বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > গাড়ি দুর্ঘটনায় অনুব্রতর দেহরক্ষীর মেয়ের মৃত্যুর CBI তদন্ত চান অনুপম হাজরা
দুর্ঘটনার পর দুমড়ে মুচড়ে যাওয়া গাড়িটি।

গাড়ি দুর্ঘটনায় অনুব্রতর দেহরক্ষীর মেয়ের মৃত্যুর CBI তদন্ত চান অনুপম হাজরা

  • পালটা তৃণমূল নেতা চন্দ্রনাথ সিংহ বলেন, ‘একটি দুর্ঘটনায় একজনের মেয়ে মারা গিয়েছে। বাবার কাছে এটা খুব কষ্টের ব্যাপার। কিন্তু বিজেপি এর মধ্যেও রাজনীতি দেখছে। এরা লঘু - গুরু মানে না। সব ব্যাপারেই এদের সিবিআিই চাই।

গাড়ি দুর্ঘটনায় অনুব্রত মণ্ডলের দেহরক্ষী সাইগল হোসেনের ছোট মেয়ের মৃত্যুতে নাশকতার গন্ধ পাচ্ছেন বিজেপি নেতা অনুপম হাজরা। বুধবার সকালে এই ঘটনার খবর প্রকাশ্যে আসতে ফেসবুকে পোস্টে সেকথা জানিয়েছেন তিনি। সঙ্গে সংবাদমাধ্যমকে তিনি জানিয়েছেন, প্রধানমন্ত্রীর কাছে এই ঘটনার সিবিআই তদন্ত দাবি করবেন তিনি।

এদিন অনুুপম বলেন, ‘অনুব্রত মণ্ডলের সব থেকে কাছের দেহরক্ষী সাইগল হোসেন। ওর কাঁধে হাত রেখে অনুব্রত হাঁটাচলা করেন। সিবিআই যখন অনুব্রতকে নিয়ে টানাটানি করছে তখন এই দুর্ঘটনা সন্দেহ জাগায়। সাইগল অনুব্রতর সঙ্গে সর্বক্ষণ থাকেন। ওনার অনেক গোপন কথা জানেন তিনি। তাই এই দুর্ঘটনার সিবিআই তদন্তের দাবি জানিয়ে প্রধানমন্ত্রীকে আমি চিঠি দেব।’

পালটা তৃণমূল নেতা চন্দ্রনাথ সিংহ বলেন, ‘একটি দুর্ঘটনায় একজনের মেয়ে মারা গিয়েছে। বাবার কাছে এটা খুব কষ্টের ব্যাপার। কিন্তু বিজেপি এর মধ্যেও রাজনীতি দেখছে। এরা লঘু - গুরু মানে না। সব ব্যাপারেই এদের সিবিআিই চাই। এই নিয়ে যত কম বলা যায় তত ভালো।’

মঙ্গলবার রাতে সপরিবারে কলকাতা থেকে বোলপুর ফিরছিলেন সায়গল। একটি গাড়িতে ছিলেন তাঁর ছোট মেয়ে ও এক বন্ধু। অন্য গাড়িতে বাকিদের নিয়ে ছিলেন সায়গল। বোলপুরের কিছু আগে ইলামবাজারের জঙ্গলে একটি ডাম্পারের সঙ্গে সায়গলের ছোট মেয়ের গাড়ির মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় আরোহীদের। গুরুতর আহত অবস্থায় হাসপাতালে ভর্তি চালক। ডাম্পার চালক পলাতক।

অনুপমের ইঙ্গিত, এই দুর্ঘটনার পিছনে নাশকতা রয়েছে। সায়গল হোসেনকে খুন করার উদ্দেশ্য ছিল চালকের। কিন্তু নিশানা চুক

হয়ে মৃত্যু হয়েছে তাঁর মেয়ের।

 

 

বন্ধ করুন