বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > বাড়ছে Corona! আবারও নাইট কার্ফু জারি হল এই রাজ্যে
চাপে মহারাষ্ট্র
চাপে মহারাষ্ট্র

বাড়ছে Corona! আবারও নাইট কার্ফু জারি হল এই রাজ্যে

সামনেই হোলি, ইস্টার, শবে বরাত। সে কথা মাথায় রেখে জারি হয়েছে গাইডলাইন। বাড়িতে পরিবারের সঙ্গেই রঙ খেলার সীমাবদ্ধ রাখার পরামর্শ দিয়েছে মহারাষ্ট্র সরকার। সেই সঙ্গে উত্সবের সময়ে ভিড় এড়ানোর কথাও বলা হয়েছে।

 রবিবার (২৮ মার্চ) থেকে নাইট কার্ফুর ঘোষণা করল মহারাষ্ট্র। রাজ্যে দ্রুত হারে বাড়তে থাকা সংক্রমণ রুখতে এমনই সিদ্ধান্ত নিল উদ্ধব ঠাকরে সরকার। শনিবার এক দিনে মহারাষ্ট্রে ৩৫,৭২৬ জন নতুন করোনা আক্রান্তের হদিশ মিলেছে। মৃত্যু হয়েছে ১৬৬ জনের, যা গত পাঁচ মাসের মধ্যে সর্বোচ্চ। 

সামনেই হোলি, ইস্টার, শবে বরাত। সে কথা মাথায় রেখে জারি হয়েছে গাইডলাইন। বাড়িতে পরিবারের সঙ্গেই রঙ খেলার সীমাবদ্ধ রাখার পরামর্শ দিয়েছে মহারাষ্ট্র সরকার। সেই সঙ্গে উত্সবের সময়ে ভিড় এড়ানোর কথাও বলা হয়েছে। 

তাছাড়া এই মরশুমে শপিং মলেও বেশ ভিড় হয়। সে কথা মাথায় রেখে রাত ৮টা থেকে সকাল ৭টা পর্যন্ত শপিং মল বন্ধ রাখার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। এছাড়াও বন্ধ থাকবে অডিটোরিয়াম, সিনেমা হল, রেস্তোরাঁ সহ সমস্ত পাবলিক প্লেস রাত আটটার পর। অমান্য করলে হাজার টাকা ফাইন হবে। তবে খাবারের হোম ডেলিভারি চলবে। বাড়িতে নিয়েও যাওয়া যাবে। সমস্ত রকমের সামাজিক, ধার্মিক, রাজনৈতিক ও সাংস্কৃতিক কার্যকলাপের ওপর রাশ টেনেছে সরকার। আপাতত বিয়ে বাড়িতে সর্বোচ্চ ৫০ জন যেতে পারবেন। অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া সম্পন্ন করতে সর্বোচ্চ ২০ জনের অনুমতি দিয়েছে উদ্ধব সরকার। 

নির্দেশিকা জারির আগে রাজ্যের প্রতিটি জেলার প্রশাসনিক কর্তাদের সঙ্গে বৈঠকে বসেন উদ্ধব ঠাকরে। বিস্তারিত আলোচনার পর নেওয়া হয় নাইট কার্ফুর সিদ্ধান্ত। গত সপ্তাহে আবার লকডাউনের জল্পনাও উসকে দিয়েছিলেন উদ্ধব ঠাকরে। এক সাংবাদিক সম্মেলনে তিনি বলেন, 'পরিস্থিতি যেভাবে খারাপ হচ্ছে, তাতে লকডাউন নিয়ে নিঃসন্দেহে আলোচনা চলছে। তবে এখনই নয়। রাজ্যবাসীর উপর আমার আস্থা রয়েছে। আশা করি ওনারা করোনা সতর্কতা মেনে সহযোগিতা করবেন।'

 

বন্ধ করুন