মাধ্যমিকের খাতা মূল্যায়নের ক্ষেত্রে নয়া নিয়ম (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই)
মাধ্যমিকের খাতা মূল্যায়নের ক্ষেত্রে নয়া নিয়ম (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই)

Madhyamik Results 2020: কেন কাটা হচ্ছে নম্বর? লিখে দিতে হবে মাধ্যমিকের উত্তরপত্রে

  • চলতি বছর মাধ্যমিক শুরু হয়েছিল ১৮ ফেব্রুয়ারি থেকে। চলেছে ২৬ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত।

মাধ্যমিকের খাতা মূল্যায়নের ক্ষেত্রে নয়া নিয়ম চালু করল মধ্যশিক্ষা পর্ষদ। চলতি বছর থেকে কী কারণে নম্বর কাটা হয়েছে, তা উত্তরপত্রে লিখে দিতে হবে।

চলতি বছর মাধ্যমিক শুরু হয়েছিল ১৮ ফেব্রুয়ারি থেকে। চলেছে ২৬ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত। তারপর উত্তরপত্র বণ্টনের কাজ চলছে। খাতা দেখার প্রক্রিয়া শুরুর আগেই পরীক্ষকদের জন্য নয়া নির্দেশিকা জারি করেছে মধ্যশিক্ষা পর্ষদ। নির্দেশিকায় জানানো হয়েছে, কোনও উত্তরের নম্বর কেন কাটা হচ্ছে, তা উত্তরপত্রেই লিখে দিতে হবে।

বিষয়টা ঠিক কী? ধরা যাক, কোনও পরীক্ষার্থী পাঁচ নম্বরের উত্তর লিখেছে। সেখানে যদি পরীক্ষক তাকে দু'নম্বর দেয়, কী কারণে তাকে সেই নম্বর দেওয়া হল তা উত্তরপত্রে লিখে দিতে হবে। অর্থাৎ কেন তিন নম্বর কাটা হয়েছে, তা লিখে দিতে হবে। তবে কী কারণে এই নিয়ম চালু হচ্ছে তা অবশ্য পর্ষদের তরফে ব্যাখ্যা করা হয়নি।

সংশ্লিষ্ট মহলের অবশ্য ধারণা, পরীক্ষকরা কী ভেবে নম্বর দিচ্ছেন সেটা তাহলে পরে সহজেই বোঝা যাবে। এছাড়াও অনেক ক্ষেত্রেই উত্তরপত্র নিয়ে মামলা হয়। সেক্ষেত্রে কী কারণে নম্বর কম দেওয়া হয়েছে, তা আগে থেকেই উল্লেখ থাকায় সুবিধা হবে পর্ষদের।



বন্ধ করুন