বাংলা নিউজ > ময়দান > এএফসি কাপ বাতিল হওয়ার পর দিনই এটিকে মোহনবাগানের জন্য বড় দুঃসংবাদ
মাকে হারালেন অরিন্দম।
মাকে হারালেন অরিন্দম।

এএফসি কাপ বাতিল হওয়ার পর দিনই এটিকে মোহনবাগানের জন্য বড় দুঃসংবাদ

  • করোনার জেরেই এএফসি কাপ বাতিল হয়ে গিয়েছে। সব মিলিয়ে করোনা সংক্রমণের কারণে আতঙ্কিত গোটা বিশ্ব।

মাতৃহারা হলেন ভারতের অন্যতম সেরা গোলকিপার অরিন্দম ভট্টাচার্য। কোভিডে আক্রান্ত হয়েছিলেন অরিন্দমের মা। সোমবার সকালে তিনি প্রয়াত হন বলে জানা গিয়েছে।

এক বছর আগেই অরিন্দম তাঁর বাবাকে হারিয়েছেন। স্বভাবতই মায়ের মৃত্যুতে একেবারেই ভেঙে পড়েছেন এটিকে মোহনবাগানের এক নম্বর গোলকিপার। কিছু দিন আগেই অরিন্দমের মা কোভিড আক্রান্ত হন। সেই কারণেই এএফসি কাপে অরিন্দম খেলতে যেতে পারবেন না বলে এটিকে মোহনবাগান কর্তৃপক্ষকে জানিয়েও দিয়েছিলেন। তবে প্রায় দু'সপ্তাহ ধরে লড়াইয়ের পরও মাকে বাঁচাতে না পেরে মুষড়ে পড়েছেন অরিন্দম।

সম্প্রতি সবুজ-মেরুনের প্রবীর দাস এবং শেখ সাহিলের করোনা টেস্টের রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে। শোনা যাচ্ছে, প্রবীরের পরিবারের অন্যরাও নাকি করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। আসলে এই মুহূর্তে বাংলা সহ গোটা ভারতেই করোনা পরিস্থিতি খুবই উদ্বেগজনক। করোনার জেরেই এএফসি কাপ বাতিল হয়ে গিয়েছে। সব মিলিয়ে করোনা সংক্রমণের জেরে আতঙ্কিত গোটা বিশ্ব।

এই বছর অরিন্দম সবুজ-মেরুন জার্সিতে অসাধারণ পারফরম্যান্স করেছেন। আইএলএলে ‘গোল্ডেন গ্লাভ’ও পেয়েছেন। তবে আইএসএল ফাইনালের দিন তাঁর পারফরম্যান্স নিয়ে কিছু প্রশ্ন উঠেছিল। এমনকী ফাইনালে হারের জন্য নিজেকেই অরিন্দম দায়ী করেছিলেন। এর জেরে ম্যাচের শেষে কান্নায় ভেঙে পড়তেও দেখা গিয়েছিল তাঁকে। সেই যন্ত্রণা থেকে সামলে উঠতে না উঠতেই ফের মায়ের মৃত্যুর শোকে অরিন্দম একেবারে বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছেন।

বন্ধ করুন