বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > বলি অভিনেতাদের থেকে উরফির দর বেশি, 'রালিয়ার' বিয়ে অভিজ্ঞতা ফাঁস ভাইরাল ভায়ানির
নামী এই চিত্র সাংবাদিক ভাইরাল ভায়ানি মাত্র ২০-২৫ টা পোস্ট প্রায় ১৮০ মিলিয়ন ভিউ পার করে।

বলি অভিনেতাদের থেকে উরফির দর বেশি, 'রালিয়ার' বিয়ে অভিজ্ঞতা ফাঁস ভাইরাল ভায়ানির

  • হাতে ছোট একটা ক্যামেরা নিয়ে এই পেশায় প্রবেশ করেছিলেন ভাইরাল ভায়ানি। কিন্তু ইদানিং তাঁর এতটাই কাজের চাপ, সকালে জিম করা বাদে, নিজের জন্য সময় বের করা পর্যন্ত মুশকিল হয়ে যায় তাঁর।

মুম্বইয়ের রাস্তায় কোনও তারকাকে দেখে যখন ১৮-২০ জন ছবি তোলার জন্য ছুটছে, ইন্ডাস্ট্রির ভাষায় তাঁদের চিত্র সাংবাদিক বা পাপারাৎজো বলে। সেই ছবিই চিত্র সাংবাদিক ভাইরাল ভায়ানি নিজের অফিসে বসে শেয়ার করতেই, লক্ষ লক্ষ মানুষের মুঠোফোনে পৌঁছে যায় এবং প্রচুর ভিউ পায়। নামী এই চিত্র সাংবাদিকের মাত্র ২০-২৫ টা পোস্ট প্রায় ১৮০ মিলিয়ন ভিউ পার করে। 

হাতে ছোট একটা ক্যামেরা নিয়ে এই পেশায় প্রবেশ করেছিলেন ভাইরাল ভায়ানি। কিন্তু ইদানিং তাঁর এতটাই কাজের চাপ, সকালে জিম করা বাদে, নিজের জন্য সময় বের করা পর্যন্ত মুশকিল হয়ে যায় তাঁর। তিনি তার সমস্ত সোশ্যাল মিডিয়া এককভাবে পরিচালনা করেন এবং ছুটি না নেওয়ার বিষয়ে তাঁর কোনও দ্বিধা নেই৷

হিন্দুস্তান টাইমসের প্রতিনিধির সঙ্গে ফোনে কথা বলার সময় চিত্র সাংবাদিক ভাইরাল ভায়ানি সোশ্যাল মিডিয়ার সঙ্গে তাঁর যোগাযোগ এবং মাল্টি-টাস্কিং দক্ষতার কথা নিশ্চিত করেছেন। একই সময় তাঁর হাতে এসে পড়েছে উরফি জাভেদের ছবি। ফোনে কথা বলতে বলতেই একইসঙ্গে উরফির ছবি সম্পাদনা করে নেটমাধ্যমে ছড়িয়ে দিয়েছেন তিনি। 

কাটা-ফাটা পোশাক এবং বোল্ড ফ্য়াশন সেন্সের জন্য নেটমাধ্যমে হামেশা চর্চার থাকেন উরফি। পাপারাৎজোর ক্যামেরা উরফিকে প্রচুর ফলো করে। ভাইরাল ভায়ানির কথায়, ‘উরফি জাভেদের থেকে এই মুহূর্তে বলিউডের যে কোনও অভিনেতার তুলনায় বেশি উপার্জন। এমনকি আমার বোন আমাদের প্রশ্ন করে কেন আমরা তাকে এত অনুসরণ করি। কিন্তু এটাই কাজ করছে।’

ভায়ানির জীবনে এটি একটি সাধারণ দিন। যদি কাছাকাছি বলিউডে কোনও বিগ ফ্যাট ওয়েডিং হয়ে থাকে, তবে সেগুলি নিদ্রাহীন রাত হয়ে থাকে এই চিত্র সাংবাদিকের জন্য। ভায়ানির জানিয়েছেন, ‘কাজের চাপের কারণে তিনজনকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে (সম্প্রতি)। তাঁরা আরাম করার সময় পান না। আমরা প্রতিদিন যুদ্ধে আছি। আমি প্রতিদিন আক্রমণ অনুভব করি। আমরা সবসময় চাপের মধ্যে থাকি’।

