বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > Jaane Jaan movie review: ‘জানে জা’ জুড়ে চলল ইদুঁর-বিড়াল খেলা, করিনা দারুণ, চোখ দিয়েই বাজি মারলেন জয়দীপ

Jaane Jaan movie review: ‘জানে জা’ জুড়ে চলল ইদুঁর-বিড়াল খেলা, করিনা দারুণ, চোখ দিয়েই বাজি মারলেন জয়দীপ

বিজয় বর্মা, করিনা কাপুর, জয়দীপ আহলাওয়াত

এই 'জানে জা' ছবির মধ্যে একটি গোলক ধাঁধা রয়েছে, রয়েছে ‘ইদুঁর-বিড়াল খেলা’। ছবিতে পুলিশ আধিকারিক এবং সন্দেহভাজন দুজনেই নিজেদের মতো করে এই অপরাধের পুনর্গঠন করেন। তাই দর্শকের পক্ষে বোঝা মুশকিল যে সত্যিটা আসলে কী? আর কোনটা বানানো! ঠিক কী ঘটেছে?

ছবির নাম 'জানে জা'। পরিচালক সুজয় ঘোষ। কেন্দ্রীয় ভূমিকায় করিনা কাপুর খান, এটাই তাঁর OTT ডেবিউ। তাই 'জানে জা' ছবি ঘিরে বাড়তি আগ্রহ থাকবেই। আর সুজয় ঘোষের নাম এলে প্রথমেই যে ছবির কথা মনে পড়ে তা হল ‘কাহানি’। ‘কাহানি’র পরবর্তী সময়ে সুজয় ঘোষ যে ছবিই বানান না কেন তুলনা আসবেই…। এবার আসা যাক, 'জানে জা'-র কথায়। যেটা কিনা জাপানি লেখক কেইগো হিগাশিনোর লেখা উপন্যাস ‘দ্য ডিভোশন অফ সাসপেক্ট এক্স’ অবলম্বনে তৈরি। উপন্যাস এবং সিনেমার গল্প অবর্তিত হবে এক গোয়েন্দা এবং এক সন্দেহভাজনের মধ্যে। ছবি দেখলেই আপনার যেকথা মাথায় আসবে সেটা হল এ তো ‘ইদুঁর-বিড়াল খেলা’ চলছে।

গল্পটা ঠিক কেমন?

ছবির প্রেক্ষাপট এরাজ্য়ের কালিম্পং-। ছবিতে রয়েছেন ‘সিঙ্গল মাদার’ মায়া ডিসুজা (কারিনা কাপুর)। তিনি সংসার চালানো এবং মেয়ে তাঁর স্বামী অজিত মাত্রেকে (সৌরভ সচদেব) পছন্দ করে না। মেয়ে তারার জন্মের আগেই তাঁরা আলাদা হয়ে যান। গল্পে মায়ার এক প্রতিবেশীও রয়েছেন নরেন ব্যাস (জয়দীপ আহলওয়াত) যিনি কিনা হাইস্কুলের গণিতের শিক্ষক, মায়াকে তিনি ভালোবাসেন, যদিও সেকথা তিনি গোপনই রেখেছেন।

এরই মাঝে মায়ার স্বামী অজিত মাত্রে কালিম্পং-এ মায়ার বাড়িতে যান। মায়া ভাবেন অজিত টাকার জন্য এসেছে, যদিও অজিতের অন্য পরিকল্পনা আছে। মায়া তাই অজিতকে খুন করে এবং তাদের মেয়ে তারা মাকে সেই অপরাধে সাহায্য করে। এদিকে এই খুনের ঘটনা ধামাচাপা দিতে নরেন মায়াকে সাহায্য করেন। এররই মাঝে এন্ট্রি হয় পুলিশ ইন্সপেক্টর করণ আনন্দের (বিজয় বর্মা)। এখন প্রশ্ন ঠিক কী কারণে মায়া তাঁর স্বামীকে খুন করে? মায়া, তারা এবং নরেন কি পুলিশের হাতে ধরা পড়বে? রয়েছে আরও অনেক প্রশ্ন। তবে সেসব বলে দিনে এই থ্রিলারের আসল মজাটাই মাটি হয়ে যাবে। এর জন্য জানে জা দেখাটাই শ্রেয়।

আরও পড়ুন-‘টাবুতে মুগ্ধ, প্রেমে পড়ে গিয়েছি’, অকপট বাঁধন, হয়েছে উপহার দেওয়া-নেওয়া

