সদ্যোজাতকে কোলে মা। সোমবার ভোর রাতে নেতাজি সুভাষ চন্দ্র বসু আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে
সদ্যোজাতকে কোলে মা। সোমবার ভোর রাতে নেতাজি সুভাষ চন্দ্র বসু আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে

গভীর রাতে কলকাতায় আস্ত একটা জাম্বো জেটকে জরুরি অবতরণ করাল এক খুদে

  • ভারতীয় সময় রাত ২.৩০ মিনিট নাগাদ প্রথম কলকাতা বিমানবন্দরের এয়ার ট্রাফিক কন্ট্রোলারকে জরুরি অবতরণের আবেদন পাঠান QTR830-র ক্যাপ্টেন।

কাতারের রাজধানী দোহা থেকে ব্যাঙ্ককগামী বিমানে সন্তান প্রসব করলেন এক মহিলা। মা ও ছানাকে হাসপাতালে নিয়ে যেতে দমদম বিমানবন্দরে জরুরি অবতরণ করল বিমানটি। সোমবার গভীর রাতে তাদের হাসপাতালে ভর্তি করল বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষ।

সময়সূচি মেনে সোমবার দোহা থেকে থাইল্যান্ডের রাজধানী ব্যাঙ্ককের উদ্দেশ্যে উড়েছিল কাতার এয়ারওয়েজের উড়ান QTR830. নির্দিষ্ট পথ ধরে বিমান নিরাপদেই এগোচ্ছিল গন্তব্যের দিকে। বোয়িং ৭৭৭ বিমানটিতে মোট ৩৫২ জন যাত্রী ছিলেন। ভারতীয় সময় রাত ২.৩০ মিনিট নাগাদ প্রথম কলকাতা বিমানবন্দরের এয়ার ট্রাফিক কন্ট্রোলারকে জরুরি অবতরণের আবেদন পাঠান QTR830-র ক্যাপ্টেন। তখনও কলকাতা থেকে প্রায় ৪০ মিনিট দূরে বিমানটি।

নেতাজি সুভাষ চন্দ্র বসু আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের নির্দেশক কৌশিক ভট্টাচার্য বলেন, ‘ক্যাপ্টেন আমাদের মেডিক্যাল এমারজেন্সির কথা জানিয়েছিলেন। সঙ্গে সঙ্গে তা মঞ্জুর করে বিমানটিকে অবতরণ করানোর প্রস্তুতি নেওয়া তৈরি। তৈরি রাখা হয় অ্যাম্বুল্যান্স। রাত ৩.১০ মিনিটে বিমানটি কলকাতা বিমানবন্দরের রানওয়ে 01R ছোঁয়। ততক্ষণে বিমানেই সন্তান প্রসব করেছেন ওই থাই মহিলা। তাঁকে প্রসবে সাহায্য করেছেন বিমানসেবিকারা।’

অভিবাসন প্রক্রিয়া মিটিয়ে ভোর ৪.২৫ মিনিটে মা ও সন্তানকে একটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। ভোর ৫.৫০ মিনিটে কলকাতা ছেড়ে ব্যাঙ্ককের উদ্দেশ্যে উড়ে যায় বিমানটি। হাসপাতাল সূত্রের খবর, মা ও সন্তান সুস্থ রয়েছে।



বন্ধ করুন