বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > Santanu Sen: ক্ষমা না চাইলে মানহানি মামলা, মেয়ের নিট পাশ নিয়ে সুকান্তকে আইনি নোটিশ শান্তনুর

Santanu Sen: ক্ষমা না চাইলে মানহানি মামলা, মেয়ের নিট পাশ নিয়ে সুকান্তকে আইনি নোটিশ শান্তনুর

শান্তনু সেন এবং সুকান্ত মজুমদার।

বিজেপির রাজ্য সভাপতির টুইটের পরেই মেয়ের মার্কশিটের জেরক্স দিয়ে আইনি ব্যবস্থা নেওয়ার হুঁশিয়ারি দিয়েছিল শান্তনু সেন। তিনি সাংবাদিক সম্মেলনে মেয়ের নিট পাশ সার্টিফিকেট নিয়ে সুকান্তকে কড়া জবাব দেন। তিনি বলেছিলেন, ‘প্রতিবছর আমার মেয়ে প্রথম হয়েছে। নিট পাশ করেছেন।’

তৃণমূল সাংসদ শান্তনু সেনের মেয়ে সৌমিলি সেনের এমবিবিএস-এ ভর্তি হওয়া নিয়ে বেশ কয়েকদিন ধরেই বিতর্ক চলছে। বিজেপির রাজ্য সভাপতি সুকান্ত মজুমদার বিরুদ্ধে এনিয়ে আইনি পদক্ষেপ করার হুঁশিয়ারি দিয়েছিলেন শান্তনু সেন। সেই মতোই এবার সুকান্ত মজুমদারকে আইনি নোটিশ পাঠালেন তৃণমূল সাংসদ। শান্তনু সেন স্পষ্ট জানিয়েছেন, নিটে পাশ করে তাঁর মেয়ে এমবিবিএস-এ ভর্তি হয়েছিলেন। ফলে মেয়ের নামে কুৎসা ছড়ানোয় নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে এ নিয়ে ক্ষমা না চাইলে তিনি সুকান্ত মজুমদারের বিরুদ্ধে মানহানি মামলা করবেন।

সুকান্ত মজুমদার গত রবিবার টুইটারে একটি পোস্টে শান্তনু সেন কন্যার কথা উল্লেখ করে লিখেছিলেন, ‘নিট পরীক্ষায় সৌমিলি সেন পাশ না করা সত্ত্বেও এমবিবিএসে ভর্তি হয়েছেন। এমবিবিএসে ভর্তি ফর্মে তিনি তাঁর বাবার আয় তিন লক্ষ টাকা দেখিয়েছেন। অথচ ২০১৬-১৭ সালের হলফনামায় শান্তনু সেনের আয় ছিল ৭ লক্ষ টাকা। তার সঙ্গে সাংসদদের ভাতা রয়েছে।’ কেন এই ধরনের অমিল? তা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছিলেন সুকান্ত মজুমদার।

বিজেপির রাজ্য সভাপতির টুইটের পরেই মেয়ের মার্কশিটের জেরক্স দিয়ে আইনি ব্যবস্থা নেওয়ার হুঁশিয়ারি দিয়েছিল শান্তনু সেন। তিনি সাংবাদিক সম্মেলনে মেয়ের নিট পাশ সার্টিফিকেট নিয়ে সুকান্তকে কড়া জবাব দেন। তিনি বলেছিলেন, ‘প্রতিবছর আমার মেয়ে প্রথম হয়েছে। নিট পাশ করেছেন।’ তিনি আরও মনে করিয়ে দেন, নিট পাশ না করে কেউ ডাক্তারি পড়তে পারে না। এর পাল্টা সোমবার সুকান্ত মজুমদার টুইটারে সৌমিলি সেনের নিট পরীক্ষার রেজাল্টের ছবি তুলে ধরেন। তাতে উল্লেখ করেন নিটে সৌমিলির ব়্যাঙ্ক ছিল ১ লক্ষ ২১ ৪৭৩। তিনি দাবি করেছিলেন, সুবর্ণ বণিক সমাজ কোটায় মেয়েকে ভর্তি করিয়েছেন তৃণমূল সাংসদ।

অভিযোগের পাল্টা দিয়েছেন তৃণমূল সাংসদও। তিনি টুইট করে বিজেপির বেটি বাঁচাও বেটি পড়াও, মহিলা ক্ষমতায়ন প্রভৃতি নিয়ে সুকান্তকে কটাক্ষ করেন শান্তনু। আইনি পদক্ষেপ করার হুঁশিয়ারি দেন। এরপর মঙ্গলবার সুকান্তকে আইনি নোটিশ পাঠালেন শান্তনু।

বন্ধ করুন