বাড়ি > ঘরে বাইরে > ভিডিয়ো : হাত স্যানিটাইজ করে সোনার দোকানে লুঠপাট মাস্ক পরা ডাকাতদের
মাস্ক পরে হাত স্যানিটাইজের পর ডাকাতি (ছবি সৌজন্য স্ক্রিনগ্র্যাব)
মাস্ক পরে হাত স্যানিটাইজের পর ডাকাতি (ছবি সৌজন্য স্ক্রিনগ্র্যাব)

ভিডিয়ো : হাত স্যানিটাইজ করে সোনার দোকানে লুঠপাট মাস্ক পরা ডাকাতদের

  • প্রায় ৪০ লাখ টাকা মূল্যের গয়নার পাশাপাশি নগদ ৩০,০০০-৪০,০০০ টাকা নিয়েও পালিয়েছে ডাকাতরা।

করোনাভাইরাসের প্রকোপ কবে কমবে, জানা নেই। ‘নিউ নর্মাল’ মেনেই শুরু হয়েছে জীবনযাপন। আর সেই ‘নিউ নর্মাল’ মেনেই হাত স্যানিটাইজ করে সোনার দোকানে লুঠপাট চালাল ‘স্বাস্থ্য সচেতন’ ডাকাত দল। ঘটনাটি উত্তরপ্রদেশের আলিগড়ের।

শুক্রবার দুপুর দুটো নাগাদ বাইকে করে ওই দোকানে আসে তিনজন। দোকানের সিসিটিভি ফুটেজে দেখা যাচ্ছে, একেবারে স্বাভাবিকভাবে দোকানে ঢোকে দুই যুবক। দু'জনেই মাস্ক পরেছিল। তাদের খদ্দের ভেবে দোকানের কর্মীরা হাতে স্যানিটাইজার দেন। তারপরই কোমর থেকে দেশি পিস্তল বের করে শুরু হয় লুঠপাট। ততক্ষণে যোগ দেয় তৃতীয়জনও। ভাব এমন ছিল যে কতজন সোনার গয়নায় হাত দিয়েছেন, তার তো ইয়ত্তা নেই!

সেই সময় দোকানে তিনজন খদ্দের ছিলেন। তাঁরা একচুলও নড়েননি। বরং বিনা বাধায় কাউন্টার টপকে সিন্দুক থেকে সোনার গয়না এবং নগদ টাকা বের করতে থাকে একজন। অপর দু'জন তা ব্যাগে ভরতে থাকে। ৩৫-৩৬ সেকেন্ডের মধ্যেই লুঠপাট চালিয়ে চম্পট দেয় ডাকাতরা। প্রায় ৪০ লাখ টাকা মূল্যের গয়নার পাশাপাশি নগদ ৩০,০০০-৪০,০০০ টাকা নিয়েও পালিয়েছে তারা। 

আলিগড়ের এসএসপি মুনিরাজ বলেন, ‘তিনজন মোটরসাইকেলে করে আসে এবং দোকানের ভিতরে যায়। দেশি পিস্তল দেখিয়ে সোনার দোকান লুট করেছে। (দোকানের) মালিক লুটপাট নিয়ে যাবতীয় তথ্য দেবেন, আমরা এফআইআর দায়ের করব।’ পরে আলিগড় পুলিশের তরফে টুইটারে জানানো হয়, ঘটনায় একটি মামলা রুজু করা হয়েছে।পুলিশ সুপারের নেতৃ্ত্বে তদন্তকারী দল অভিযুক্তদের খোঁজে তল্লাশি চালাচ্ছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

বন্ধ করুন