বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > CID: আয় বহির্ভূত মামলায় IPS দেবাশিস ধর ঘনিষ্ঠ কসবার ব্যবসায়ীর বাড়ি সিল করল সিআইডি
কসবায় হানা সিআইডির। প্রতীকী ছবি

CID: আয় বহির্ভূত মামলায় IPS দেবাশিস ধর ঘনিষ্ঠ কসবার ব্যবসায়ীর বাড়ি সিল করল সিআইডি

  • সিআইডি সূত্রে জানা গিয়েছে, ব্যারাকপুরের আয় বহির্ভূত মামলায় সল্টলেক, কসবা-সহ মোট পাঁচটি জায়গায় সিআইডি গোয়েন্দারা তল্লাশি চালান। যার মধ্যে রয়েছে আইপিএস অফিসার দেবাশিস ধরের বাড়ি। তার সল্টলেকের আবাসনে তল্লাশি চালান গোয়েন্দারা।

আয় বহির্ভূত মামলার তদন্তে তৎপর রাজ্যের গোয়েন্দা সংস্থা সিআইডি। এবার সিআইডির নজরে আইপিএস অফিসার দেবাশিস ধর ঘনিষ্ঠ কসবার এক ব্যবসায়ী। গতকাল ওই ব্যবসায়ীর কসবার বাড়িতে হানা দিয়েছিলেন সিআইডির আধিকারিকরা। তবে বাড়িতে কেউ না থাকায় আজ ফের সেখানে যান সিআইডির গোয়েন্দারা। আজও, বাড়িতে কাউকে না পাওয়ায় নোটিস দিয়ে বাড়িটি সিল করে দিলেন গোয়েন্দারা। ব্যারাকপুরে দায়ের হওয়া ওই আয় বহির্ভূত মামলায় অভিযুক্ত ব্যবসায়ীর নাম সুদীপ্ত রায় চৌধুরী।

সিআইডি সূত্রে জানা গিয়েছে, ব্যারাকপুরের আয় বহির্ভূত মামলায় সল্টলেক, কসবা-সহ মোট পাঁচটি জায়গায় সিআইডি গোয়েন্দারা তল্লাশি চালান। যার মধ্যে রয়েছে আইপিএস অফিসার দেবাশিস ধরের বাড়ি। তার সল্টলেকের আবাসনে তল্লাশি চালান গোয়েন্দারা। তল্লাশি শেষে দেবাশিস বাবু জানান, তিনি সব রকমভাবে গোয়েন্দাদের সাহায্য করেছেন। সবরকমের তথ্য তুলে দিয়েছেন। তার আয় বহির্ভূত সম্পত্তি নেই বলে দাবি করেছেন।

আইপিএস দেবাশিসের সঙ্গে ওই ব্যবসায়ী সুদীপ্তর যোগসূত্র রয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছিল। একুশের বিধানসভা নির্বাচনে শীতলকুচিতে কেন্দ্রীয় বাহিনীর গুলি চালানোর ঘটনায় তদন্ত নামে সিআইডি। ঘটনার সময় কোচবিহারের পুলিশ সুপার পদে কর্মরত ছিলেন দেবাশিস ধর। সেই ঘটনার তদন্তে নেমে দেবাশিস ধরকে জিজ্ঞাসাবাদ করেছিলেন সিআইডির গোয়েন্দারা। তার মোবাইল ফোন বাজেয়াপ্ত করে বেশ কিছু তথ্য পেয়েছিল সিআইডি। সেই সূত্র ধরেই ব্যারাকপুরের আয় বহির্ভূত মামলায় তদন্ত কিছুটা এগোয়। তবে সুদীপ্ত ওই আইপিএসের ঘনিষ্ঠ বলে অভিযোগ উঠলেও তা অস্বীকার করেছেন দেবাশিস বাবু। তিনি স্পষ্ট জানিয়ে দিয়েছেন তার সঙ্গে সুদীপ্তর কোনও যোগসূত্র নেই।

বন্ধ করুন