বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > ভবানীপুরে ফাঁকা বুথে চিন্তিত তৃণমূল, মমতার হয়ে ভোট চেয়ে বিতর্কে ফিরহাদ-সুব্রতরা
ফিরহাদ হাকিম।
ফিরহাদ হাকিম।

ভবানীপুরে ফাঁকা বুথে চিন্তিত তৃণমূল, মমতার হয়ে ভোট চেয়ে বিতর্কে ফিরহাদ-সুব্রতরা

  • সকাল ১১টা পর্যন্ত ভবানীপুর কেন্দ্রে উপনির্বাচনে ভোটের হার ২১.৭৩ শতাংশ। এত কম ভোট পড়ায় স্বভাবতই চিন্তিত তৃণমূল কংগ্রেস।

সকাল ১১টা পর্যন্ত ভবানীপুর কেন্দ্রে উপনির্বাচনে ভোটের হার ২১.৭৩ শতাংশ। এত কম ভোট পড়ায় স্বভাবতই চিন্তিত তৃণমূল কংগ্রেস। এই পরিস্থিতিতে টুইট করে ভবানীপুরের ভোটারদের বুথে গিয়ে ভোট দেওয়ার আবেদন করেন রাজ্যের মন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম। এই টুইট ঘিরে শুরু হয়েছে বিতর্ক। বিজেপির অভিযোগ, ভোট চাওয়ার আছিলায় ভোটারদের প্রভাবিত করছেন ফিরহাদ হাকিম।

এদিন সকাল ১০টা নাগাদ টুইট করে ফিরহাদ হাকিম লেখেন, 'ভবানীপুরের সবাইকে আজকে অনুরোধ করছি উন্নয়নের পক্ষে ভোট দিন, সমতার পক্ষে ভোট দিন।' এর সঙ্গে রাজ্যের মন্ত্রী এই হ্যাশট্যাগটু জুড়ে দেন - #MamataBanerjeeForBhabanipur। যা নিয়ে উঠেছে প্রশ্ন।

এদিকে রাজ্যের অপর মন্ত্রী সুব্রত মুখোপাধ্যায়ের টুইটে লেখেন, 'আজ ভবানীপুর-সহ বাংলার তিন কেন্দ্রে ভোটগ্রহণ। আমাদের ভোটারদের উদ্বুদ্ধ করতে হবে ও মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে জয়ী করতে হবে।'

উল্লেখ্য, এদিন ভোটগ্রহণ শুরু হওয়ার দুই ঘণ্টা পর ভবানীপুরে ভোটের হার ছিল মাত্র ৭.৫৭ শতাংশ। যা দেখে উদ্বেগের রেখা দেখা যায় ঘাসফুল শিবিরের কপালে। এপর সকাল ১১টায় ভোটদানের হার কিছুটা বেড়ে হয় ২১.৭৩ শতাংশ। প্রথমে মনে করা হচ্ছিল আবহাওয়া খারাপ থাকলে মানুষ ভোট দিতে আসবেন না। তবে আকাশ পরিষ্কার হয়ে গেলেও ভোটারদের দেখা নেই। এই আবহে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে তাঁর দ্বিতীয় পরীক্ষায় পাশ করাতে মরিয়া তৃণমূল কর্মীরাও এলাকায় গিয়ে গিয়ে ভোটারদের ভোটদান করার আবেদন জানাচ্ছে বলে জানা গিয়েছে। যা নিয়ে বিজেপির পালটা অভিযোগ, ভোটারদের প্রভাবিত করা হচ্ছে।

 

বন্ধ করুন