বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > ‘শেরশাহ’ বিক্রম বাত্রার যমজ ভাইয়ের চোখে ভাসছেন সিদ্ধার্থ, সামলাতে পরেননি নিজেকে
ভাই বিক্রমের চরিত্রে সিদ্ধার্থকে দেখে চোখের জল আটকাতে পারেননি বিশাল বাত্রা।

‘শেরশাহ’ বিক্রম বাত্রার যমজ ভাইয়ের চোখে ভাসছেন সিদ্ধার্থ, সামলাতে পরেননি নিজেকে

ভাইয়ের মৃত্যুর পর যে আবেগ ২২ বছর ধরে বয়ে বেরিয়েছিলেন বিশাল বাত্রা, ছবি দেখে তা বের করেছেন। সবার অলক্ষ্যে!

মুক্তির পরেই সকলের মন জয় করে নিয়েছে ‘শেরশাহ’। কার্গিল হিরো শহিদ ক্যাপ্টেন বিক্রম বাত্রার বীরত্বের গল্প মন জয় করেছে সকলের। ঠিক আর পাঁচটা মানুষ ছবি দেখে যতটা খুশি, ততটাই খুশি বিক্রমের পরিবার। সিদ্ধার্থ মলহোত্রার অভিনয়ের প্রশংসার পাশাপাশি তাঁরা ছবির পরিচালকেরও ভূয়সী প্রশংসা করেছেন। বিক্রমের যমজ ভাই বিশাল বাত্রা জানিয়েছেন, সিনেমার প্রয়োজনে হয়তো গল্পের ২-৩টে জায়গায় সামান্য পরবর্তন করা হয়েছে। কিন্তু, তাতে তাঁর ও তাঁর পরিবারের কোনও সমস্যা নেই। নিজের ভিতর একগুচ্ছ আবেগ জমা করেছিলেন ছবি দেখার সময়, যা থেকে বেরোতে তাঁকে নিজের সঙ্গে একান্তে সময় কাটাতে হয়েছে। 

এক সাক্ষাৎকারে বিশাল জানান, ‘ওর ব্যাপারে কথা বলা আমার কাছে সবসময় বড় আবেগের। আজ ২২ বছর ধরে এই আবেগের সঙ্গে দিন কাটাচ্ছি। ওর যমজ ভাই হওয়া কিন্তু একেবারেই সহজ নয়। ও সব থেকে ভালো ভাই, বন্ধু। ওর সঙ্গেই তো বড় হয়েছি। আমার ও আমার পরিবারের কাছে ও গর্ব। আমরা তাই চাই গোটা ভারত ওর কথা জানুক।’

কথা প্রসঙ্গে সিদ্ধার্থেরও প্রশংসা করলেন বিশাল। বলেন, ‘সিদ্ধার্থ মলহোত্রা যেভাবে নিজের সেরাটা দিয়ে আমার ভাইয়ের জীবনকে পরদায় ফুটিয়ে তুলেছে তা অতুলনীয়। আমি তো আমার ভাইকে কোনওদিন ইউনিফর্ম পরে দেখিনি। এবার থেকে হয়তো ভাইয়ের কথা ভাবলে সিদ্ধার্থের মুখটাই ভেসে উঠবে চোখের সামনে। সিদ্ধার্থ সবসময় বলত অভিনয়ের সময় ওর মাথায় ঘুরত আমাদের পরিবারের প্রত্যাশা পূরণ করার কথা। আর সেটা ও ১০০ শতাংশ করেছে।’

বন্ধ করুন