বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > 'বেসরকারি নয়, শিশুর জন্ম হবে মফস্সলের সরকারি হাসপাতালে', উদাহরণ স্থাপন কলেক্টরের
উদাহরণ স্থাপন করা জেলা কলেক্টর এবং তাঁর স্ত্রী
উদাহরণ স্থাপন করা জেলা কলেক্টর এবং তাঁর স্ত্রী

'বেসরকারি নয়, শিশুর জন্ম হবে মফস্সলের সরকারি হাসপাতালে', উদাহরণ স্থাপন কলেক্টরের

  • অন্ধ্র ও ছত্তিশগড়ের সীমান্তে অবস্থিত মফস্সল ভদ্রাচলমের সরকারি হাসপাতালে জন্ম নেয় কলেক্টরের পুত্র সন্তান।

তেলেঙ্গানার এক জেলা কলেক্টর নিজের গর্ভবতী স্ত্রীকে একটি গ্রামীণ সরকারি হাসপাতালে ভর্তি করে উদাহরণ স্থাপন করলেন। সেই হাসপাতালে কলেক্টরের স্ত্রী বুধবার একটি সন্তানের জন্ম দেন। মধ্যবিত্তরাও যখন সরকারি হাসপাতালে যেতে দ্বিধাগ্রস্ত থাকেন, সেখানে ভদ্রদ্রি-কোথাগুডেম জেলার কলেক্টর অনুদীপ দুরিশেট্টি তাঁর গর্ভবতী স্ত্রী মাধবীকে অন্ধ্র ও ছত্তিশগড়ের সীমান্তে অবস্থিত মফস্সল ভদ্রাচলমের সরকারি হাসপাতালে ভর্তি করান।

বুধবার ভোররাতে, মাধবীর সি-সেকশন সার্জারি হয় এবং তিনি একটি পুত্র সন্তানের জন্ম দেন। ভার্গবী অবেদনবিদ দেবিকরের সাহায্য নিয়ে প্রবীণ স্ত্রীরোগ বিশেষজ্ঞ সুরপানেনি শ্রীক্রান্তি এই অস্ত্রোপচার করেন। হাসপাতাল সূত্রে জানা গিয়েছে, মা ও শিশু দুজনেই সুস্থ আছে। নিওনাটোলজিস্ট ডঃ ওয়াই এস রাজশেখর রেড্ডি শিশুটিকে পরীক্ষা করেছেন এবং প্রয়োজনীয় ওষুধ দিয়েছেন।

তেলাঙ্গানার জাগতিয়াল জেলার মেটপল্লী শহরের ২০১৮-ব্যাচের আইএএস অফিসার দুরিশেট্টি। ২০১৮ সালের UPSC সিভিল সার্ভিস পরীক্ষায় সর্বভারতীয় স্তরে প্রথম র‌্যাঙ্ক অর্জন করেছিলেন তিনি। তাঁকে তেলাঙ্গানা ক্যাডারে নিয়োগ করা হয়েছিল। জেলা কলেক্টর হিসাবে উন্নীত হওয়ার আগে একই জেলার সহকারী কালেক্টর হিসাবে কাজ করেছিলেন তিনি।

যদিও দুরিশেট্টির থেকে এই বিষয়ে কোনও মন্তব্য মেলেনি। তবে ভদ্রাচলম এলাকার হাসপাতালের ডেপুটি সুপারিনটেনডেন্ট এম রামকৃষ্ণ হিন্দুস্তান টাইমসকে বলেন যে জেলা প্রশাসনের প্রধানের এই ধরনের উদ্যোগ সরকারি হাসপাতাল নিয়ে সাধারণ মানুষের আস্থা বাড়াতে সাহায্য করবে। তিনি বলেন, 'আইএএস অফিসার তাঁর স্ত্রীকে হায়দরাবাদের যেকোনও বড় হাসপাতালে নিয়ে যেতে পারতেন। কিন্তু তিনি প্রমাণ করতে চেয়েছিলেন যে আমাদের হাসপাতাল কোনও কর্পোরেট হাসপাতালের চেয়ে খারাপ নয়। আসলে, হাসপাতালে ভর্তি হওয়ার আগেও, মাধবী নিয়মিত আমাদের হাসপাতালে চেক-আপে জন্য আসতেন।'

বন্ধ করুন