বাংলা নিউজ > ময়দান > প্রত্যাবর্তন সিরিজে বিরল রেকর্ড শাকিবের, থেকে গেল চোটের কাঁটা

দীর্ঘদিনের নিষেধাজ্ঞা কাটিয়ে দেশের মাটিতে ক্যারিবিয়ানদের বিপক্ষে সিরিজ দিয়ে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে প্রত্যাবর্তন ঘটেছে শাকিব আল হাসানের। প্রসঙ্গত যিনি এই মুহূর্তে বিশ্বশ্রেষ্ঠ অল-রাউন্ডার। সেই তিনি মাঠে নেমেই সৃষ্টি করলেন এক অভিনব নজির।

উইন্ডিজের বিপক্ষে সদ্য শেষ হওয়া তৃতীয় ওয়ানডেতে এই রেকর্ডের মালিক হলেন তিনি। উল্লেখ্য এই রেকর্ড বিশ্বের আর কোনো ক্রিকেটারের নামে নেই। তৃতীয় ওয়ানডে ১২০ রানে জিতে উইন্ডিজকে হোয়াইটওয়াশ করেছে বাংলাদেশ। সেই ম্যাচেই আবার শাকিব বোলিং করতে গিয়ে কুঁচকিতে টান লেগে মাঠ ছাড়েন।

 চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত ম্যাচে ক্যারিয়ারের ৪৮তম অর্ধশতরান করেন শাকিব। চার নম্বরে নেমে ৮০ বলে খেলে করেন ৫১ রান। এই ম্যাচে মাঠে নামার আগে ক্রিকেটের তিনটি ফরম্যাট মিলিয়ে দেশের মাটিতে সাকিবের সংগ্রহ ছিল ৫৯৯৪ রান। ম্যাচের দশম ওভারে কিওন হার্ডিংকে ফাইন লেগ দিয়ে চার মেরে ৬০০০ রানের মাইলফলক ছাড়িয়ে নয়া নজির গড়েন সাকিব।

কোন একটি নির্দিষ্ট দেশে ৬০০০ রান এবং ৩০০ উইকেট নেওয়া একমাত্র ক্রিকেটার হন শাকিব। ক্রিকেট ইতিহাসের আর কোনো ক্রিকেটারের এমন অনন্য নজির নেই। শাকিবের মোট শিকার ৩৩৬ উইকেট। এই রেকর্ডে শাকিবের সবচেয়ে কাছাকাছি রয়েছেন ভারতীয় জাতীয় ক্রিকেট দলের হয়ে প্রথম বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক তথা কিংবদন্তি অল-রাউন্ডার কপিল দেব । তার সংগ্রহে ছিল ৪১৫৮ রান এবং ৩১৯টি উইকেট।

 তবে সিরিজের শেষ ওয়ানডেতে চোট পেয়ে মাঠ ছাড়তে হল। ৩০তম ওভারে শাকিবকে বোলিং আক্রমণে আনেন অধিনায়ক তামিম ইকবাল। সেই ওভারেই চতুর্থ বল করার সময় কুঁচকিতে সমস্যা অনুভব করেন বাঁহাতি অলরাউন্ডার। লং অনের দিকে যাওয়া একটি বল তাড়া করতে গিয়ে হঠাৎ থেমে যান তিনি। পরের বলটি করার পর তিনি ব্যথায় বসে পড়েন। মাঠে তখনই বাংলাদেশ জাতীয় দলের ফিজিও এসে তার শুশ্রুষা শুরু করেন।

শুশ্রুষা শেষেও শাকিব মাঠে থাকার পরিস্থিতিতে ছিলেন না। ব্যথার জন্য ওভারের শেষ বলটি না করেই তাকে মাঠ ছাড়তে হয় । সেই ওভার শেষ করেন সৌম্য সরকার। এই চোটের কারণে পরের সিরিজ তিনি খেলতে পারবেন, এমন একটা কথা শোনা যাচ্ছে। যদিও এখনও চূড়ান্ত খবর পাওয়া যায় নি। 

বন্ধ করুন