বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > এবার মমতার ঘাড়ে দোষ চাপালেন হর্ষ বর্ধন, অব্যাহত টিকা নীতি নিয়ে বিতর্ক
কে্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী হর্ষ বর্ধন (ছবি সৌজন্যে পিটিআই) (PTI)
কে্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী হর্ষ বর্ধন (ছবি সৌজন্যে পিটিআই) (PTI)

এবার মমতার ঘাড়ে দোষ চাপালেন হর্ষ বর্ধন, অব্যাহত টিকা নীতি নিয়ে বিতর্ক

  • টিকা নীতি নিয়ে বিতর্ক যেন শেষ হতে চাইছে না। বিগত বেশ কয়েক মাস ধরেই কেন্দ্রের টিকা নীতি নিয়ে ক্রমাগত তোপ দেগে চলেছিল রাজ্যগুলি।

টিকা নীতি নিয়ে বিতর্ক যেন শেষ হতে চাইছে না। বিগত বেশ কয়েক মাস ধরেই কেন্দ্রের টিকা নীতি নিয়ে ক্রমাগত তোপ দেগে চলেছিল রাজ্যগুলি। সেই আবহে কয়েকদিন আগেই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী ঘোষণা করে টিকা নীতি বদলের কথা জানান। সেই নীতি বদলকে রাজ্যগুলি তাদের জয় বলে দাবি করলেও কেন্দ্রের দাবি, এই নীতি বদল রাজ্যের ব্যর্থতার ফল। এই পরিস্থিতিতে এবার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে তোপ দাগলেন কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী হর্ষ বর্ধন।

মুখ্যমন্ত্রীকে তোপ দেগে এদিন হর্ষ বর্ধন প্রশ্ন তোলেন, মমতা কী চান, সেটা নিয়ে তিনি কি নিজে স্পষ্ট? পাশাপাশি বর্ষ বর্ধনের দাবি, মমতার 'অবস্থান' তাঁকে অবাক করেছে। মুখ্যমন্ত্রীর দু’টি চিঠিকে সামনে রেখে মমতাকে তোপ দাগেন কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী।

হর্ষ বর্ধন মুখ্যমন্ত্রীর যেই দুটি চিঠি টুইট করেছেন, তার প্রথমটি লেখা গত ফেব্রুয়ারিতে। তাতে মমতা আবেদন জানান, যাতে রাজ্য সরকারগুলিকে নিজস্ব টাকায় টিকা কেনার ছাড়পত্র দেওয়া হয়। পরবর্তীতে সেই দাবি মতোই রাজ্যগুলিকে টিকা কেনার অনুমোদন দেয় কেন্দ্র। তবে পরিস্থিতির অবনতি ঘটলে মোদী ঘোষণা করে জানান, এখন থেকে ফের সমস্ত রাজ্যকে কেন্দ্রই টিকা সরবরাহ করবে।

এরপর এদিন মুখ্যমন্ত্রীকে তোপ দেগে কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী লেখেন, 'রাজ্যগুলিকে টিকা কিনতে দেওয়ার আবেদন জানিয়ে আওয়াজ তোলার ক্ষেত্রে আপনি (পড়ুন : মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়) নেতৃত্ব দিয়েছিলেন। যুক্তরাষ্ট্রীয় পরিকাঠামোর স্বার্থে সেই দাবিতে সায় দিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। একই সঙ্গে কেন্দ্রীয় সরকারও বিনামূল্যে ভ্যাকসিন দিয়ে যাচ্ছিল রাজ্যগুলিকে।'

এরপর কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী আরও লেখেন, 'কিন্তু, একটিও ভ্যাকসিনের ডোজ সংগ্রহ করতে ব্যর্থ হওয়ার পর এখন আপনি দোষারোপ করছেন এবং কৃতিত্ব নেওয়ার চেষ্টা চালাচ্ছেন। এটি বিশ্বব্যাপী মহামারী, আপনি কৃতিত্ব নিন তাতে আপত্তি নেই। কিন্তু বিশ্বের বৃহত্তম টিকাকরণ কর্মসূচিকে দ্রুত গতিতে এগিয়ে নিয়ে যেতে সাহায্য করুন।'

বন্ধ করুন