বাংলা নিউজ > ময়দান > ১৪ ম্যাচে একটিও ৫০ না করলে সমালোচনা তো হবেই, রোহিতের অফফর্ম নিয়ে চাঁচাছোলা কপিল
রোহিত শর্মার পারফরম্যান্সে চূড়ান্ত হতাশ কপিল। ছবি- রয়টার্স/পিটিআই।

১৪ ম্যাচে একটিও ৫০ না করলে সমালোচনা তো হবেই, রোহিতের অফফর্ম নিয়ে চাঁচাছোলা কপিল

  • এ মরশুমের আইপিএলে ১২০.১৭-র স্ট্রাইক রেট ও ১৯.১৪ গড়ে রোহিত মাত্র ২৪৮ রান করেছিলেন।

১ জুলাই থেকে শুরু হচ্ছে ভারত-ইংল্যান্ড সিরিজ। এই সিরিজেই অধিনায়ক হিসাবে বিদেশের মাটিতে নিজের এখনও অবধি সবথেকে বড় চ্যালেঞ্জের মুখোমুথি হতে চলেছেন রোহিত শর্মা। গত ইংল্যান্ড সফরে একটি শতরান ও দুইটি অর্ধশতরানসহ রোহিত চার টেস্টে মোট ৩৬৮ রান করেছিলেন। তবে এবার কিন্তু ভারতীয় অধিনায়ক একেবারেই ফর্মে নেই, যা ভারতীয় সমর্থকদের চিন্তা বাড়াচ্ছে।

নিজের কেরিয়ারের সবথেকে খারাপ আইপিএল মরশুমে রোহিত ১২০.১৭-র স্ট্রাইক রেট ও ১৯.১৪ গড়ে রোহিত মাত্র ২৪৮ রান করেছিলেন। আইপিএলের পর ঘরের মাঠে দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে বিশ্রাম দেওয়া হয়েছিল রোহিতকে। অফফর্মের ভারতীয় অধিনায়ককে বিশ্রাম কেন দেওয়া হয়েছিল, সেটাই ঠিক বুঝে উঠতে পারছেন না কপিল দেব। পাশাপাশি দীর্ঘদিন রান না করায় রোহিতের সমালোচনা খুবই স্বাভাবিক বলেও মনে করছেন তিনি।

আরও পড়ুন:-আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ১৫ বছর পেরিয়ে শুধু সমর্থক নয়, সমালোচকদেরও বিশেষ বার্তা দিলেন রোহিত

UnCut-কে কপিল এক সাক্ষাৎকারে বলেন, ‘আজকাল কোন খেলোয়াড়কে বিশ্রাম দেওয়া হচ্ছে এবং কে নিজে থেকে বিশ্রাম চান, তা নির্বাচক বাদে বাকি কারুরই বোঝা মুশিকল। ও (রোহিত) যে দুর্দান্ত ক্রিকেটার, সেই নিয়ে সন্দেহের অবকাশ নেই। তবে ১৪ ম্যাচে একটিও ৫০ না করলে ডন ব্র্যাডম্যান, সচিন তেন্ডুলকর, বিরাট কোহলি, ভিভ রিচার্ডস, যেই হন না কেন, সমালোচনা হওয়াটা খুবই স্বাভাবিক। ও অত্যাধিক পরিমাণে ক্রিকেট খেলতে বাধ্য হচ্ছে না, খেলাটা আর উপভোগ করছে না, সেটা খালি রোহিতই বলতে পারে। রোহিত, বিরাটদের খেলাটা উপভোগ করা খুবই জরুরি।’

আরও পড়ুন:- হঠাৎ প্রতিভাবান তরুণের ওপর বেজায় চটলেন কপিল!

রোহিত-বিরাটের মানসিকতার কথা সামনে এনে কপিল স্পষ্ট জানিয়ে দেন যে রান না করলে সমালোচকদের মুখ বন্ধ করাটা খুবই কঠিন। ‘রান করাটা সবার আগে প্রয়োজন। শুধুমাত্র বড় নামের সুবাদে বেশিদিন দলে থাকা যায় না। রান না করলে ধীরে ধীরে সুযোগও কমে আসবে। ১৪ ম্যাচের থেকে বেশি আর কত সুযোগ চাই? জানি না কেন ওদের (প্রোটিয়া সিরিজে) বিশ্রাম দেওয়া হয়েছিল। আমার মতে ওদের মানসিকতাটা সবার আগে ঠিক করা প্রয়োজন। আমি ভুল প্রমাণিত হলে খুশিই হব। তবে ধারাবাহিকভাবে রান না এলে কোথাও না কোথাও তো সমস্যা আছেই। আমরা শুধু পারফরম্যান্সটাই দেখি। সেটা খারাপ হলে লোকেদের মুখ বন্ধ করাটা সম্ভব নয়। ব্যাট হাতে পারফরম্যান্সেই একমাত্র এর জবাব দেওয়া যায়। বাকি কিছুর মানে নেই।’ স্পষ্টবাক বিশ্বকাপজয়ী ভারতীয় অধিনায়ক।

 

 

বন্ধ করুন