বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > পাথুরিয়াঘাটায় ১০৮টি বিপজ্জনক বাড়ি চিহ্নিত হয়েছে, পদক্ষেপ করছে কলকাতা পুরসভা

পাথুরিয়াঘাটায় ১০৮টি বিপজ্জনক বাড়ি চিহ্নিত হয়েছে, পদক্ষেপ করছে কলকাতা পুরসভা

হুড়মুড়িয়ে ভেঙে পড়ে বাড়িটির একাংশ।

৮০/১ নম্বর পাথুরিয়াঘাটা স্ট্রিটের ওই বাড়ির একাংশ ভেঙে দু’জন আটকে পড়েন দু’‌দিন আগে। পুলিশ, কলকাতা পুরসভা, সিইএসসি’‌র কর্মীরা দু’‌ঘণ্টার চেষ্টায় তাঁদের বের করে আনেন। কয়েকদিন আগে একটি নোটিশ ঝোলানো হয়েছিল। কিন্তু বাড়ি যে ভেঙে পড়তে পারে সেটা অনেকেই বুঝতে পারেননি।

দু’‌দিন আগে রাতের দিকে ভেঙে পড়েছিল পাথুরিয়াঘাটার একটি বাড়ির একাংশ। তা নিয়ে জোর আলোড়ন পড়ে যায় এলাকায়। ওই এলাকায় কতগুলি বিপজ্জনক বাড়ি আছে?‌ সেই তথ্য জানতে চেয়ে দ্রুত রিপোর্ট দিতে পুরপ্রতিনিধিকে নির্দেশ দেওয়া হয়। কলকাতা পুরসভার ২১ নম্বর ওয়ার্ডে বিপজ্জনক বাড়ির একাংশ ভেঙে পড়েছিল গত শুক্রবার। আর তাই এবার স্থানীয় পুরপ্রতিনিধিকে এই নির্দেশ দিয়েছেন মেয়র ফিরহাদ হাকিম। কলকাতা পুরসভা সূত্রে খবর, এই নির্দেশের পরই ওই ওয়ার্ডে ১০৮টি বিপজ্জনক বাড়ি চিহ্নিত করা হয়েছে। এবার কড়া পদক্ষেপ নেবে কলকাতা পুরসভা বলে সূত্রের খবর।

ইতিমধ্যেই বেআইনি নির্মাণ জনসমক্ষে নিয়ে আসতে ওয়েবসাইট চালু করছে কলকাতা পুরসভা। যাতে শহরের মানুষজন জানতে পারেন কোথায় বেআইনি নির্মাণ আছে। পুরসভা কেমন পদক্ষেপ করেছে। আদালতের শুনানিতে কি বলা হয়েছে। সব তথ্য ওই ওয়েবসাইটে মিলবে। এবার তার সঙ্গে যোগ হল বিপজ্জনক বাড়ির হদিশ করার নির্দেশ। এই বিষয়ে কলকাতা পুরসভা মেয়র ফিরহাদ হাকিম বলেন, ‘বিপজ্জনক বাড়ি শহরের একটা বড় সমস্যা হয়ে দাঁড়িয়েছে। সাধারণ মানুষকে এবার এগিয়ে আসতে হবে। তবে শহরের বিপজ্জনক বাড়ির সমস্যা মিটিয়ে ফেলার জন্য পদক্ষেপ করার নির্দেশ দিচ্ছি পুরপ্রতিনিধিদের।’

আরও পড়ুন:‌ বেআইনি নির্মাণ এবার আসবে প্রকাশ্যে, কলকাতা পুরসভা নিয়ে আসছে নয়া ওয়েবসাইট

এদিকে ৮০/১ নম্বর পাথুরিয়াঘাটা স্ট্রিটের ওই বাড়ির একাংশ ভেঙে দু’জন আটকে পড়েন দু’‌দিন আগে। পুলিশ, কলকাতা পুরসভা, সিইএসসি’‌র কর্মীরা দু’‌ঘণ্টার চেষ্টায় তাঁদের বের করে আনেন। কয়েকদিন আগে একটি নোটিশ ঝোলানো হয়েছিল। কিন্তু বাড়ি যে ভেঙে পড়তে পারে সেটা অনেকেই বুঝতে পারেননি। ওই নোটিশে লেখা, ‘কয়েকটি ভাড়াটে পরিবার অন্য জায়গায় বসবাস করছে। তাদের থাকার দায়িত্ব নিয়েছে নির্মাণ সংস্থা। কিন্তু কিছু পরিবারকে বলা সত্ত্বেও বিপজ্জনক বাড়ি ছাড়েনি। নির্মাণকাজ শুরু হলে এই বাড়ি ভেঙে পড়তে পারে।’‌ এই নোটিশের পরও সেখানে যাঁরা ছিলেন তাঁদের মধ্যে দু’‌জন আটকে পড়েন।

অন্যদিকে ওখানের আর একটি বাড়িতে নির্মাণ কাজ চলাকালীন এমন ঘটনা ঘটেছে বলে খবর। এই বিষয়ে স্থানীয় ২১ নম্বর ওয়ার্ডের পুরপ্রতিনিধি মীরা হাজরা বলছেন, ‘নির্মাণ সংস্থা তিনটি ঠিকানার সব বাড়ি কেনার পর ভাড়াটেরা নানা দাবি তোলেন। নির্মাণ সংস্থাটি প্রায় সমস্ত দাবি মিটিয়ে দেয়। কিছু পরিবার অন্যত্র চলে যায়। বাকি চারটি পরিবার ভেঙে পড়া বাড়িটিতে ছিল। এই পরিবারগুলি আসলে ভাড়াটের ভাড়াটে। তাই উঠে গেলে আর জায়গা ফিরে না পাওয়ার শঙ্কা ছিল। তা থেকেই এখানে থাকার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছিল।’‌

বাংলার মুখ খবর

Latest News

বাংলাদেশের জেলে আগুন ধরিয়ে দিলেন বিক্ষোভকারীরা, ডাউকি সীমান্ত দিয়ে ফিরলেন ভারতীয় বাংলাদেশে হিংসা ছড়াচ্ছে মৌলবাদী ও ISI? বড় প্রশ্ন ভারতের প্রাক্তন বিদেশ সচিবের হজের শতরানে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে ফিরল উইন্ডিজ! এখনও পিছিয়ে ৬৫ রানে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে সব থেকে বড় জয় ভারতের! স্মৃতিরা ম্যাচ জিতে গড়লেন ইতিহাস… মা হারা জুহিকে সামলেছিলেন শাহরুখ, এখনও মনে রেখেছেন অভিনেত্রী! ‘‌অসম মুসলিম সংখ্যাগরিষ্ঠ রাজ্য হবে’‌, হিমন্ত বিশ্বশর্মার মন্তব্যে তুমুল বিতর্ক অজানা পোকার কামড়ে ফোসকা পড়ছে শরীরে, মৃত্যু হয়েছে গৃহবধূর, আতঙ্কে রায়গঞ্জ 'মন খারাপ হচ্ছে...' নীলাঞ্জনা-যিশুর বিচ্ছেদের গুঞ্জনের মাঝে কী লিখলেন রাজর্ষি? জেলে আগুন ধরিয়ে বন্দীদের মুক্ত করল পড়ুয়ারা, বাংলাদেশে মৃত বেড়ে ৭৫, উদ্বিগ্ন UN ১৯২৪-২০২৪, প্যারিসে অলিম্পিক গেমসের ১০০ বছরের কতটা বদলাল ‘গ্রেটেস্ট শো অন আর্থ’!

Copyright © 2024 HT Digital Streams Limited. All RightsReserved.