যখন অভিনেতা রণবীর কাপুর এবং আলিয়া ভাটের বিয়ের খবর ওয়েবে আসে, তখন ভায়ানির ‘ছেলে’ এবং অন্যান্য প্যাপরা দম্পতির বাসস্থান বাস্তুর সামনে দিনরাত ক্যামেরা তাক করে বসে থাকতেন। পুরো পরিস্থিতি বিবেচনা করে ভায়ানি বিয়েকে ‘ভয়াবহ’ বলে উল্লেখ করেছেন। 

চিত্র সাংবাদিকের মন্তব্য, ‘আমি একমত যে তারা তাদের বড়দের সম্মান করতে চায়, কিন্তু তারা একটি পাঁচ তারকা হোটেলে একই কাজ করতে পারে। আমরা ভালো ছবি পেতাম এবং সবকিছু সুশৃঙ্খল হতো। যখানে আপনার বিয়ের মোট খরচ ৮৩০ কোটি টাকা, এটা করে আপনি কী প্রমাণ করার চেষ্টা করছেন!’

তিনি প্রয়াত অভিনেতা ফিরোজ খানের ছেলে ফারদিন খানের জমকালো বিয়ের কথাও স্মরণ করে বলেছেন, ‘ফিরোজ খানের মতো লোক চাই। ফারদিনের জন্য তিনি যে বিয়ের সংবর্ধনা দিয়েছিলেন এবং সেখানে তিনি আমাদের সঙ্গে যেভাবে আচরণ করেছিলেন... তিনি নিশ্চিত করেছিলেন প্রত্যেকের ছবি পেয়েছে কিনা, তার পুরো পরিবার আমাদের জন্য পোজ দিয়েছে, যেমনটা তারা বিয়ের ফটোগ্রাফারের জন্য দিয়েছিলেন। আমরা প্রায় অতিথিদের মতো একই খাবার পেয়েছি। একে বিয়ে বলে। মন থাকা চাই। এমনকি ক্যাটরিনা (কাইফ, অভিনেতা) এবং ভিকি (কৌশল, অভিনেতা) বিয়ে করেছেন, কিন্তু তারা আমাদের জন্য কিছুই করেননি। একটা রিসেপশন করলে কী হত, স্পনসরও দিয়ে দিতাম।’

ভায়ানি বিশদভাবে বলেন, 'আমি এটিতে মন্তব্য করার মতো কেউ নই, তবে এটি সর্বনিম্ন একজন জনসাধারণ ব্যক্তি হিসাবে আপনি করতে পারেন। ভক্তরা আপনাকে এত ভালোবাসে এই সত্যের প্রশংসা করুন।'

চিত্র সাংবাদিকের কথায়, অনেক সময় তাঁর কাছে নানা পিআর, অভিনেতা-অভিনেত্রীদের ফোন আসে। ছবিতে বা ভিডিয়োতে নিজেদের অপছন্দের বিষয় নিয়ে ভাইরাল ভায়ানিকে ফোন করে জানান তাঁরা। গেল সময়ের অ্যাটিটিউড গিয়েছে, অনেকেই এখন নিজেদের ব্র্যান্ড বানাতে চায়। তবে একসময় সলমন খান এবং শ্রদ্ধা কাপুরের খারাপ আচারণের জন্য চিত্র সাংবাদিকেরা তাঁদের ব্যান্ড করেছিল বলেও ফাঁস করেন তিনি। শিল্পা শেট্টিকে ‘কুল’ অভিনেত্রী হিসেবে আখ্যা দিয়েছেন। 

আরেকটি জিনিস যা ভায়ানীকে প্রতিদিন মুখোমুখি হতে হয় তা হল অভিনেতাদের ‘হুমকিপূর্ণ কল’। তিনি বলেন, ‘অভিনেতারা বেশিরভাগই আমাকে কিছু জিনিস সরানোর জন্য ফোন করেন। আমি তাঁদের সঙ্গে তর্ক করি। আমার দৃষ্টিভঙ্গি আছে. তাই মানুষ আমাকে খুব একটা পছন্দ করে না। আমি আমার ভুল মেনে নেব কিন্তু যদি আমার কোনও ভুল না হয়, আমি লড়াই করব।’

 

 

বন্ধ করুন