বাড়ি > বাংলার মুখ > কলকাতা > Covid-19 চিকিৎসায় রাজ্যের জারি নতুন নির্দেশিকায় বাদ হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন
কলকাতায় করোনার অন্যতম পরীক্ষাকেন্দ্র NICED (PTI)
কলকাতায় করোনার অন্যতম পরীক্ষাকেন্দ্র NICED (PTI)

Covid-19 চিকিৎসায় রাজ্যের জারি নতুন নির্দেশিকায় বাদ হাইড্রক্সিক্লোরোকুইন

  • নির্দেশিকায় বলা হয়েছে, করোনাভাইরাস বিনাশে হাইড্রক্সিক্লোরোকুইনের তেমন কোনও ভূমিকা নেই। কয়েকটি বিশেষ ক্ষেত্রে এই ওষুধ কাজ করে।

করোনা চিকিৎসায় হাইড্রক্সিক্লোরোকুইনকে প্রায় বাতিলই করে দিল পশ্চিমবঙ্গ সরকার। বদলে অতি সাবধানে রেমি়ডেসিভির ব্যবহারের নির্দেশ দিল তারা। আনুসাঙ্গিক উপসর্গ রয়েছে এমন করোনা রোগীর চিকিৎসায় রাজ্য স্বাস্থ্য দফতরের জারি নয়া নির্দেশিকায় এমনটাই বলা হয়েছে। ইতিমধ্যে পশ্চিমবঙ্গের সমস্ত সরকারি ও বেসরকারি করোনা চিকিৎসাকেন্দ্রে পৌঁছেছে এই নির্দেশিকা। 

করোনা চিকিৎসায় ওষুধের ব্যবহার নিয়ে জারি ওই নির্দেশিকা নিয়ে স্বাস্থ্য দফতরের তরফে জানানো হয়েছে, সব জায়গায় রোগীরা যাতে সমান চিকিৎসা পান তাই এই নির্দেশিকা জারি করা হয়েছে। 

নির্দেশিকায় বলা হয়েছে, করোনাভাইরাস বিনাশে হাইড্রক্সিক্লোরোকুইনের তেমন কোনও ভূমিকা নেই। কয়েকটি বিশেষ ক্ষেত্রে এই ওষুধ কাজ করে। তবে তারও অনেক সীমাবদ্ধতা রয়েছে। 

জরুরি পরিস্থিতিতে রেমিডেসিভির ব্যবহার করা যেতে পারে। তবে দেখতে হবে রোগীর রক্তাল্পতা রয়েছে কি না, কিডনি ও যকৃত যথাযথভাবে কাজ করছে কি না। যে সমস্ত রোগীদের মাঝারি উপসর্গ রয়েছে কিন্তু তাদের অক্সিজেনের চাহিদা ক্রমশ বাড়ছে তাদের ক্ষেত্রে মিথাইলপ্রেডনিসোলোন ও ডেক্সামিথাসোন ভর্তির ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে ব্যবহার করতে হবে। 

এছাড়া মাঝারি উপসর্গ ও অক্সিজেনের এমন রোগীদের ক্ষেত্রে স্টেরয়েডের জায়গায় প্লাজমা দেওয়া যেতে পারে বলে জানানো হয়েছে নির্দেশিকায়। 

শুধুমাত্র ড্রাগ কন্ট্রোল ও ICMR অনুমোদিত সংস্থাই প্লাজমা প্রক্রিয়াকরণ করতে পারবে বলে জানিয়েছে স্বাস্থ্য দফতর। 

 

বন্ধ করুন