বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > জুন মাসেই সাংগঠনিক বৈঠক তৃণমূল কংগ্রেসের, থাকবেন সাংসদ–বিধায়করা
মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। (ছবি সৌজন্য ভিডিয়ো)
মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। (ছবি সৌজন্য ভিডিয়ো)

জুন মাসেই সাংগঠনিক বৈঠক তৃণমূল কংগ্রেসের, থাকবেন সাংসদ–বিধায়করা

  • দলের বেশ কয়েকটি সাংগঠনিক পদে রদবদল হতে পারে বলে সূত্রের খবর।

একুশের নির্বাচনের ফলপ্রকাশের পর দলের বিধায়ক–সাংসদদের নিয়ে সাংগঠনিক বৈঠক ডাকলেন তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তবে এই বৈঠক ভার্চুয়ালি হবে না। আগামী ৫ জুন তৃণমূল ভবনে এই বৈঠকে সমস্ত বিধায়ক, সাংসদ এবং জেলা সভাপতিদের হাজির থাকার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। দলের বেশ কয়েকটি সাংগঠনিক পদে রদবদল হতে পারে বলে সূত্রের খবর। করোনাভাইরাস এবং ঘূর্ণিঝড় ইয়াস নিয়ে সবাই মাঠে নেমে পড়েছেন। কিন্তু তার সঙ্গে সংগঠনকেও মজবুত করে চালাতে হবে। তাই এই বৈঠক ডাকা হয়েছে বলে খবর।

বিধানসভা নির্বাচনে ব্যাপক সাফল্যের পরও কয়েকটি জেলায় খারাপ ফল করেছে শাসকদল। বিশেষ করে উত্তরবঙ্গের দুটি জেলায় এবারে খাতা খুলতে পারেনি তৃণমূল কংগ্রেস। কেন এই খারাপ ফল?‌ তাও পর্যালোচনা হতে পারে বৈঠকে। সূত্রের খবর, বিজয় সমাবেশ হতে পারে আগামী ২১ জুলাই। ৫ জুনের সাংগঠনিক বৈঠক থেকে একুশের সেই সমাবেশের প্রস্তুতি নিয়ে আলোচনা হবে।

এবার নজরে কলকাতার পুরভোট। কলকাতা–সহ রাজ্যে ১১০টি পুরসভা মেয়াদ শেষ হয়ে গিয়েছে। কিন্তু করোনা সংক্রমণের জন্য আপাতত স্থগিত রয়েছে নির্বাচন। তাই এখন থেকে সংগঠনকে ঢেলে সাজাতে চাইছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তাই এই সাংগঠনিক বৈঠক। আবার অনেকে তৃণমূল কংগ্রেসে ফিরতে চাইছেন। যাঁরা নির্বাচনের আগে গেরুয়া শিবিরে গিয়েছিলেন। সেই তালিকাটাও দীর্ঘ হচ্ছে। তা নিয়েও আলোচনা হবে। তার উপর রয়েছে রাজ্যের উপনির্বাচন। রাজ্যের ৬টি কেন্দ্রের উপনির্বাচন হওয়ার কথা আগামী ৬ মাসের মধ্যে। তার মধ্যে একটিতে প্রার্থী হবেন মমতা নিজেই। তাই আলোচনা হবে সেগুলি নিয়েও।

বন্ধ করুন