বাংলা নিউজ > ভোটযুদ্ধ ২০২১ > পশ্চিমবঙ্গ বিধানসভা নির্বাচন 2021 > ‘নিহতদের পরিবারকে সহায়তা করেছে সরকার’, ভোটবাজারেও ঘোষণা মমতার
নিহতদের পরিবারের সঙ্গে কথা বলছেন মমতা। (ছবি সৌজন্য পিটিআই)
নিহতদের পরিবারের সঙ্গে কথা বলছেন মমতা। (ছবি সৌজন্য পিটিআই)

‘নিহতদের পরিবারকে সহায়তা করেছে সরকার’, ভোটবাজারেও ঘোষণা মমতার

মাথাভাঙাতে নিহতদের পরিবারকে সহায়তা করেছে সরকার। রাজনৈতিক হিংসায় মৃত অন্যান্যদের পরিবারকেও সহায়তার আশ্বাস মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের। তাদের পাশে থাকার আশ্বাস মমতার। কিন্তু ভোটপর্বের মধ্যে নেত্রীর এই ঘোষণাকে ঘিরে নানা কথা উঠছে বিভিন্ন মহলে

বুধবার মাথাভাঙাতে গিয়ে মৃত আনন্দ বর্মনের মামা ও দাদুর সঙ্গে বুধবার দেখা করেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। আনন্দ বর্মনের পরিবারকে সরকারি সহায়তা দেওয়ার কথাও জানিয়েছেন তিনি। ভোটের দিন শীতলকুচিতে গুলিতে মৃত অন্যান্য ব্যক্তির পরিবারের পাশে থাকারও আশ্বাস দিয়েছেন তিনি।

 নির্বাচন বিধির কথা উল্লেখ করে তৃণমূল নেত্রী বলেন,' যেহেতু নির্বাচন আছে বলা যায় না। আর মৃত্যুর বিকল্প কখনও অর্থ হয় না। মনে রাখবেন পশ্চিমবঙ্গ সরকার নিশ্চয়ই কিছু কিছু সাহায্য করেছে। রাজনৈতিক হিংসায় যারা মারা গিয়েছে সেই পরিবারগুলিকেও সহায়তা করা হবে। ইলেকশন মিটে গেলে করা হবে। এখনই কিছু বলা যায়না। পরিবারগুলিকে দেখভাল করার জন্য যা যা কিছু করা দরকার। তা আমরা নিশ্চয়ই করব'। পাশাপাশি শীতলকুচির ঘটনা নিয়ে তদন্ত হবে বলেও আশ্বাস দিয়েছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। 

বাসিন্দাদের একাংশের মতে, বাম আমলেও কোচবিহারের দিনহাটাতে পুলিশের গুলিতে মারা গিয়েছিলেন ৫জন। এখনও ফরওয়ার্ড ব্লক দিনহাটাতে পঞ্চ শহিদ দিবস পালন করেন। পঞ্চ শহিদ দিবস পালনের মাধ্যমে প্রতিবার নতুন করে সংগঠনের কর্মীদের চাঙা করার চেষ্টা করে। এদিনও মাথাভাঙাতেও মঞ্চে লেখা ছিল ‘পঞ্চ শহিদ স্মরণে’। উত্তরবঙ্গ উন্নয়নমন্ত্রী রবীন্দ্রনাথ ঘোষ বলেন, 'বিজেপির নেতারা একের পর এক উসকানিমূলক কথা বলছেন। গোটা ঘটনার তদন্ত হওয়া দরকার। আনন্দ বর্মনের মামা ও দাদু এসেছিলেন। নেত্রী আমাদের নির্দেশ দিয়ে গিয়েছেন। নির্বাচনের পর ওই পরিবারগুলির জন্য যা যা করার সবটাই করা হবে। নেত্রী যা বলেন সেটাই তিনি করেন।আমাকে তিনি দায়িত্ব দিয়ে গিয়েছেন, সেই দায়িত্ব অবশ্যই পালন করব'।

বন্ধ করুন