বাংলা নিউজ > ভোটযুদ্ধ ২০২১ > অক্ষত দেশের একমাত্র বামদুর্গ, বাংলার ভরাডুবি সত্ত্বেও কেরলে লাল ঝড় বিজয়নদের
কেরলে জয় বামজোটের (ফাইল ছবি)
কেরলে জয় বামজোটের (ফাইল ছবি)

অক্ষত দেশের একমাত্র বামদুর্গ, বাংলার ভরাডুবি সত্ত্বেও কেরলে লাল ঝড় বিজয়নদের

  • চার দশকের প্রথা ভাঙল কেরলে। বুথ ফেরত সমীক্ষাকে সত্যি প্রমাণিত করে কেরলে ফের সরকার গড়তে চলেছে সিপিএম নেতৃত্বাধীন এলডিএফ।

চার দশকের প্রথা ভাঙল কেরলে। বুথ ফেরত সমীক্ষাকে সত্যি প্রমাণিত করে কেরলে ফের সরকার গড়তে চলেছে সিপিএম নেতৃত্বাধীন এলডিএফ। এদিন ফল প্রকাশ শুরু হতেই কংগ্রেসকে অনেকটা পিছনে ফেলে এগিয়ে যায় এলডিএফ। শেষ পর্যন্ত ৯৫টি আসনে জয়ী বা এগিয়ে থেকে লালদুর্গ অক্ষত রাখলেন পিনারাই বিজয়ন। উল্লেখ্য, গত চার দশকে কেরলে পরপর দুই দফায় কোনও দলসরকার গঠন করতে পারেনি। তবে সেই প্রথা ভেঙে কেরলে লাল ঝড় বইয়ে দেন বিজয়নরা। এদিকে কেরলে দুর্দান্ত প্রত্যাবর্তনের মাঝেই বাংলায় মুখ পুড়েছে বামেদের। একটিও আসন না পেয়ে বাংলায় অভূতপূর্ব ভরাডুবি বামেদের। 

১৪০ আসন বিশিষ্ট কেরল বিধানসভায় ম্যাজিক ফিগার ৭১। সেই সংখ্যার ধারের কাছেও যেতে পারেনি কংগ্রেস। মাত্র ৪৪-এই আটকে যান তারা। অপরদিকে বিজেপি প্রাথমিক ভাবে চারটি আসনে জিতলেও শেষ পর্যন্ত তাদের ঝুলি শূন্যই থেকে যায়।

২০১৯ সালের লোকসভার নির্বাচনে সেরাজ্যের ২০টি আশনের মধ্যে কংগ্রেসের ঝুলিতে গিয়েছিল ১৯টি। সিপিএম জিতেছিল মাত্র একটিতে। তবে সেই ভরাডুবি থেকে ঘুরে দাঁড়িয়ে ২০২০ সালের স্থানীয় নির্বাচনে কংগ্রেসকে নাস্তানাবুদ করে বামজোট। আর সেই ফলের প্রেক্ষাপটেই ২০২১-এর লড়াই জেতার ছক কষতে শুরু করে সিপিএম। মূলত তারুণ্যের উপর ভরসা করেই লালদুর্গ অক্ষত রাখার পরিকল্পনা করে এলডিএফ।

মূলত করোনা আবহে প্রশাসনিক দক্ষতার দেখিয়ে প্রতিষ্ঠান বিরোধী হাওয়া ঘুরিয়ে দিয়েছিলেন পিনারাই বিজয়নরা। করোনা আবহে অনুষ্ঠিত পঞ্চায়েত এবং পৌরসভা নির্বাচনে কংগ্রেসকে অনেকটাই পিছনে ফেলে দেয় সিপিএম। তরুণ মুখদের সামনে রেখে সেই জয়লাভ করে লাল শিবির। সেই হাওয়া ধরে রেখেই বিধানসভা নির্বাচনে নামে এলডিএফ। এবং সেই ফর্মুলাতেই জয়ের মুখ দেখল বাম জোট।

বন্ধ করুন