বাংলা নিউজ > ময়দান > শেষকৃত্যের দিনই পাওলো রোসির বাড়িতে চুরি, লোপাট ঘড়ি-সহ মূল্যবান সামগ্রী

প্রথমে দিয়েগো মারাদোনা,তারপর পাওলো রোসি। কয়েক সপ্তাহের ব্যবধানে বিশ্ব হারিয়েছে দুই কিংবদন্তি ফুটবলারকে। একজন ১৯৮২ বিশ্বকাপের নায়ক তো, অপরজন ১৯৮৬ সালের নায়ক‌। কয়েকদিন আগেই ফুটবল বিশ্বকে চোখের জলে ভাসিয়ে না ফেরার দেশে পাড়ি দিয়েছেন ১৯৮২ সালের বিশ্বকাপ ফুটবলের সর্বোচ্চ গোলদাতা ইতালির কিংবদন্তি ফুটবলার পাওলো রোসি।

প্রয়াণের পরে ইতালির উত্তর–পূর্বাঞ্চলীয় শহর ভিচেনৎসার এক গির্জায় তাঁর শেষকৃত্য সম্পন্ন হয়েছে। ইতালির রাই টেলিভিশনে সরাসরি সম্প্রচার করা হয়েছে রোসির শেষকৃত্য।আর সেদিনেই প্রয়াত রোসির তুসকানি অঞ্চলের বাড়িতে চুরি হল।

তুসকানির ফ্লোরেন্স এলাকায় একটি ফার্ম হাউস রয়েছে পাওলো রোসির। সেখানেই পরিবারকে নিয়ে থাকতেন কিংবদন্তি। ফার্ম হাউসে জৈবচাষের একটি কোম্পানিও রয়েছে রোসির পরিবারের। পরিবার ও বন্ধুবান্ধবরা যখন ভিচেনৎসাতে রোসির শেষকৃত্যে ব্যস্ত, সেই সময়ে ওই ফার্ম হাউসে লুঠপাট চালায় দুষ্কৃতীরা।রোসির স্ত্রী ফেদেরিকা কাপেলেত্তি ভিচেনৎসা থেকে ফিরে দেখেন তাঁর বাড়িঘর পুরো ওলটপালট হয়ে রয়েছে। রোসির একটি দামি ঘড়ি, অর্থ-সহ বেশকিছু মূল্যবান সামগ্রী মিলছে না। বিষয়টির তদন্ত করছে ইতালির পুলিশ।

বন্ধ করুন