বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > Anubrata Mondal: পার্টি অফিস তৈরির জন্য দানপত্র করা জমি হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগ অনুব্রতর বিরুদ্ধে

Anubrata Mondal: পার্টি অফিস তৈরির জন্য দানপত্র করা জমি হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগ অনুব্রতর বিরুদ্ধে

অনুব্রত মণ্ডল। (ফাইল ছবি, সৌজন্যে ফেসবুক)

জমির যে নথি সিবিআইয়ের হাতে এসেছে তাতে দেখা যাচ্ছে, জমিটি হাতবদল হয়েছে ২ লক্ষ টাকার বিনিময়ে। সেই জমি নথিভুক্ত রয়েছে অনুব্রত মণ্ডলের নামে। দলিলে লেখা রয়েছে অনুব্রত মণ্ডলের পদও। জেলা তৃণমূল সভাপতি, বীরভূম।

এবার তৃণমূলের পার্টি অফিস তৈরির জন্য দলীয় কর্মীদের দান করা জমি জবরদখলের অভিযোগ উঠল অনুব্রত মণ্ডলের বিরুদ্ধে। দলিলে কারসাজি করে সেই জমি অনুব্রত মণ্ডল দখল করেছেন বলে অভিযোগ জমিদাতা পরিবারের। ২০১৫ সালে নানুরে দলের পার্টি অফিস তৈরির জন্য জমি দান করেছিলেন মণ্ডল পরিবার। গরুপাচারের সিবিআই তদন্তে দেখা যায় সেই জমি নথিভুক্ত রয়েছে অনুব্রত মণ্ডলের নামে।

নানুরের মণ্ডল পরিবারের তরফে জানানো হয়েছে, ২০১৫ সালে দলের তরফে বেশ কয়েকজন আমাদের কাছে পার্টি অফিস তৈরির জন্য জমি চায়। আমরা ৮ শতক মাপের একটি অব্যবহৃত জমি দলকে দিই। জমিটির ১৭ জন শরিক। আমরা জমি দানের বিনিময়ে কোনও টাকা নিইনি। তবে অন্য কোনও শরিক নিয়েছে কি না বলতে পারব না। এখন শুনছি ওই জমি অনুব্রত মণ্ডলের নামে নথিভুক্ত।

টাকা তুলতে নারাজ তৃৃণমূল নেতাকে গাঁজা কেসে ফাঁসিয়ে দিয়েছিলেন অনুব্রত?

ওদিকে ওই জমির যে নথি সিবিআইয়ের হাতে এসেছে তাতে দেখা যাচ্ছে, জমিটি হাতবদল হয়েছে ২ লক্ষ টাকার বিনিময়ে। সেই জমি নথিভুক্ত রয়েছে অনুব্রত মণ্ডলের নামে। দলিলে লেখা রয়েছে অনুব্রত মণ্ডলের পদও। জেলা তৃণমূল সভাপতি, বীরভূম।

জমিদাতাদের দাবি, জমি আমরা দলকে দিয়েছি, অনুব্রতকে দিইনি। তার পরও কী ভাবে অনুব্রতর নামে জমি নথিভুক্ত হল জানি না। সম্ভবত সরকারি কর্মচারীদের প্রভাবিত করে এই কাজ করেছেন তিনি। পার্টির নামে দানপত্র করা জমি এভাবে নিজের নামে লিখিয়ে নেওয়া অনুচিত।

বীরভূমের বিভিন্ন জায়গায় অনুব্রত মণ্ডলের নামে এরকম ছোট বড় বিভিন্ন জমির খোঁজ পাওয়া গিয়েছে বলে সিবিআই সূত্রের খবর। আর প্রায় সব জমিই হাতবদল হয়েছে ২০১৪ সাল থেকে ২০১৮ সালের মধ্যে।

 

বন্ধ করুন