বাংলা নিউজ > ময়দান > ক্ষমা চাইলেন বেঙ্গালুরু এফসির কর্ণধার পার্থ জিন্দাল
আইএসএল-এ দলের ম্যাচ দেখছেন পার্থ জিন্দাল (ছবি: গুগল) 
আইএসএল-এ দলের ম্যাচ দেখছেন পার্থ জিন্দাল (ছবি: গুগল) 

ক্ষমা চাইলেন বেঙ্গালুরু এফসির কর্ণধার পার্থ জিন্দাল

  • অবশেষে ক্ষমা চাইলেন বেঙ্গালুরু এফসির কর্ণধার পার্থ জিন্দাল। ফুটবলাররা যে ব্যবহার মালদ্বীপে গিয়ে করেছে তাঁর জন্য সোশ্যাল মিডিয়াতে লিখতে বাধ্য হলেন তিনি। শুধু ক্ষমাই চাইলেননা, বেঙ্গালুরু এফসির কর্ণধার স্বীকার করে নিলেন তাঁর দলের বিদেশী ফুটবলার ও স্টাফেরা মালদ্বীপ সরকারের নিয়ম ভেঙেছেন।

অবশেষে ক্ষমা চাইলেন বেঙ্গালুরু এফসির কর্ণধার পার্থ জিন্দাল। ফুটবলাররা যে ব্যবহার মালদ্বীপে গিয়ে করেছে তাঁর জন্য সোশ্যাল মিডিয়াতে লিখতে বাধ্য হলেন তিনি। শুধু ক্ষমাই চাইলেননা, বেঙ্গালুরু এফসির কর্ণধার স্বীকার করে নিলেন তাঁর দলের বিদেশী ফুটবলার ও স্টাফেরা মালদ্বীপ সরকারের নিয়ম ভেঙেছেন। 

আগেই বেঙ্গালুরু এফসি দলের দিকে আঙুল তুলেছিল মালদ্বীপের ক্রীড়ামন্ত্রী আহমেদ মাহলুফ। তিনি জানিযেছেন, যেন খুব শীঘ্রই মালদ্বীপ ছেড়ে চলে যান সুনীল ছেত্রীরা। কারণ হিসাবে তিনি জানিয়েছিলেন, বেঙ্গালুরু এফসি দল মালদ্বীপে পা রাখার পর থেকেই, সেই দলের বহু ফুটবলার ও দলের সাপোর্টিং স্টাফ সেই দেশের বিভিন্ন জায়গায় ঘুরে বেড়াচ্ছেন। যা দেখে বিরক্ত তাদরে দেশের সরকার। তাঁরা ম্যালে দাঁড়িয়ে ছবিও তুলেছিলেন। যা ভাল চোখে নেয়নি সেই দেশের সরকার। তবে প্রথমে এই অভিযোগ মানতে চায়নি বেঙ্গালুরু এফসি।

এরপরেই মালদ্বীপের ক্রীড়ামন্ত্রী আহমেদ মাহলুফ জানান, বেঙ্গালুরু এফসি মালদ্বীপ সরকারে স্বাস্থ্য বিধির আইন ভেঙেছে। তাই এই ক্লাব যেন এই মুহূর্তে যেন তাদের দেশ ছাড়ে। ভারতের এই দল যেন শীঘ্রই তাদের দেশ ছাড়ে। মালদ্বীপের ফুটবল সংস্থা এমুহূর্তে এএফসির সঙ্গে যোগাযোগ করার চেষ্টা করছে। তাদের তরফ থেকে এই ম্যাচ বাতিল করার প্রস্তাব দেওয়া হয়েছে।   

এরপরেই সমস্ত ঘটনার নিয়ে টুইট করেন বেঙ্গালুরু এফসির কর্ণধার পার্থ জিন্দাল। তিনি দলের ভুল স্বীকার করে নেন।

 তিনি নিজের টুইটারে লিখেছেন, ‘বেঙ্গালুরু এফসির তরফ থেকে আমি ক্ষমা চাইছি। আমার দলের তিন জন ফুটবলার ও সদস্য যে আচরণ করেছে তার জন্য আমরা তাদের বিরুদ্ধে কঠিন পদক্ষেপ নিতে চলেছি। আমরা এএফসিকেও জানিয়েছি এবং এটাই বলতে পারি যে এটা আর কখনও হবেনা।’ 

এখন দেখার বিতর্কের জল কোন দিকে গড়ায়।

বন্ধ করুন