বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > কোথায় কত ঢাললো নিম্নচাপ? বিশ্বকর্মা পুজোতেই বা কেমন থাকবে আবহাওয়া?
মঙ্গলবার কলকাতার রাস্তায় মেয়েকে কোলে নিয়ে রাস্তা পার করছেন এক পিতা।  (PTI)
মঙ্গলবার কলকাতার রাস্তায় মেয়েকে কোলে নিয়ে রাস্তা পার করছেন এক পিতা।  (PTI)

কোথায় কত ঢাললো নিম্নচাপ? বিশ্বকর্মা পুজোতেই বা কেমন থাকবে আবহাওয়া?

  • আবহাওয়াবিদরা জানাচ্ছেন, নিম্নচাপ সরে গেলেও দক্ষিণবঙ্গের বায়ুমণ্ডলে রয়েছে প্রচুর জলীয় বাস্প। তার জেরেই হতে পারে বৃষ্টি।

টানা ২ দিন বৃষ্টির পর অবশেষে দক্ষিণবঙ্গের আকাশে দেখা দিয়েছে চাঁদ। আর তাতেই মুখে হাসি ফুটেছে বিশ্বকর্মা পুজোর উদ্যোক্তাদের। পূর্বাভাস বলছে, আগামী কয়েকদিন দক্ষিণবঙ্গে বিক্ষিপ্ত বৃষ্টির সম্ভাবনা থাকলেও আয়োজন পণ্ড হওয়ার সম্ভাবনা নেই।

পূর্বাভাস অনুসারে বৃহস্পতি ও শুক্রবার রাজ্যে আংশিক মেঘলা থাকবে আকাশ। সঙ্গে বিক্ষিপ্তভাবে বজ্রবিদ্যুৎসহ হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টি হতে পারে। কোথাও কোথাও কয়েক পশলা ভারী বর্ষণের সম্ভাবনা রয়েছে। আবহাওয়াবিদরা জানাচ্ছেন, নিম্নচাপ সরে গেলেও দক্ষিণবঙ্গের বায়ুমণ্ডলে রয়েছে প্রচুর জলীয় বাস্প। তার জেরেই হতে পারে বৃষ্টি। আপেক্ষিক আর্দ্রতা বেশি থাকায় কখনো রোদ উঠলে চরম আস্বস্তিকর আবহাওয়া তৈরি হতে পারে।

সপ্তাহের শেষে রাজ্যে ফের হানা দিতে পারে আরেকটি ঘূর্ণাবর্ত। যার জেরে রবি ও সোমবার ফের নাগাড়ে বর্ষণের সম্ভাবনা রয়েছে। তার আগে পর্যন্ত দক্ষিণবঙ্গে চলবে মেঘবৃষ্টির খেলা।

বুধবার বিকেল পর্যন্ত গত ২৪ ঘণ্টায় খড়গপুরে ২৮০ মিমি, মেদিনীপুরে ২৮০ মিমি, কলাইকুন্ডায় ২৭০ মিমি, হাওড়ায় ২০৪ মিমি, কাঁথিতে ১৮০ মিমি, ডায়মন্ড হারবারে ১৮০ মিমি, দমদমে ১৬০ মিমি, বিধাননগরে ১৩৫ মিমি, বারাকপুরে ১৩০ মিমি, ঝাড়গ্রামে ১১০ মিমি ও আলিপুরে ১০২ মিমি বৃষ্টি হয়েছে। কলাইকুন্ডায় ২ দিনে বৃষ্টি হয়েছে ৩৭০ মিমি, খড়গপুরে ৩৩০ মিমি, মেদিনীপুরে ৩২০ মিমি।

 

বন্ধ করুন