বাড়ি > ঘরে বাইরে > NEP 2020: এবার স্কুলে ব্রেকফাস্ট দেওয়া হোক, চলবে মিড ডে মিলও : কেন্দ্র
মিড ডে মিলের সঙ্গে স্কুলে সকালের খাবারও দেওয়া হোক, পরামর্শ কেন্দ্রের (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য হিন্দুস্তান টাইমস) 
মিড ডে মিলের সঙ্গে স্কুলে সকালের খাবারও দেওয়া হোক, পরামর্শ কেন্দ্রের (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য হিন্দুস্তান টাইমস) 

NEP 2020: এবার স্কুলে ব্রেকফাস্ট দেওয়া হোক, চলবে মিড ডে মিলও : কেন্দ্র

  • স্কুলগুলিকে সব পড়ুয়াদের নিয়মিত স্বাস্থ্য পরীক্ষার বন্দোবস্ত করতে হবে।

এতদিন শুধু মিড ডে মিল দেওয়া হত। এবার থেকে স্কুলের পড়ুয়াদের সকালের জলখাবারও দেওয়ার পরামর্শ দিল কেন্দ্র। 

আরও পড়ুন : অনলাইন নয়, বাংলায় এবার টেলিফোনেই স্কুলের পাঠ দেওয়ার ব্যবস্থা

গত মঙ্গলবার কেন্দ্র যে নয়া শিক্ষানীতির (New Education Policy 2020 বা NEP 2020) ঘোষণা করেছে, তাতে জানানো হয়েছে, অপুষ্টিতে ভুগলে বা অসুস্থ থাকলে পড়ুয়ারা ভালোভাবে শিখতে পারে না। সেজন্য পুষ্টিকর ও স্বাস্থ্যকর খাদ্যের মাধ্যমে পড়ুয়াদের পুষ্টি এবং স্বাস্থ্যের (মানসিক স্বাস্থ্যও) উপর জোর দিতে হবে। পুরো প্রক্রিয়ার জন্য প্রশিক্ষিত সমাজকর্মী, মনোবিদদের নিয়োগ করা হবে। অন্তর্ভুক্ত করা হবে সমাজকেও। একইসঙ্গে শিক্ষা ব্যবস্থায় দারিদ্র্যতার যে প্রভাব আছে, তা কমানোর জন্য বিভিন্ন পদক্ষেপ করা হবে নয়া শিক্ষানীতিতে জানানো হয়েছে। কেন্দ্রের নির্দেশ, স্কুলগুলিকে সব পড়ুয়াদের নিয়মিত স্বাস্থ্য পরীক্ষার বন্দোবস্ত করতে হবে। তাদের ‘স্বাস্থ্য কার্ড’ (হেলথ কার্ড) বিলির নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

আরও পড়ুন : সেপ্টেম্বরে খুলতে পারে স্কুল - কলেজ, নবান্নে আভাস দিলেন মমতা

পাশাপাশি গবেষণা উদ্ধৃত করে নয়া শিক্ষানীতিতে জানানো হয়েছে, যে বিষয়গুলি বোঝার জন্য বেশি মস্তিষ্ক কাজে লাগাতে হয়, সেগুলির আগে সকালে পুষ্টিকর জলখাবার (ব্রেকফাস্ট) খেলে তা পড়ুয়াদের পক্ষে ফলদায়ক হবে। সেজন্য মিড ডে মিলের পাশাপাশি সকালে হালকা ও এনার্জিদায়ক খাবার দেওয়া যেতে পারে বলে জানিয়েছে কেন্দ্র। নয়া শিক্ষানীতির নথিতে বলা হয়েছে, ‘খাবারের মান এবং পুষ্টিগত উপাদান নিশ্চিত করতে খাবারের দাম এবং মুদ্রাস্ফীতির সঙ্গে জলখাবারের খরচ যোগ করা হবে।’

বন্ধ করুন