বাংলা নিউজ > ময়দান > IPL 22: আমি ম্যাচ উইনার, ৭-৮ বছরের অভিজ্ঞতা রয়েছে: জিতেশ শর্মা
জিতেশ শর্মা (ANI)

IPL 22: আমি ম্যাচ উইনার, ৭-৮ বছরের অভিজ্ঞতা রয়েছে: জিতেশ শর্মা

  • পার্থিব প্যাটেল, জস বাটলার এবং নিকোলাস পুরানের উপস্থিতিতে সেই বছর আর তিনি খেলার সুযোগ পাননি। তিনি আরও যোগ করেন 'আমার কাছে ৭-৮ বছরের অভিজ্ঞতা রয়েছে। ২০ বছর বয়সির কাছে সেটা নেই। তারা হয়ত ভয়ডরহীন ক্রিকেট খেলে।

শুভব্রত মুখার্জি: চলতি আইপিএলে পঞ্জাব কিংস দলের ব্যাটিং লাইন আপ অত্যন্ত শক্তিশালী। ময়াঙ্ক আগরওয়াল, শিখর ধাওয়ান, জনি বেয়ারস্টো, ভানুকা রাজাপক্ষ, লিয়াম লিভিংস্টোন সমৃদ্ধ এই ব্যাটিং লাইন আপে আলাদা করে জায়গা পাওয়াটাও একটা বড় ব্যাপার। সেই জায়গায় দাঁড়িয়ে বিদর্ভের উইকেট রক্ষক ব্যাটার জিতেশ শর্মা তার ধারাবাহিক পারফরম্যান্সের মধ্যে দিয়ে এই লাইন আপেও নিজের জন্য আলাদা একটা জায়গা তৈরি করে নিয়েছেন। দিল্লি ক্যাপিটালস দলের বিরুদ্ধে যখন গোটা ব্যাটিং লাইন আপ ব্যর্থ তখন জিতেশের ৪৪ রানের ইনিংস আলাদা জায়গা করে নিয়েছিল। এমন আবহে দাঁড়িয়ে আত্মবিশ্বাসী জিতেশ জানিয়ে দিলেন তিনি ম্যাচ উইনার। তার ঝুলিতে ৭-৮ বছরের অভিজ্ঞতা রয়েছে যা একজন তরুণ ক্রিকেটারের কাছে নেই।

ইএসপিএন ক্রিকইনফোকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে জিতেশ শর্মা জানিয়েছেন 'আমি একজন ম্যাচ উইনার। আমি খুব খুশি ম্যাচে আমি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করতে পেরেছি। আমি যদি ৬০ রান করার বদলে যদি ২০ রান করি আর আমার দল ম্যাচটা জেতে তাহলে তার থেকে ভাল আর কিছু হতে পারে না। আমি খুব খুশি ম্যাচ শেষ করার যে দায়িত্ব আমাকে দেওয়া হয়েছে তা আমি ভালভাবে পালন করতে পেরেছি। সবার এইভাবে ম্যাচ জেতানোর ক্ষমতা নেই।'

২০১৭ সালে প্রথমবার মুম্বই ইন্ডিয়ান্স দলের হয়ে আইপিএলে খেলার সুযোগ পেলেও একটিও ম্যাচ খেলা হয়নি তার। পার্থিব প্যাটেল, জস বাটলার এবং নিকোলাস পুরানের উপস্থিতিতে সেই বছর আর তিনি খেলার সুযোগ পাননি। তিনি আরও যোগ করেন 'আমার কাছে ৭-৮ বছরের অভিজ্ঞতা রয়েছে। ২০ বছর বয়সির কাছে সেটা নেই। তারা হয়ত ভয়ডরহীন ক্রিকেট খেলে। তবে ম্যাচ কোন পরিস্থিতিতে কী শট খেলতে হবে তা অভিজ্ঞতার সঙ্গে সঙ্গে আসে। তাদের হাতে পারফরম্যান্স ভাল করার অনেক সুযোগ রয়েছে। আর আমার পজিটিত আমার অভিজ্ঞতা রয়েছে যা আমি কাজে লাগাতে পারি।'

বন্ধ করুন