আরও পড়ুন-রানের সঙ্গে ইতালিতে কোয়েল মল্লিক, ছেলে কবীর কোথায়? প্রশ্ন নেটপাড়ার

আরও পড়ুন-উস্কোখুস্কো চুল, একমুখ দাঁড়ি, সারা মুখে দগদগে ক্ষত! এ কেমন চেহারা দেবের…

বিশ্লেষণ

এই 'জানে জা' ছবির মধ্যে একটি গোলক ধাঁধা রয়েছে, রয়েছে ‘ইদুঁর-বিড়াল খেলা’। ছবিতে পুলিশ আধিকারিক এবং সন্দেহভাজন দুজনেই নিজেদের মতো করে এই অপরাধের পুনর্গঠন করেন। তাই দর্শকের পক্ষে বোঝা মুশকিল যে সত্যিটা আসলে কী? আর কোনটা বানানো! ঠিক কী ঘটেছে?

অভিনয়

এই চরিত্রগুলির মধ্যে নরেন ব্যাস, জয়দীপ আহলওয়াতের চরিত্রটি বেশ আকর্ষণীয়। যিনি কিনা কারোর সঙ্গে খুব বেশি কথা বলে না। উনি নিজের মধ্যেই থাকেন। তবে কম ডায়ালগের মধ্যেও জয়দীপ আহলওয়াতের অসাধারণ অভিনয় চরিত্রটিকে আকর্ষণীয় করে তুলেছে। চোখ দিয়েই অর্ধেক অভিনয়টা করে ফেলেছেন জয়দীপ। জানি না, জয়দীপ ছাড়া আর কে এই চরিত্রটি এতটা অসাধারণভাবে ফুটিয়ে তুলতে পারতেন কিনা। এরপরই আস বিজয় বর্মার কথায়। যিনি কিনা রহস্যের তদন্ত করতে এসে নিজেই বহু জটিলতায় জড়িয়ে যান। বিজয় বর্মা চরিত্রটির মধ্যে বেশি স্তর (লেয়ার্স) নেই। তবুও দক্ষ অভিনেতা হিসাবে তিনি নিজের কাজটা বেশ ভালোভাবেই করেছেন। এই থ্রিলার মূলত যে চরিত্র দুটির উপর আবর্তিত হয়েছে সেটা হল মায়া এবং নরেন। এখানে তাই নরেন ও মায়ার কথোপকথন ভীষণই ইন্টারেস্টিং। কারণ, এই রহস্যে তাঁরাই সবথেকে বড় ভূমিকা পালন করেছেন। নরেনের কথা তো হল, এবার আসি মায়ার কথায়। পরিচালক এখানে মায়ার চরিত্রটি খুব সুন্দরভাবে তুলে ধরেছেন। তিনি এখানে অপরাধী হলেও অসহায়তার কারণেই অপরাধটা করে বসেছেন। আর করিনা তাঁর নিজের চরিত্রের দারুণ দক্ষতায় অভিনয় করেছেন। করিনার অভিনয় সত্যিই মুগ্ধ করার মতোই।

পরিচালনা ও চিত্রনাট্য়, সংলাগ এবং এডিটিং 

'জানে জা' ছবির প্রেক্ষাপট, দৃশ্যায়ন, গল্প সবকিছু সুন্দরভাবে উপস্থাপন করেছেন পরিচালক সুজয় ঘোষ। তিনি ভালো পরচালক তা নিয়ে কোনও প্রশ্ন নেই। এখানে 'জানে জা' গানটিও খুব সুন্দরভাবে ব্যবহার করেছেন পরিচালক সুজয় ঘোষ। তবে চিত্রনাট্যে কিছুটা খামতি রয়েছে। ডায়ালগগুলি বিশেষ আকর্ষণীয় নয়, এডিটিংও ঠিক আপ টু দ্য মার্ক নয়। ছবি শেষে এটি দেখার জন্য আফসোস হবে না ঠিকই, তবে এটা মনে হবে এই গল্পের চিত্রনাট্য ভালো করে লেখা হলে ছবিটা আরও ভালো হত। আপনি যদি মূল উপন্যাস নাও পড়ে থাকেন, বা এই উপন্যাস অবলম্বনে আর অন্যকোনও ছবি নাও দেখে থাকেন, তাহলেও গল্পের শেষটা আপনি আন্দাজ করতেই পারবেন, যেটা কোনও থ্রিলারের জন্য প্রযোজ্য় নয়। ছবির প্রেক্ষাপট, অপরাধী-পুলিশের হাইড অ্যান্ড সিক খেলা মন্দ লাগেনি ঠিকই, কবে মনে হয়েছে চিত্রনাট্যের বাঁধন আরও 'টাইট' হতে পারত। ছবির দৃশ্যায়নে যেন বড় বেশি অন্ধকার (ডার্কনেস) রয়েছে, আলোর বড়ই অভাব মনে হয়েছে। তবে তার পরেও মোটের উপর সুন্দর দৃশ্যায়ন, অভিনেতাদের দারুণ অভিনয়ের পরেও মনে হবে কোথাও একটা যেন খামতি থেকে গিয়েছে।

