লাল সিং চড্ডার লুকে আমির (ছবি-ইনস্টাগ্রাম)
লাল সিং চড্ডার লুকে আমির (ছবি-ইনস্টাগ্রাম)

অপেক্ষা বাড়াচ্ছেন লাল সিং চড্ডা! ডিসেম্বর মুক্তি নয়, ইঙ্গিত অতুল কুলকার্নির

  • করোনার জেরে আটকে রয়েছে ছবির শ্যুটিং। তাই ডিসেম্বরে মুক্তি পাবে না লাল সিং চড্ডা, তেমনটাই ইঙ্গিত দিলেন ছবির কাহিনিকার অতুল কুলকার্নি।

করোনার জেরে মুক্তি পিছোচ্ছে আমির খানের ক্রিসমাস রিলিজ লাল সিং চড্ডার। তেমনই ইঙ্গিত দিলেন ছবির কাহিনিকার অতুল কুলকার্নি। এখনও শেষ হয়নি লাল সিং চড্ডার শ্যুটিং পর্ব। তাই অতুলের দাবি, ‘ডিসেম্বরে লাল সিং চড্ডার মুক্তি সম্ভব হবে না। আমার হয় আগামী বছরের জন্য অপেক্ষা করতে হবে’।

হলিউডের জনপ্রিয় ছবি, ফরেস্ট গাম্পের (১৯৯৪) অফিসিয়্যাল রিমেক লাল সিং চড্ডা। এক শিখ ব্যক্তির গোটা দেশের যাত্রার গল্প ফুটে উঠবে এই ছবিতে। রঙ দে বসন্তির শুটিং চলাকালীন অতুল জানতে পেরেছিলেন আমিরের অন্যতম প্রিয় ছবি ফরেস্ট গাম্প। তারপরই ১৯৯৪ এর কালজয়ী ছবিকে ভারতীয় প্রেক্ষাপটে লেখা শুরু করেন অতুল। চার বছর পর ২০১০ সালে ছবির চিত্রনাট্য শুনেছিলেন আমির। এরপর ছবির সত্ত্ব কিনতে পেরিয়ে যায় প্রায় এক দশক। গত বছর জন্মদিনে আমির খান এই ছবির আনুষ্ঠানিক ঘোষণা সেরেছিলেন।


এই ছবিতে নিজের চরিত্রে নিয়ে আমির খান হিন্দুস্তান টাইমসকে জানিয়েছেন, এই চরিত্রটাকে দেখলেই আপনি ভালোবাসবেন। লাল সিং চড্ডা ভীষণ সরল..কোনও বিষয়কে একদম ভিন্ন দৃষ্টিভঙ্গি দিয়ে দেখে সে। ও এমন একজন যে তোমার সঙ্গে মুহূর্তে একটা সংযোগ স্থাপন করে ফেলবে। যদি না আমি খুব বাজে অভিনয় কর.. তাহলে বিষয়টা অন্য হবে। চরিত্রটা এতটাই মজবুতভাবে লেখা যে আপনি দেখামাত্রই প্রেমে পড়ে যাবেন’।

রবার্ট জেমরিকস পরিচালিত ফরেস্ট গাম্প ছবিটি অস্কারের আসরে সেরা ছবি, সেরা পরিচালক এবং সেরা অভিনেতা সহ ৬টি অস্কার ছিনিয়ে নিয়েছিল। উইনস্টন গ্রুমের লেখা ১৯৮৬ সালে প্রকাশিত উপন্যাস ফরেস্ট গাম্প অবলম্বনে তৈরি এই ছবি। আলমাবার ফরেস্ট গাম্পের চোখ দিয়ে বিংশ শতাব্দী মার্কিন মুলুকের পাল্টে যাওয়া সামাজিক, রাজনৈতিক, অর্থনৈতিক ব্যবস্থার ছবি ফুটে উঠেছে এই উপন্যাস ও ছবিতে।

সিক্রেট সুপারস্টার খ্যাত পরিচালক অদ্বৈত চন্দন পরিচালিত লাল সিং চড্ডায় আমির খানের বিপরীতে দেখা মিলবে করিনা কাপুর খানের।এর আগে থ্রি ইডিয়টস, তলাশের মতো ছবিতে একসঙ্গে কাজ করেছেন আমির-করিনা।ছবিতে রবিন রাইট অভিনীত চরিত্রটিতে দেখা যাবে করিনাকে।


বন্ধ করুন