর্তমন্ত্রী মলয় ঘটক।

নতুন টালা ব্রিজ প্রায় ৮০০ মিটার লম্বা এবং এটি চওড়া ১৯ মিটার। এই সেতু খুবই আধুনিক প্রযুক্তিতে তৈরি করা হয়েছে। ইতিমধ্যেই সেতুর ৯০ শতাংশ কাজ সম্পন্ন হয়ে গিয়েছে। শুক্রবার এই সেতু পরিদর্শন করেন পূর্তমন্ত্রী মলয় ঘটক এবং কলকাতা পুরসভার ডেপুটি মেয়র অতীন ঘোষ।

প্রসঙ্গত, এই ব্রিজের কাজ শুরু হওয়ার পরে করোনার প্রথম থাবায় জেরবার হয়ে ওঠে কলকাতা সহ গোটা দেশ। তবে করোনার মধ্যেও এই সেতু নির্মাণের কাজ আটকে থাকেনি। এদিন সেতু পরিদর্শন করে মলয় ঘটক বলেন, 'অত্যন্ত দ্রুততার সঙ্গে এই ব্রিজের কাজ সম্পন্ন হয়েছে। করোনার সময় সমস্যা থাকলেও কাজ বন্ধ হয়নি। টালা ব্রিজ কলকাতার খুবই গুরুত্বপূর্ণ ব্রিজ। এই ব্রিজের মাধ্যমে প্রতিদিন হাজার হাজার গাড়ি যাতায়াত করে। আশা করা হচ্ছে আগামী দু-তিন মাসের মধ্যে শেষ হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।'

প্রসঙ্গত, এই ব্রিজের বেশিরভাগ অংশই রেলের জমিতে থাকায় রেলওয়ে সেফটি কমিশনের অনুমতি প্রয়োজন ছিল। এদের মধ্যে সেই অনুমতি পাওয়া গিয়েছে বলে পি ডব্লিউ ডি সূত্রে জানা গিয়েছে। সব মিলিয়ে এই ব্রিজ নির্মাণের জন্য ৪৬৮ কোটি টাকা খরচ হয়েছে।

এই সেতু পুনরায় চালু হলে অনেক মানুষের জীবিকা নির্বাহ হবে বলে জানিয়েছেন ডেপুটি মেয়র অতীন ঘোষ। তিনি বলেন, 'এই ব্রিজটি দু'বছরের মধ্যে সম্পন্ন হতে চলেছে। অনেক মানুষের জীবিকা নির্ভর করে এই টালা ব্রীজের উপর। তাছাড়া উত্তর কলকাতার মানুষের সঙ্গে যোগাযোগের অন্যতম মাধ্যম হল এই টালা সেতু। আমি আমার রাজনৈতিক জীবনে ভাবতে পারিনি এত দ্রুততার সঙ্গে টালা সেতু হবে।'

বন্ধ করুন