চোখ রয়েছে এখন আকাশে চাঁদের দর্শন পেতে।
চোখ রয়েছে এখন আকাশে চাঁদের দর্শন পেতে।

অপেক্ষা ঘোষণার, ইদের চাঁদ দেখার আশায় আকাশে চোখ গোটা বিশ্বের

  • ঠিক কোন দিনে ইদ-উল-ফিতর পালন করা হবে, তা নির্ভর করে ইদের চন্দ্রোদয়ের ওপর।

রমজান মাসে দীর্ঘ ত্রিশ দিন ব্যাপী রোজার পর ইদ-উল-ফিতর পালন করা হয়। সূর্যোদয়ের আগে সেহরি এবং সূর্যাস্তের পর মগ্রিব ও ইফতারের মাধ্যমে রোজা পালন করা হয়। রমজান মাসের ২৯ তম বা ৩০ তম দিনে ইদের চাঁদ দেখা দেওয়ার পর, মিঠি ইদ পালিত হয়।

ঠিক কোন দিনে ইদ-উল-ফিতর পালন করা হবে, তা নির্ভর করে ইদের চন্দ্রোদয়ের ওপর। বিভিন্ন দেশে ইদের দিনক্ষণ বিভিন্ন। আরবদেশের ঘোষণার পরই ইদ পালন করা হয়। চন্দ্রকলার ওপর নির্ভর করে হিজরি বা ইসলামিক ক্যালেন্ডার, যা ২৯ বা ৩০ দিনের হয়ে থাকে। নতুন চাঁদ বা অর্ধচন্দ্রের উপস্থিতি নতুন মাসের আগমন জানান দেয়।

সৌদি আরবের রিয়াধে মাজমাহ বিশ্ববিদ্যালয়ের মানমন্দিরের জ্যোতির্বিদরা বৃহস্পতিবার জানিয়েছিলেন, রমজান মাসের ২৯ তম দিন, শুক্রবারে ইদের চাঁদ দেখা দেওয়ার সম্ভাবনা নেই। চাঁদ শেষ পর্যন্ত দেখা যায়ওনি।

মানমন্দির সূত্রে জানা গিয়েছে, অ্যাস্ট্রোনমিক্যাল অবজার্ভেটরি সাইটে প্রকাশিত বিজ্ঞানভিত্তিক গণনা অনুযায়ী, শুক্রবার রমজানের ২৯ তম দিনে সন্ধ্যে ৬.৪০ মিনিটে ২৯৩ ডিগ্রিতে সূর্যাস্ত হবে এবং ৬.২৬ মিনিটে চাঁদ উঠবে অর্থাৎ সূর্যাস্তের ১৩ মিনিট আগে। আবার ২৩ মে তারিখ শনিবার রমজানের ৩০ তম দিনে ২৩৯ ডিগ্রিতে ৬.৪০ মিনিটে সূর্যাস্ত হবে এবং ২৯৩ ডিগ্রিতে ৭.২৩ মিনিটে অর্ধচন্দ্র দেখা দেবে। অর্থাৎ সূর্যাস্তের ৪৩ মিনিট পর ৮.৮৪-এর উচ্চতা এবং ১০.৬০ ডিগ্রির ইলংগেশনে থাকবে অর্ধচন্দ্র।

শনিবার ২৩ তারিখ রাতে ইদের চাঁদের অপেক্ষায় রয়েছে সমগ্র বিশ্ব। এ রাতে চাঁদ দেখা দিলে, রবিবার ২৪ তারিখ ভারতে ইদ পালিত হবে। তা না-হলে ২৫ তারিখ সোমবার পালিত হবে খুশির ইদ। সোমবারই ইদের সরকারি ছুটি ঘোষণা করা হয়েছিল এদেশে।

বন্ধ করুন