বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > বিধানসভায় বিধায়ক পদে ইস্তফা দিলেন তৃণমূল নেতা তাপস রায়, যোগ দেবেন বিজেপিতে?‌

বিধানসভায় বিধায়ক পদে ইস্তফা দিলেন তৃণমূল নেতা তাপস রায়, যোগ দেবেন বিজেপিতে?‌

বিধায়ক তাপস রায়।

কলকাতা উত্তর লোকসভা কেন্দ্রে সুদীপ বন্দ্যোপাধ্যায়কে সংসদের টিকিট দেওয়ার বিরোধিতা করে আসরে নামেন তাপস। তার পর থেকেই তাঁর সম্পর্কে দলের ভিতরে–বাইরে গুঞ্জন শোনা যাচ্ছিল দলত্যাগ নিয়ে। তাপস আজ সাংবাদিকদের সামনে দাবি করেন, ওরা যখন আমাকে বোঝাতে এসেছিল, তার মধ্যেই সুব্রত বক্সি শোকজ নোটিশ পাঠিয়েছেন কুণালকে।

পদত্যাগ করতেই বিধানসভায় গেলেন তৃণমূল বিধায়ক তাপস রায়। এটাই এখন বড় খবর রাজ্য–রাজনীতিতে। দলের দুর্নীতি এবং সন্দেশখালির ঘটনার পর থেকে মুখ দেখাতে পারছেন না তৃণমূল কংগ্রেসের বরাহনগরের বর্ষীয়ান বিধায়ক তাপস রায়। তাই আজ, সোমবার সাংবাদিকদের সামনে একরাশ ক্ষোভ উগড়ে দিলেন তিনি। তাঁর বাড়িতে ইডি অভিযান করার পর দলনেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় খোঁজ নেননি বলে অভিমান জানিয়ে বিধানসভায় গেলেন বরাহনগরের বিধায়ক। তাপস রায় বিধানসভায় পৌঁছে বিধায়ক পদ থেকে ইস্তফা দিলেন। স্পিকার বিমান বন্দ্যোপাধ্যায়ের ঘরে তাঁর হাতে ইস্তফাপত্র দেন তাপস। দল এবং বিধায়ক পদ ছেড়ে দিলেন তাপস রায়।

এদিকে এই পরিস্থিতি যাতে তৈরি না হয় তার জন্যই দূত হিসাবে তাপস রায়ের বাড়িতে পৌঁছে যান ব্রাত্য বসু এবং কুণাল ঘোষ। দীর্ঘ বৈঠকের পর মান ভাঙাতে পারলেন না দুই নেতা। এই বৈঠকের পর সাংবাদিকদের মুখোমুখি হন তাপস। তিনি জানান, দলে অবহেলিত, উপেক্ষিত এবং অসম্মানিত। সুতরাং ব্রাত্য, কুণালের ‘দৌত্য’ যে কাজে লাগেনি সেটা তাঁর বক্তব্যে স্পষ্ট। তাপস রায় বলেন, ‘‌২৪ বছর তৃণমূলের সঙ্গে আমার সম্পর্ক। অথচ ইডি অভিযানের ৫২ দিন পর একবারও মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় আমার খোঁজ নেয়নি। দল পাশে দাঁড়ায়নি। বিধানসভায় মাননীয়া মুখ্যমন্ত্রী শেখ শাহজাহানকে ইডি টার্গেট করেছে বললেন। অথচ আমার বাড়িতে ইডি হানার কথা উল্লেখ করতেই পারতেন। আমি আহত, আঘাতপ্রাপ্ত।’‌

আরও পড়ুন:‌ শিলিগুড়িতে সভা করতে পারেন প্রধানমন্ত্রী, চতুর্থ দফার সমাবেশ নিয়ে জোর গুঞ্জন