এই ছবিকে সবমিলিয়ে ৫-এর মধ্যে ৩ দেওয়া যায়।

 

 

 

বায়োস্কোপ খবর

Latest News

শ্লীলতাহানি কাণ্ডে থানায় হাজিরা রাজভবন কর্মীদের, বয়ানে বিস্ফোরক দাবি ৩ জনের ওরাং ওটাংয়ের এত বুদ্ধি! আহত হলে নিজেই চিকিৎসা করে, ডাক্তারও এমন পদ্ধতি জানেন না শিলিগুড়ি রামকৃষ্ণ মিশনে হামলার ৩ দিন পর গ্রেফতার ৫, এখনও অধরা মূল অভিযুক্ত বাংলাদেশের বিরুদ্ধে বিশ্বকাপের আগে প্রস্তুতি ম্যাচ খেলবে ভারত, কখন হবে এই খেলা? ঘূর্ণিঝড়ের সম্ভাবনার মাঝে বাংলাদেশের ওপর ঘূর্ণাবর্ত, হবে অতিভারী বৃষ্টি: IMD জোর করে ভেড়ি দখল রুখতে ‘পলিসি’ আনবে রাজ্য সরকার, বসিরহাটের সভায় জানালেন মমতা আসছে নারদ জয়ন্তী, এই দিনের পুজোর শুভ সময় ও পুজো পদ্ধতি জেনে নিন এখান থেকে 'হেডের আউট দেখে ভারত ভাবছে যে WC ফাইনালে হল না কেন', রবির কথায় হেসে খুন স্টার্ক আগেই বিয়ে করে নিয়েছে শোয়েব! ডিভোর্সের পর ‘নতুন’কে স্বাগত জানালেন সানিয়া মির্জাও কমলা টুপির দৌড় জিততে কোহলির রাস্তা মসৃণ করল KKR, জমে উঠেছে পার্পেল ক্যাপের রেস

Latest IPL News

'হেডের আউট দেখে ভারত ভাবছে যে WC ফাইনালে হল না কেন', রবির কথায় হেসে খুন স্টার্ক প্রত্যেকে নিজেদের দায়িত্ব দারুণ ভাবে পালন করেছে- টিম গেমের স্তুতি শ্রেয়সের মুখে মা এখনও হাসপাতালে, কিন্তু KKR তো আমার পরিবার, তাই দরকারের সময় ফিরে এলাম- গুরবাজ আমাদের সামনে দ্বিতীয় কোয়ালিফায়ার রয়েছে- ঘুরে দাঁড়ানোর মন্ত্র জপছেন কামিন্স দলের কেউ সিনিয়র-জুনিয়র নয়, KKR-কে ফাইনালে তুলতে ১ম দিনেই গুরুমন্ত্র দেন গম্ভীর KKR-এর বোলিংয়ে কুপোকাত SRH, উচ্ছ্বাসে ভাসলেন সুহানা,আব্রামকে জাপটে আদর শাহরুখের রাসেলের দুরন্ত রান-আউট, মাথা নীচু করে সিঁড়িতে বসে রাহুল, 'কেউ হাগ কর', বলল সকলে আগুনে মেজাজে স্টার্ক,পঞ্চম ওভারে পরপর ২ উইকেট সহ পাওয়ার প্লে-তেই নিলেন ৩- ভিডিয়ো হার্দিককে অধিনায়ক করার সিদ্ধান্ত বুমেরাং হয়েছে- MI-এর ব্যর্থতা নিয়ে দাবি হরভজনের দ্বিতীয় বলেই হেডের স্টাম্প গুঁড়িয়ে দিলেন স্টার্ক, DRS নিলে পেতেন আরও ১টি উইকেট

Copyright © 2024 HT Digital Streams Limited. All RightsReserved.