বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > রাজনৈতিক প্রেক্ষাপটে কমলেশ্বরের ‘রক্তপলাশ’, জঙ্গলমহলে ফাঁসবেন শিলাজিৎ, দেবদূতরা
কমলেশ্বরের নতুন ওয়েব সিরিজ ‘রক্তপলাশ’

রাজনৈতিক প্রেক্ষাপটে কমলেশ্বরের ‘রক্তপলাশ’, জঙ্গলমহলে ফাঁসবেন শিলাজিৎ, দেবদূতরা

  • কমলেশ্বরের রাজনৈতিক প্রেক্ষাপটের ওয়েব সিরিজ ‘রক্তপলাশ’।

এক ছক ভাঙা গল্প। রাজনৈতিক ওয়েব সিরিজ পরিচালনায় পরিচালক কমলেশ্বর মুখোপাধ্যায়। নতুন এই ওয়েব সিরিজের নাম ‘রক্তপলাশ’। জঙ্গলমহল ও রাজনৈতিক প্রেক্ষাপটকে আবর্তিত করে এগোবে ওয়েব সিরিজের গল্প। ‘রক্তপলাশ’-এ মুখ্য চরিত্রে অভিনয় করছেন শিলাজিৎ, দেবদূত ঘোষ, অনন্যা সেনগুপ্ত, উৎসব মুখোপাধ্যায়, রোজা পারমিতা দে, অসীম রায় চৌধুরী, শুভজিৎ কর, মৌমিতা পণ্ডিত, দীপঙ্কর, মৌসুমি দালাল, বেবী তামান্না, কোয়েল মিত্র, সুব্রত দাসগুপ্ত ও কমলেশ্বর মুখোপাধ্যায়।

জঙ্গলমহলে অবস্থিত সুরম্য ফক্সহোল রিসোর্টে বেড়াতে আসা সমাজের সাতজন বিশিষ্ট উচ্চমধ্যবিত্ত শ্রেণীর মানুষকে কেন্দ্র করে আবর্তিত হয় ‘রক্তপলাশ’-এর গল্প।

শুরুতে সবাই ভ্রমণবিলাসে মজে গেলেও, নৈশ-আড্ডায় রিসোর্ট মালিকের প্ররোচনায় গল্পের পরতে পরতে সেই বিশিষ্টজনেদের অতীত জীবনের লুকিয়ে থাকা অন্যায় ও অপরাধমূলক কাজকর্মের ইতিহাস।

এরই মধ্যে জঙ্গলে নিছক ছুটি কাটাতে আসা, আপাতভাবে নিষ্পাপ মানুষগুলি হঠাৎ করেই আধাসামরিক বাহিনী ও একদল চরমপন্থীর লড়াইয়ে মাঝে পড়ে। তখনি সভ্য যাপনের শহুরে মুখোশ খুলে গিয়ে তাঁদের ভেতরে থাকা স্বার্থপর চারিত্রিক বৈশিষ্টগুলি ধীরে ধীরে প্রকাশ পায়। সাত ব্যক্তির আভ্যন্তরীণ সাদা-কালোর দ্বন্দগুলো উন্মুক্ত হতে না হতেই তারা রিসোর্টে বন্দি হয়ে পড়েন মুক্তিপনের টোপ হিসেবে।

প্রশ্ন ওঠে একজোট হয়ে সাতজনের বাঁচার লড়াইয়ে সামিল হওয়ার। চরমপন্থীদের দেওয়া ঘণ্টা-চারেক সময়ের মাঝেই প্রশাসনের তরফে নিযুক্ত হন এক সরকারি মধ্যস্থতাকারী। তাঁদের মধ্যে কেই বা করলেন বিশ্বাসঘাতকতা? কী ছিল তাঁদের পুরোনো পাপ? কেনই বা তাঁদের পণবন্দী হতে হলো চরমপন্থীদের হাতে? কিভাবে প্রশাসন পৌঁছবে তাঁদের কাছে? বন্দিরা কি আদৌ চরমপন্থীদের হাত থেকে রেহাই পাবেন? আদিম জঙ্গলের উপদ্রুত অঞ্চলের প্রেক্ষাপটে এই টানটান রোমাঞ্চ ও রহস্যের গল্প ‘রক্তপলাশ’।

ওয়েব সিরিজ সম্পর্কে কথা বলতে গিয়ে পরিচালক তথা অভিনেতা কমলেশ্বর মুখোপাধ্যায় জানিয়েছেন, 'এই সময় দাঁড়িয়ে এক রাজনৈতিক সিরিজ বানানো জরুরি বলে আমার মনে হয়েছে। আমার ধারণা নতুন প্রজন্ম এই ধরনের কাজ দেখতে চায়। 'রক্তপলাশ' বানাতে গিয়ে আমি অনেক কিছু শিখেছি। বিশেষ করে, একসঙ্গে বেশ কিছু ভালো অভিনেতা কাজ করলে, কাজের মান কতটা উন্নত হয়, সেটা বুঝতে পেরেছেি। খুব কঠোর শ্যুটিং শিডিউল ছিল। তবে আমরা একটা পরিবার হয়ে কাজ করেছি। আমার চিত্রগ্রাহক টুবান ও প্রোডাকশন ডিজাইনার তন্ময় ছাড়া এই কাজটা এতো ভালো হতো না। এই সিরিজ বানানো একটু খরচ সাপেক্ষ ছিল। ডার্ক এনার্জি ও ক্লিক পাশে না দাঁড়ালে, এটা সম্ভব ছিল না।' ওটিটি প্লাটফর্ম ক্লিকে শীঘ্রই মুক্তি পাবে এই ওয়েব সিরিজ।

 

বন্ধ করুন