বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > করোনা নিয়ে মমতার নিন্দেয় খচে লাল দেবলীনা, আমজনতাকে বললেন ‘ইঙ্গ মায়ের বঙ্গ সন্তান’
দেবলীনা কুমার। (ছবি সৌজন্যে- টুইটার)
দেবলীনা কুমার। (ছবি সৌজন্যে- টুইটার)

করোনা নিয়ে মমতার নিন্দেয় খচে লাল দেবলীনা, আমজনতাকে বললেন ‘ইঙ্গ মায়ের বঙ্গ সন্তান’

  • গতকাল থেকে শাসক দলকে নিয়ে করা সোশ্যাল মিডিয়ার সমালোচনা পোস্টে রেগে গিয়েছেন উত্তম কুমারের নাতবউ!

রাজ্যের করোনা পরিস্থিতি হাতের বাইরে বেরিয়ে যাওয়ায় ২ ডানুয়ারি আংশিক লকডাউনের কথা ঘোষণা করেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। আপাতত দিন কয়েক বন্ধ রাখা হয়েছে জিম, পার্লার, সুইমিং পুল। রাত ১০ টার পর বন্ধ বার, সিনেমা হল। বিকেল ৭টার পর চলবে না ট্রেন। ফের বন্ধ স্কুল আর কলেজ…

এসব সামনে আসতেই সোশ্যাল মিডিয়ায় শুরু হয়েছে জোর সমালোচনা। আপাতত রাজ্যে করোনা ছড়ানোয় বেশিরভাগ মানুষই দায়ি করেছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে। কেন ২৫ ডিসেম্বর আর নিউ ইয়ারের জমায়েত বন্ধ করলেন না মুখ্যমন্ত্রী তা নিয়ে প্রশ্ন উঠছে। যেখানে ৫০ শতাংশ কর্মী নিয়ে অফিস চলবে সেখানে সাতটার পর ট্রেন বন্ধ হলে কর্মীরা বাড়ি ফিরবে কী করে তা নিয়েও প্রশ্ন উঠেছে। 

তবে, এইসব বিতর্কিত পোস্টই একেবারে পছন্দ হয়নি দেবলীনা কুমারের। উত্তম কুমারের নাতবউ-র বাবা দেবাশিস কুমার শাসক দলের বিধায়ক, পুরপিতা। বিধানসভা ভোটের আগেও তৃণমূলের হয়ে গলা ফাটিয়েছিলেন। এমনকী, শাসক দলকে কেউ কটাক্ষ করলেও সোশ্যাল মিডিয়ায় ক্ষোভ উগড়ে দেন তিনি। এবারেও তেমনই করলেন। 

দেবলীনা ফেসবুকে লিখলেন, ‘‘কিছু অদ্ভুত মানুষ আছেন ফেসবুকে। সব কিছুতেই তাঁরা অসুখী! তাঁদের এমন ভাব যে তাঁরা অতি বিজ্ঞ! আর আমাদের সরকার অজ্ঞ। যদিও তাঁরা ভোটের দিন কষ্ট করে রাস্তায় বেরোন না। হাল্কাফুল্কা ‘চিল’ করেন আর কী।’’ মমতার হয়ে গলা ফাটিয়ে দেবলীনা বলেন, ‘মুখ্যমন্ত্রী ম্যাডামও আপনাদের মতো প্রথমবার কোভিড-এর মোকাবিলা করছেন। ভুল হচ্ছে। কিন্তু মুখ্যমন্ত্রী লড়ে যাচ্ছেন।’

দেবলীনা এরপর বলেন, আমাদের রাজ্যের মানুষদের স্বভাব বিদেশকে দেখে বাহ বাহ করা আর নিজেদের সরকারের সমালোচনা করা। ফেসবুকে লেখেন, ‘আসলে, বিদেশে যা-ই হোক সবই বাহ বাহ! আর স্বদেশে যা-ই হোক সবই হাঃ হাঃ’। আর তারপরই লেখেন, ‘ভালো থাকুন ইঙ্গ মায়ের বঙ্গ সন্তানরা’!

বন্ধ করুন