অন্যদিকে সাংবাদিকদের নানা কথা বলে কোনওরকমে স্থান ত্যাগ করেন কুণাল ঘোষ। আসতে তাঁরা বুঝতে পেরেছিলেন আর ঠেকানো যাবে না। তাহলে কি বিজেপিতে যোগ দেবেন তাপস রায়?‌ এই প্রশ্নের কোনও উত্তর দেননি বরাহনগরের বিধায়ক। কুণাল ঘোষ আজ বলেন, ‘‌আমি প্রায়ই তাপসদার বাড়িতে আসি। আজও এসেছি। নানা বিষয়ে কথাবার্তা হয়।’‌ তৃণমূল কংগ্রেসের দুই শীর্ষ নেতাই এটাকে নিতান্তই সৌজন্য সাক্ষাৎ বললেও মানভঞ্জনেই তাঁরা এসেছিলেন সেটা স্পষ্ট। আর তাপস রায় বলেন, ‘এত বছরে এই প্রথমবার আমি বিধানসভার বাজেট অধিবেশনে সেভাবে থাকতে পারিনি। আমি মনে করি, যে কোনও কাজে একটা স্বতঃস্ফূর্ত থাকা উচিত। এত বছর ধরে আমি তৃণমূল করছি।’‌

এছাড়া কলকাতা উত্তর লোকসভা কেন্দ্রে সুদীপ বন্দ্যোপাধ্যায়কে সংসদের টিকিট দেওয়ার বিরোধিতা করে আসরে নামেন তাপস রায়। তার পর থেকেই তাঁর সম্পর্কে দলের ভিতরে–বাইরে গুঞ্জন শোনা যাচ্ছিল দলত্যাগ নিয়ে। তাপস আজ সাংবাদিকদের সামনে দাবি করেন, ‘‌ওরা যখন আমাকে বোঝাতে এসেছিল, তার মধ্যেই সুব্রত বক্সি শোকজ নোটিশ পাঠিয়েছেন কুণালকে। কুণাল ও ব্রাত্য দু’‌জনেই আমার ভাইয়ের মতো। ওরা আমার সঙ্গে কথা বলতে এসেছিল। মাঝেমধ্যেই আসে। রাজনীতিতে আমার সততা কারও অজানা নয়। নিজের দলের লোকই যদি আমার বিরুদ্ধে চলে যায়, সেটা দুর্ভাগ্যের। আমার বাড়িতে একটা সাজানো ইডি অভিযান হল।’‌ প্রবীণ এই রাজনীতিক বিজেপিতে যোগ দিতে পারেন বলে সূত্রের খবর।

বাংলার মুখ খবর

Latest IPL News

বিশ্বকাপ ফাইনালে কীভাবে আউট হয়েছিলেন, গম্ভীরকে দেখালেন বিরাট? ফের তাজা হল ক্ষত ডেথ ওভারে নাইট বোলারদের রান দেওয়ার রোগ সারাতে, কোচের দাওয়াই ‘স্পট বোলিং’ কীভাবে বড় স্কোর তুলছে SRH? কামিন্সদের সাফল্যের কৌশল ফাঁস করলেন ট্র্যাভিস হেড রোহিত বা বোর্ড নয়, ইম্প্যাক্ট প্লেয়ার থাকবে কিনা,ঠিক করুক দর্শকরাই, মত পন্টিংয়ের IPL 2024: রোহিতের জন্য চিৎকার করছেন PBKS ক্যাপ্টেন! জেনে নিন ঘটনাটা আসলে কী? কেন উপরের দিকে ব্যাটিং করছেন না ধোনি! ফ্লেমিং-এর উত্তরে মন ভাঙবে মাহি ভক্তদের ‘বউও বলেনি যে আমার হাসিটা দারুণ’...কার কথায় একেবারে গলে গেলেন KKR মেন্টর গম্ভীর? ধোনি ভাই পাত্তা দিতে বারণ করেছে, সমালোচকদের কথা কানেই তোলেন না পন্ত! আশা করি বিশ্বকাপের দলে নির্বাচকরা ওকে ভুলে যাবে না, KKR তারকার হয়ে সওয়াল সঞ্জয়ের পেস বোলিংয়ের প্রফেসর:- বুমরাহর ভূয়সি প্রশংসা প্রাক্তন ক্যারিবিয়ান তারকার

Copyright © 2024 HT Digital Streams Limited. All RightsReserved.