বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > চাকরি বদলে PF অ্যাকাউন্ট ট্রান্সফারের ঝামেলা আর রইল না, বড় সিদ্ধান্ত EPFO-র
এমপ্লয়িজ প্রভিডেন্ট ফান্ড অর্গানাইজেশন (MINT_PRINT)
এমপ্লয়িজ প্রভিডেন্ট ফান্ড অর্গানাইজেশন (MINT_PRINT)

চাকরি বদলে PF অ্যাকাউন্ট ট্রান্সফারের ঝামেলা আর রইল না, বড় সিদ্ধান্ত EPFO-র

  • সি-ড্যাক নতুন সিস্টেমগুলি তৈরি করে ফেললে পরে আর অ্যাকাউন্ট ট্রান্সফারের ঝামেলা পোহাতে হবে না।

এমপ্লয়িজ প্রভিডেন্ট ফান্ড অর্গানাইজেশন বা ইপিএফও সেন্ট্রালাইজড আইটি-সক্ষম সিস্টেমের বিকাশের অনুমোদন দিয়েছে সম্প্রতি। এই সিদ্ধান্তের ফলে কোনও কর্মচারীকে এবার থেকে আর চাকরি পরিবর্তন করার সময় তাদের পিএফ তহবিল ট্রান্সফার করতে হবে না।

সেন্টার ফর ডেভেলপমেন্ট অফ অ্যাডভান্সড কম্পিউটিং বা সি-ড্যাক নতুন সিস্টেমগুলি তৈরি করে ফেললে পরে আর অ্যাকাউন্ট ট্রান্সফারের ঝামেলা পোহাতে হবে না কোনও কর্মচারীকে। এরপর চাকরি বদলের পর পিএফ অ্যাকাউন্ট নম্বর একই থাকবে এবং তাদের অ্যাকাউন্ট স্থানান্তর নিয়ে চিন্তা করতে হবে না।

একটি কেন্দ্রীয় ডেটাবেসে পর্যায়ক্রমে সরানো হবে সব তথ্যকে। এর ফলে মসৃণ অপারেশন এবং উন্নত পরিষেবা সরবরাহ করা সম্ভব হবে ইপিএফও-র তরফে। সিস্টেমটি যেকোনও সদস্যের সমস্ত পিএফ অ্যাকাউন্ট ডি-ডুপ্লিকেশন এবং একীভূত করার সুবিধা দেবে। কেন্দ্রীয় শ্রমমন্ত্রী ভূপেন্দ্র যাদবের নেতৃত্বে ইপিএফও-এর শীর্ষ সিদ্ধান্ত গ্রহণকারী সংস্থা, সেন্ট্রাল বোর্ড অফ ট্রাস্টিজের ২২৯তম সভায় এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছিল।

রিটায়ারমেন্ট ফান্ড ম্যানেজারও তার উপদেষ্টা সংস্থা ফাইন্যান্স ইনভেস্টমেন্ট অ্যান্ড অডিট কমিটিকে (এফআইএসি) ক্ষমতায়ন করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে যাতে নতুন অ্যাসেট ক্লাসে বিনিয়োগ করার জন্য আহ্বান জানানো হয়। এই বিষয়ে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী ভূপেন্দ্র যাদব বলেন, 'বর্তমানে, আমরা শুধুমাত্র নতুন যোগ করা সরকারি উপকরণে (বন্ড এবং ইনভিআইটি) বিনিয়োগ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। এর জন্য কোনও নির্দিষ্ট শতাংশের হার নেই। এই বিষয়ে কেস টু কেস ভিত্তিতে সিদ্ধান্ত নেবে এফআইএসি।'

 

বন্ধ করুন